Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ২৮ জুন ২০২২, ১৪ আষাঢ় ১৪২৯, ২৭ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

মুশফিক-লিটনের জোড়া ফিফটি

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ মে, ২০২২, ২:৩৩ পিএম

মিরপুর টেস্টে শুরুর বিপদ কাটিয়ে মুশফিকুর রহিম ও লিটন দাসের হাফসেঞ্চুরিতে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ। দিনের শুরুর সেশনেই মেরুদণ্ড ভেঙে যায় স্বাগতিকদের। চট্টগ্রাম টেস্ট নিষ্প্রাণ ড্র করার পর ঢাকায় ব্যর্থ হয়েছে মুমিনুল হক।

টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে দলীয় ২৪ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে চরম ব্যাটিং বিপর্যয়। তবে শুরুর বিপদ কাটিয়ে অভিজ্ঞ মুশফিকুর রহিম ও লিটন হাফসেঞ্চুরি পূর্ণ করে দলকে এগিয়ে নিচ্ছেন। এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ৫০ ওভারে ৫ উইকেটে বাংলাদেশের সংগ্রহ ১৫০ রান। মুশফিক ৬২ ও লিটন ৬৯ রান নিয়ে ক্রিজে আছেন।

মিরপুর শেরে-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাটিংয়ে সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ। ব্যাটিংয়ের ধসের শুরুটা হয় তরুণ ওপেনার মাহমুদুল হাসান জয়কে দিয়ে। ইনিংসের দ্বিতীয় বলেই ফেরেন তিনি। লঙ্কান একাদশে সুযোগ পাওয়া কাসুন রাজিথার বলে সরাসরি বোল্ড। জয় ফেরেন শূন্য রানে।

দ্বিতীয় ওভারেই সাজঘরে আরেক ওপেনার তামিম ইকবাল। তিনিও খুলতে পারেননি রানের খাতা। আসিথা ফার্নান্দোর লেগ-মিডলে থাকা বলটিতে ফ্লিক করার চেষ্টা করেন বাঁহাতি ব্যাটসম্যান। বল ব্যাটের কানায় লেগে ক্যাচ আউট হন তিনি। অবশ্য চট্টগ্রামে তামিম-জয়ের ওপেনিং জুটি থেকেই এসেছিল ১৬২ রান।

দুই ব্যাটসম্যান শূন্য রানে আউট হওয়ায় লজ্জার রেকর্ডের সঙ্গী হয় বাংলাদেশ। ২০১৪ সালের পর আবার টেস্টে দুই ওপেনার ফেরেন কোনো রান না করেই। বাংলাদেশ দল এমন ঘটনার সাক্ষী হলো তৃতীয়বার। তিনবারই নাম আছে তামিমের। সবশেষ জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ০ রানে আউট হয়েছিলেন বাংলাদেশের দুই ওপেনার। তার আগের ঘটনাটি ছিল ২০১০ সালে।

দুই ওপেনারের ব্যর্থতায় যেখানে দায়িত্ব নিয়ে খেলার উচিৎ ছিল অধিনায়ক মুমিনুলের। তিনি আবারও ব্যর্থ। ফিরলেন ৯ রানে। ফার্নান্দোর অফ স্টাম্পে পিচ করে অ্যাঙ্গেলে বেরিয়ে যাওয়া বলটি অনায়াসেই ছেড়ে দিতে পারতেন মুমিনুল। শেষ মুহূর্তে ব্যাট পেতে দিলেন। ব্যাটের নিচের অংশে আলতো চুমু দিয়ে বল জমা পড়ে উইকেটরক্ষকের গ্লাভসে।

এ নিয়ে টানা ৬ ইনিংসে দুই অঙ্ক ছোঁয়ার আগেই ফিরলেন মুমিনুল। ৫.১ ওভারে বাংলাদেশের দলীয় রান তখন ১৬। আক্ষেপে বাড়িয়েছেন তিনে নামা নাজমুল হোসেন শান্ত। রাজিথার রাউন্ড দ্য উইকেট থেকে ছোড়া বলে বিভ্রান্ত হন শান্ত। পা বাড়িয়ে খেলতে গিয়ে বলের লাইন হারান এই বাঁহাতি, ব্যাট-প্যাডের মাঝের ফাঁক গলিয়ে বল গিয়ে আঘাত করে স্টাম্পে। শান্ত ফেরেন ব্যক্তিগত ৮ রানে।

পরের বলেই সাজঘরে ফেরেন সাকিব আল হাসান। ইনিংসের সপ্তম ওভারে রাজিথার অফ স্টাম্পের বাইরে পিচ করে ভেতরে ঢোকা বল সাকিবের পায়ে গিয়ে আঘাত করে। রিভিউ নিয়েও ফেরেন সাকিব। দিনের শুরুর ৬.৫ ওভারে দলীয় ৪১ মিনিটেই না যেতেই ৫ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে বাংলাদেশ দল।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন