Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, ০২ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী

কাজের নয় সংকট দক্ষ ওয়েব ডেভেলপারের

প্রকাশের সময় : ১৯ নভেম্বর, ২০১৬, ৯:৪৫ পিএম | আপডেট : ১২:২৮ এএম, ২০ নভেম্বর, ২০১৬

রাসেল আহমেদ, দেশের অন্যতম একজন সেরা ওয়েব ডেভেলপার। ২০০৮ সাল থেকে তিনি এই পেশার সাথে সম্পৃক্ত আছেন। ২০১৩ সালে তার কাজের স্বীকৃতি হিসেবে তিনি “বেসিস ডিস্ট্রিক অ্যাওয়ার্ড” লাভ করেন। বর্তমানে তিনি যুক্তরাষ্ট্র্রের একটি সুনামধন্য কোম্পানিতে লিড ডেভেলপার হিসেবে কাজ করছেন। নিজে সাফল্যের সাথে কাজ করার পাশাপাশি নতুনদের প্রশিক্ষণ দেয়ার জন্য ২০১১ সালে গড়ে তুলেছেন আইটি প্রতিষ্ঠান আর আর ফাউন্ডেশন। বর্তমানে তিনি প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। ওয়েব ডেভেলপমেন্টের নানা দিক নিয়ে দৈনিক ইনকিলাবের সাথে কথা হয় এই ওয়েবসাইট নির্মাতার। তার সাথে কথোপকথনে ছিলেন নুরুল ইসলাম।
 
ইনকিলাব : ওয়েব ডেভেলপমেন্ট কী এবং এর কাজ কী?
রাসেল আহমেদ : দৈনন্দিন কাজের জন্য আমরা কম্পিউটারে অনেক ধরনেরই সফটওয়ার ব্যবহার করি। ইন্টারনেট ব্যবহারের ভিত্তিতে সফটওয়ারগুলোকে দুই ভাগে ভাগ করা যায়, একটি হলো অনলাইন সফটওয়ার, আরেকটি অফলাইন সফটওয়ার। যেসব সফটওয়ার অনলাইনে কাজ করে তাদেরই মূলত ওয়েবভিত্তিক সফটওয়ার বলে। ওয়েবভিত্তিক সফটওয়ার আবার অনেক ধরনের হয়। মূলত যেসব সফটওয়ার বা অ্যাপ্লিকেশন এইচটিটিপি (যঃঃঢ়) প্রটোকলে চলে তাদের ডেভেলপমেন্ট কাজকেই বলে ওয়েব ডেভেলপমেন্ট। ওয়েব ডেভেলপমেন্টের প্রধান কাজ হচ্ছে কোডিংয়ের মাধ্যমে ওয়েবসাইটের জন্য বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশন এবং পূর্ণাঙ্গ ওয়েবসাইট তৈরি করা। অনলাইনে বিভিন্ন ধরনের এবং বিভিন্ন ডিজাইনের ওয়েবসাইট আছে। এসব ওয়েবসাইটের কাজও একেক রকম। কোন ওয়েবসাইট দিয়ে খবর পড়ি, কোন ওয়েবসাইটে বন্ধুদের সাথে যোগাযোগ করি আবার কোন ওয়েবসাইটে পরীক্ষার ফলাফল দেখি। এরকম আমাদের নানান দৈনন্দিন কাজের সাথে জড়িয়ে আছে হাজারো ওয়েবসাইট। এক সমীক্ষায় দেখা গেছে, বর্তমানে প্রতি মিনিটে ৭০টি ওয়েব ঠিকানা নিবন্ধিত হয় এবং প্রতি দশ মিনিটে প্রায় ৫২০০+ ওয়েবসাইট তৈরি হয়।

ইনকিলাব : আপনি কখন এবং কীভাবে এই কাজের সাথে যুক্ত হলেন?
রাসেল আহমেদ : অনলাইন থেকেই ওয়েবসাইট ডেভেলপমেন্ট শেখার প্রতি আগ্রহ তৈরি হয়। গ্রামে থাকার কারণে সেখানে এটা শেখার ভালো কোন প্রতিষ্ঠান বা ব্যবস্থা ছিল না। ইন্টারনেটের সমস্যা তো ছিলই। সব মিলিয়ে আমার ওয়েব ডেভেলপমেন্ট শেখার পথটা মসৃণ ছিল না। প্রথমে টেক্সট টিউটোরিয়াল পরে বিভিন্ন বিদেশি এক্সপার্টদের ভিডিও টিউটোরিয়াল, ফোরাম দেখে দেখে আস্তে আস্তে কাজ শিখতে শুরু করলাম। এভাবে শেখার পরিধি বাড়ার সাথে সাথে শেখার উৎসগুলোও খুঁজে পেলাম। সেগুলো থেকে ধীরে ধীরে নিজেকে তৈরি করে নিলাম। প্রথমে ছোট্ট ছোট্ট কাজ দিয়ে শুরু। এখনও প্রতিনিয়ত কাজ করছি আর নতুন নতুন অনেক কিছু শিখছি। কারণ ওয়েব ডেভেলপমেন্ট সম্পর্কে শেখার কোনো শেষ নেই।

ইনকিলাব : এই সেক্টরে কাজ করার জন্য কী ধরনের প্রাথমিক জ্ঞান প্রয়োজন?
রাসেল আহমেদ : ওয়েব ডেভেলপমেন্টের জন্য প্রাথমিক জ্ঞান বলতে কম্পিউটার আর ইন্টারনেট ব্যবহার জানলেই চলবে। তবে যারা এই সেক্টরে আসতে চাচ্ছেন তাদের জন্য আমি প্রথমেই বলবো আপনারা কাজের ক্ষেত্র বাছাই করে নেওয়ার আগে নিজেরাই একটু রিসার্চ করে নিন। অনলাইন থেকেই আপনার শেখাটা শুরু হতে পারে। ওয়েব ডেভেলপমেন্ট শিখতে হলে আপনাকে প্রথমে এইচটিএমএল, সিএসএস, জাভাস্ক্রিপ্ট, পিএইচপি শিখতে হবে। এরপর আস্তে আস্তে এই বিষয়গুলোতে এক্সপার্ট হতে হবে। ইউটিউবে প্রচুর টিউটোরিয়াল পাওয়া যায়। একটু এডভান্স হওয়ার পর কোড একাডেমি বা টুটপ্লাস থেকে শিখতে পারেন। আমাদের দেশেই শেখার জন্য অনেক প্রতিষ্ঠান আছে যারা খুব ভালো শেখায়। ভর্তি হওয়ার আগে অন্যদের কাছ থেকে জেনে নিবেন তারা কেমন শেখায়। যে কোন প্রতিষ্ঠানে যাওয়ার আগে অনলাইন থেকে বেসিকটা শিখে গেলে ভালো হবে। ইউটিউবে প্রচুর টিউটোরিয়াল পাবেন। বাংলা এবং ইংরেজিতে। প্রথমে বাংলাতে দেখুন। কিন্তু অ্যাডভান্স জানতে হলে ইংরেজির বিকল্প নেই। তাই ইংরেজিগুলোও দেখুন। আর টিউটোরিয়ালগুলো অত্যন্ত মনযোগ দিয়ে দেখতে হবে। একটা সমীক্ষায় দেখা গেছে যে, সংগ্রহ করা টিউটোরিয়াল অনেকেই মনযোগ দিয়ে দেখেন না। সবসময় মাথার মধ্যে ঘুরতে থাকে, এটা তো আমার কাছে আছেই পরে দেখলেই তো হবে। এই পরে কিন্তু আর কখনও হয় না।

ইনকিলাব : নির্ভরযোগ্যতা ও স্থায়িত্বের বিচারে ক্যারিয়ার হিসেবে ওয়েব ডেভেলপমেন্ট কেমন?
রাসেল আহমেদ : অতীতে শুধুমাত্র বড় বড় কোম্পানি বা প্রতিষ্ঠানেরই ওয়েবসাইট থাকতো। কিন্তু এখন দিন বদলে গেছে। বর্তমান যুগ হলো অনলাইনের যুগ। এখন কোম্পানির ইনফরমেশন থেকে শুরু করে কোম্পানির সার্ভিস, বিভিন্ন পণ্যগুলোও অনলাইনে বিক্রয় করছে। ব্যক্তি জীবনে পাসপোর্ট বানানো, স্কুল-কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি, পরীক্ষার ফলাফল দেখা থেকে শুরু করে ব্যক্তি পর্যায়েও ওয়েবসাইট হচ্ছে। এমনকি শিশুদের জন্যও রয়েছে বিশেষায়িত ওয়েবসাইট। জীবনের প্রত্যেকটা কাজেই আমরা ওয়েবসাইটের সাহায্য নিচ্ছি। প্রতিদিনই নতুন নতুন চাহিদার ওয়েবসাইট তৈরি হচ্ছে। এই চাহিদা ভবিষ্যতে আরও বাড়বে। তাই নির্ভাবনায় বলা যায় যে, ক্যারিয়ার হিসেবে ওয়েব ডেভেলপমেন্টের ব্যাপক চাহিদা আছে এবং ভবিষ্যতেও থাকবে।

ইনকিলাব : এখানে খ-কালীন কাজের সুযোগ কতটুকু?
রাসেল আহমেদ : চাকরি বা পড়াশোনার পাশাপাশি কাজ শেখা শুরু করা যেতে পারে। তবে খ-কালীন কাজ শেখার সময় আরেকটা বিষয় খেয়াল রাখা উচিত সেটা হলো কাজ শেখার সময় আপনার বর্তমান কাজের যেন কোন ক্ষতি না হয়। আপনাকে ব্যালেন্স করে চলতে হবে। অনেক সময় দেখা যায় চাকরি বা পড়াশোনার পাশাপাশি কাজ শিখতে এসে পড়াশোনা বা চাকরিতে অসুবিধা হয়, আবার কাজ শেখাও হয়ে উঠে না। আপনাকে শেখার জন্য যে প্রতিদিন অনেক সময় দিতে হবে তা না। প্রতিদিন আপনি দুই ঘণ্টা করে সময় দিন। কিন্তু নিয়মিত সময় দিতে হবে। একদিন ৮ ঘণ্টা আর পরের ৪/৫ দিন বাদ রাখলেন তা হবে না। এভাবে ১ বছরের কাজ যদি ২ বছরেও শেখেন তাতে সমস্যা নেই। এভাবে নিয়মিত কাজ শেখার পর আস্তে আস্তে দেখবেন কাজ পেয়ে যাচ্ছেন। কাজের পারিশ্রমিক আসতে শুরু করলেই আপনি সিন্ধান্ত নিতে পারবেন যে, বর্তমান চাকরিটা রাখবেন কিনা। ফ্রিল্যান্সিং মার্কেট প্লেসগুলোতে ক্রিয়েটিভ ওয়েবসাইট ডেভেলমেন্ট করার জন্য প্রতিটি সাইটে ২০০ ডলার থেকে ২০০০ ডলার পর্যন্ত পাওয়া যায়। দেশীয় ওয়েব সাইটগুলো তৈরির জন্য ১০,০০০ টাকা থেকে শুরু করে সর্বোচ্চ ৩,০০,০০০ টাকা দেয়া হয়। সুতরাং এই পেশাটাকে যেকেউ খ-কালীন হিসেবেও নিতে পারেন।

ইনকিলাব : প্রতি মাসে এখান থেকে কত টাকা আয় করা যাবে?
রাসেল আহমেদ : আসলে এই সেক্টরের আয়টা নির্ভর করবে আপনার কাজের দক্ষতার উপর। দক্ষতা বেশি থাকলে আয় বেশি হবে, দক্ষতা কম থাকলে আয় কম হবে। দেশীয় বিভিন্ন আইটি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করতে পারবেন। অথবা নিজেই কোন ফ্রিল্যান্সিং সাইটে কাজ করতে পারবেন। তবে বর্তমানে মার্কেটপ্লেসে প্রচুর প্রতিযোগিতা হয়। প্রথমেই মার্কেটপ্লেস থেকে কাজ পেতে হয়তো সময় লাগবে। তাই এই সময়ে আপনি যে কোন কোম্পানিতে ইন্টার্ন করতে পারেন। এতে হাত খরচ হিসেবে টাকা পাবেন অপরদিকে আপনার দক্ষতার ঝুলিও ভারী হবে। বর্তমানে দেশীয় কোম্পানিতে একজন ইন্টার্ন ডেভেলপার ন্যূনতম ১০ হাজার টাকা বেতন পান। কিছুদিন চাকরি করার পর ন্যূনতম বেতন হয় ২০-৩০ হাজার টাকা। আস্তে আস্তে বিভিন্ন প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ যেমন জাভাস্ক্রিপ্ট, পিএইচপি, রুবি ইত্যাদিতে দক্ষতা আনতে পারলে দেশীয় কোম্পানিতেই ১ থেকে দেড় লাখ টাকা বেতন পাওয়া যায়। আর বাইরের মার্কেটপ্লেসে আয়টা তুলনামূলক বেশি হয়। তবে মার্কেটপ্লেসের আয় কখনো একই থাকে না। মনে রাখবেন মার্কেটপ্লেস শুধুমাত্র দক্ষদের জন্যই। একজন দক্ষ ওয়েব ডেভেলপার মার্কেটপ্লেস থেকেই ১ থেকে ৫ এমনকি কখনো কখনো ১০ লাখ টাকা পর্যন্ত প্রতি মাসে আয় করতে পারবেন। দক্ষ ওয়েব ডেভলপার হলে তার জন্য কাজের কোন অভাব থাকে না। কারণ দেশে-বিদেশে ওয়েব ডেভলপিংয়ের কাজ আছে প্রচুর কিন্তু সংকট শুধু দক্ষ ডেভলপারের।

ইনকিলাব : কীভাবে কাজ করলে নবীনরা ওয়েব ডেভেলপমেন্টে সফল হতে পারবে?
রাসেল আহমেদ : নবীনদেরকে যথেষ্ট ধৈর্যের পরীক্ষা দিতে হবে। অধৈর্য হলে ওয়েব ডেভলপমেন্ট শেখা যাবে না। এ বিষয়ক প্রচুর বই পড়ার অভ্যাস করতে হবে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে সময় নষ্ট করা যাবে না। তবে সোস্যাল সাইটে যাওয়া যাবে, সেটা হবে স্কিল ডেভেলপমেন্টের জন্য। ফেইসবুকে প্রায় শ’ খানেক স্কিল ডেভেলপমেন্টের জন্য গ্রুপ আছে। যেখানে প্রশ্ন করলে আপনি সাথে সাথেই সেই প্রশ্নের উত্তর পাবেন। আপনি সেখানে আপনার প্র্যাকটিসের কাজ শেয়ার করে অভিজ্ঞজনের মতামত নিতে পারেন। সর্বোপরি কমিউনিটির সাহায্য নিলে একদিকে আপনার যেমন আত্মবিশ্বাস বাড়বে অপরদিকে আপনার বিভিন্ন সমস্যার দ্রুত উত্তর পাবেন। কাজ শিখতে হবে স্টেপ বাই স্টেপ। কোনটা না পারলে স্কিপ করে আরেকটা ধরা যাবে না। প্রতিদিন একটা নির্দিষ্ট সময় রাখতে হবে স্কিল বিল্ডিংয়ের জন্য। কারণ এগুলো চর্চা না থাকলে ভুলে যাওয়ার সম্ভাবনা আছে। তাই প্রতিনিয়ত একনিষ্ঠতার সাথে কাজ করে যেতে পারলেই সফলতা অর্জন করা সম্ভব হবে।

ইনকিলাব : যারা এই সেক্টরে কাজ করতে আগ্রহী তাদেরকে আপনি কী পরামর্শ দেবেন?
রাসেল আহমেদ : যারা ওয়েব ডেভেলপমেন্ট শিখতে আগ্রহী তাদেরকে বেশ কিছু সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে। সেগুলো হলো- স্রোতে গা ভাসাবেন না। আপনি জানার চেষ্টা করুন আপনার কোনটা ভালো লাগে বা কোনটাতে কাজ করতে আপনি স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন। কোনটা করলে তাড়াতাড়ি ইনকাম করা যায়, কোনটা করলে বেশি ইনকাম হবে এটা ভুলে যান। মার্কেটপ্লেসে এমনও লোক দেখা গেছে যে, এক্সেলের কাজ করে ৭০ ডলার পার আওয়ার ইনকাম করে। কিন্তু দেখা যায় যে, একজন সফটওয়ার ইঞ্জিনিয়ারও এমন ইনকাম করতে পারেন না। দক্ষতা থাকলে যে কোন সেক্টরেই ভালো করা সম্ভব। সেটা হোক ফ্রিল্যান্সিংয়ে বা মাটি কাটায়। পত্রিকায়, ফেইসবুকে বা বিভিন্ন মাধ্যম থেকে জানতে পারলেন ওয়েব ডিজাইন কাজের প্রচুর চাহিদা। এখান থেকে প্রচুর টাকা আয় করা যায়। তাই সাত-পাঁচ না ভেবেই শেখা শুরু করে দিলেন। পরে দেখলেন এটা আপনার কাজ না। তাই ট্রেন্ড থেকে দূরে থাকুন। কারণ ওয়েব ডেভেলপমেন্ট একটি সৃষ্টিশীল কাজ। আপনি মানসিকভাবে সৃষ্টিশীল না হলে আপনার পক্ষে এটা শিখেও সফল হওয়া সম্ভব হবে না। তবে চেষ্টা করলে মানুষের অসাধ্য কিছুই নেই- এটাও সত্য। তাই নবীনদের বলবো, সিদ্ধান্ত নেয়ার আগে একটু ভেবে নিবেন।



 

Show all comments
  • Golam Rabbani ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ১২:৩৭ এএম says : 0
    রাসেল ভাই, আজ আপনার ওসীলায় আল্লাহর রহমতে আমি সফলতার দেখা পাচ্ছি ।
    Total Reply(3) Reply
    • রাসেল আহমেদ ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ৯:৪৬ পিএম says : 1
      জেনে খুব ভালো লাগলো ভাই। এগিয়ে যান সামনের দিকে। :)
    • ২২ নভেম্বর, ২০১৬, ৯:৪৪ পিএম says : 2
      Vai address chai apner Officer
    • Mohammad Lokman Hosen ২৫ নভেম্বর, ২০১৬, ১:০২ পিএম says : 0
      Valo Lagcea Tai Name_ta Add korlam, Thanks
  • Hridoy ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ৬:৪৭ এএম says : 0
    [স্রোতে গা ভাসাবেন না] রাসেল ভাই।।আপ্নার পোস্ট টা পলাম। কিন্তু আমার কথা হচ্ছে যে, আমি কিবাবে জানবো যে এই বিসয় টা বালো পারি? :3 যানেনে ভাই।। আমি ২ বছর যাবত ওয়েব ডেভেলপমেন্টের উপর বিবিন্ন্য রকমের পোস্ট আর টিওটিরিয়াল পড়ে বা দেখেয় যাচ্ছি। কিন্তু কাজের কাজ কিছুই হচ্ছে না, সবসময় আমার একটা না একটা যামেলা লেগেয় থাকে, আর তার জন্য এখন অ আমি ছন্য ছাড়া। আমি যানি না আমার স্বপ্ন কিবাবে পূরন করবো। আমি ইন্টার এক্সাম দিয়ে এখন আমি ফ্রি কিন্তু এই সময়টাতে আমি কিছুই করতে পারছি না। কারুন আমি মাজ পথে গিয়ে থেমে যাচ্ছি ,আমাকে বেকাউপ দেওয়ার মত কোন লোক নাই।। তা আমি কি করবো আর আমার কি করলে আমার সপ্নকে বাস্তবায়ন করতে পাড়বো এই বিষয় যদি কিছু সাজেশন বা ছোট ভাই হিসাবে কিছু করার জন্য হেল্প পেতাম তাহলে খুশি হতাম।।
    Total Reply(1) Reply
    • রাসেল আহমেদ ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ৯:৪০ পিএম says : 0
      প্রথমে আপনি এই রিলেটেড সব কাজই ঘাটাঘাটি করার চেষ্টা করুন। জানার চেষ্টা করুন। তারপর যেই কাজটা আপনার ভালো লাগবে সেটা নিয়ে এগিয়ে যান। আপনি বলেছেন যে গত দুই বছর যাবত আপনি ওয়েব ডেভেলপমেন্টের বিভিন্ন টিউটোরিয়াল দেখছেন, এখন আপনার উচিত হবে যে এতদিন ধরে যে কাজগুলো অনুশীলন করেছেন সেটা অন‍্যদের সাথে শেয়ার করে মতামত নেওয়া। ফেসবুকে আমাদের একটি গ্রুপ আছে যেখানে আপনি আপনার কাজ শেয়ার করে এক্সপার্টের মতামত নিতে পারেন। যে কোন কাজ করার আগে সেই কাজকে ভালোবাসতে হবে, পছন্দ করতে হবে। কোন কিছু করে নিজেকে এপ্রিশিয়েট করতে হবে। কারন কোন কাজ ভালো না লাগলে দীর্ঘক্ষণ সেই কাজে মনযোগ বসানো কঠিন। আপনার শুভকামনা করি।
  • সাইদুর রহমান ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ১:১৪ এএম says : 0
    একদম খাঁটি কথা বলেছেন।
    Total Reply(0) Reply
  • জাহিদ ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ১:১৬ এএম says : 0
    ওয়েব ডেভেলপমেন্টের উপর রাসেল ভাইয়ের সাক্ষৎকার নেয়া দৈনিক ইনকিলাবকে অসংখ্য মোবারকবাদ।
    Total Reply(0) Reply
  • simul ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ৭:৫৯ এএম says : 0
    Total Reply(0) Reply
  • ebraheem khalil ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ৩:২৪ পিএম says : 0
    this topic is well which incourage begginer web debelopment.
    Total Reply(0) Reply
  • Alex ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ২:০৬ পিএম says : 1
    Rasel Ahmed is really great developer. I heard about him a lot. He created a lot of websites for various company. I wish him a great success for his life.
    Total Reply(1) Reply
  • NABAB KHAN ২০ নভেম্বর, ২০১৬, ৩:৫১ পিএম says : 1
    O GOOD VAGINA IAM PRRAUD OF U
    Total Reply(0) Reply
  • Rokibul Hasan ২১ নভেম্বর, ২০১৬, ১০:৪৫ এএম says : 0
    Amar Chokhe Dekha Rasel Vai Best Hero. VAi Ami Kushtia/Daulatpur Er Chele. 2008 Sall Theke Onnek Kicho Korar Try Kore ashci. But Shofolotar Mokh Dekhte Paini. Last Time Goto September 2016 Theke Apnar Life Onoshoron Korci. Jiboner Sesh Time Apnar Dare Daraye Achi. Cheshta Shodho 1tai. Amk Shofol Hotey Hobe. Just Dua Korben Vai.
    Total Reply(1) Reply
    • রাসেল আহমেদ ২১ নভেম্বর, ২০১৬, ১:৩৩ পিএম says : 0
      সফলতার জন‍্য চেষ্টা করুন এবং সে অনুযায়ী প্রচুর পরিশ্রম করুন। সফলতার দেখা একদিন পাবেনই। আপনার সফলতা কামনা করি।
  • Md.Sifatul Islam ২২ নভেম্বর, ২০১৬, ৭:৪৩ এএম says : 0
    আল্লাহ আপনাকে সফলতা দান করুন,,,, আর আমি আপনার দোয়া প্রার্থী,,,,,
    Total Reply(0) Reply
  • Alton ২২ নভেম্বর, ২০১৬, ১২:৪৯ পিএম says : 0
    Thanks for your Suggestion. Now I am tring to learn Web devolop. Please pray for me.
    Total Reply(0) Reply
  • Md. Mominul islam ২২ নভেম্বর, ২০১৬, ৩:৫৩ পিএম says : 0
    I have been trying for two years from your tutorial. Web site creation. html and css. and graphics design. I want a job. Thank a lot for Rasel vai.
    Total Reply(0) Reply
  • shuvo islam ২২ নভেম্বর, ২০১৬, ৯:১৮ পিএম says : 0
    অনেক ভালো লাগলো কথা গুলো শুনে । একজন নবীন ওয়েব ডেভেলপার হয়ে আরো শেখার আগ্রহ পেলাম ।।এগিয়ে যান ভাইয়া ।আপনাকে যেন অনুসরন করতে পারি সবসময়।
    Total Reply(0) Reply
  • Kaykubad ২২ নভেম্বর, ২০১৬, ১০:৩০ পিএম says : 0
    আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ ।
    Total Reply(0) Reply
  • Rubel ২২ নভেম্বর, ২০১৬, ১১:২০ পিএম says : 0
    আপনার কথা গুলো অনেক সুন্দর হয়েছে । অনেকের জীবনকে বদলে দিতে পারে ... ধন্যবাদ...।
    Total Reply(0) Reply
  • Md.Shohel Rana ২৩ নভেম্বর, ২০১৬, ২:০৭ এএম says : 0
    Bhi ami new web developer and designer bhi amr jono kono suggestions ace ke ...ke bhaba shamne agono jay bhi plz tell me ...
    Total Reply(0) Reply
  • biplab ২৩ নভেম্বর, ২০১৬, ৭:১৭ এএম says : 0
    amar basa via rajsahahi ta ame ai kaj ta sekta chi ke kora plz akto bolban
    Total Reply(0) Reply
  • simul ২৩ নভেম্বর, ২০১৬, ৮:৪১ এএম says : 0
    Nice post. thanks bro
    Total Reply(0) Reply
  • Md. Habibur Rahman ২৩ নভেম্বর, ২০১৬, ১০:৩৪ এএম says : 0
    Rasel Vaiya, I am learning Web Developer. Already HTML, CSS3, Bootstrap and Wordpress Installation and Customization is done. For good skill, another thing Java Script, J-Query and PHP in progress. In future planning, Ruby on rails and Laravel. Please pray for me.
    Total Reply(1) Reply
    • Md. Habibur rahaman ২৩ নভেম্বর, ২০১৬, ৫:০৯ পিএম says : 0
      Vaiya, I am also learning Web Developer
  • মোঃ হেলাল উদ্দিন ২৩ নভেম্বর, ২০১৬, ১১:৩৮ এএম says : 0
    ভাল
    Total Reply(0) Reply
  • Robel Mahmud (Sadi) ২৩ নভেম্বর, ২০১৬, ১০:৩৪ পিএম says : 0
    অসখ্য ধন্যবাদ রাসেল ভাই...আপনার এই মূল্যবান কথা গুলোর জন্য!
    Total Reply(0) Reply
  • Azim Hosen ২৪ নভেম্বর, ২০১৬, ১:২০ এএম says : 0
    You wrote a very good,, but for a long time to work keathaya learn how giddy.
    Total Reply(0) Reply
  • Abu Nime Bappy ২৭ নভেম্বর, ২০১৬, ১০:০৬ এএম says : 0
    Rasel Bai. Ami to ei kajer proti khub agrohi.ami afnar rr foundation the html er tutoriul download kore dakshi and practice krsi.but amar ekhane net conection khub slow. boadbank conection o nai. khub problem e asi. ekhon ami ki krbo.please help me.
    Total Reply(0) Reply
  • ২৬ নভেম্বর, ২০১৬, ৬:৩২ পিএম says : 0
    রাসেল ভাই কে অনেক ধন্যবাদ। তার বড় হওয়ার কথা শেয়ার করার জন্য। কেননা,এখান থেকে আমরা অনেক অনুপেরণা পেয়েছি।
    Total Reply(0) Reply
  • Apu RAy ২৬ নভেম্বর, ২০১৬, ১০:৫৩ এএম says : 0
    অনেক ভালো লাগলো রাসেল আহমেদ ভাই, আমি একজন নতুন অপারেটর আমি অনলাইনে কাজ করতে আগ্রহী কিন্তু সঠিক পরামর্শদাতা খুঁজে পাচ্ছি না, অাপনি যদি আমাকে একটু সহযোগিতা করেন তাহলে আমার খুব ভালো হয়, কি কাজ দিয়ে শুরু করতে পারি আমি, যদি একটু বলতেন তাহলে আমার খুব ভালো হতো প্রকৃতপক্ষে আমি সিদ্ধান্ত নিয়ে উঠতে পারছি না।
    Total Reply(0) Reply
  • Zahed ২৫ নভেম্বর, ২০১৬, ৮:৫৫ পিএম says : 0
    I am very happy to know this.....thanks rasel vai
    Total Reply(0) Reply
  • ইকবালহোসেন ২৬ নভেম্বর, ২০১৬, ১১:০৬ এএম says : 0
    প্রথমেই আপনাকে সালাম না দিয়ে পারলাম না । কেননা আপনি একজন সালামের পদপার্থী। আসসালামুআলাইকুম। ভাই আপনার উপড়ে আল্লাহর অশেষ মেহেরনাণ আছে বিদায় আপনি বতমার্নে ভালো অবস্থানে আছেন আশা করি থাকবেন। ভাই মোটামোটি ওয়েভ ডিজাইন কিছুটা জানি। ভিবিন্ন টেমপ্লেট তৈরি কিছুটা জানি। এথন আমাকে আর কি করতে হরে সামনে যাওয়ার জন্য। ভাই আমি কম্পিউটার সাভযেট নিয়ে পড়াশোনা করি । ডিপলোমা ইন কম্পিউটার ইন্জিনিয়ারিং লাষ্ট সেমিষ্টার আশা আছে আপনার ইন্সটিটিউতে ইনটারনি করার। দয়া করে আপনার প্রতিষ্টানের একটা form ইমেলে ‍দিলে ভালো হয়। কোনটা কত টাকা দিয়ে শিহ্খা যায়। একটা লিষ্ট দিলে ভালো হয়।
    Total Reply(0) Reply
  • Dwin islam ২৬ নভেম্বর, ২০১৬, ১২:১৮ এএম says : 0
    ভাইয়া অাপনার পোষ্টা পড়ে অনেক ভাল লাগল।শিখার অাগ্রহ টাকে যেন অারও তিন গুন বাড়িয়ে দিল।।
    Total Reply(0) Reply
  • Muhammad Ali Jinnah ২৬ নভেম্বর, ২০১৬, ১১:৪০ এএম says : 0
    রাসেল ভাই , আমি আপনার কাছে শিখতে চাই ।
    Total Reply(0) Reply
  • সাইফুল ২৫ নভেম্বর, ২০১৬, ২:২৩ পিএম says : 0
    আপনার ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর উপর ভিডিও টিউটোরিয়াল গুলো দেখে অনেক কিছু শিখেছি
    Total Reply(0) Reply
  • muhammadullah ২৪ নভেম্বর, ২০১৬, ১১:৩৯ পিএম says : 1
    রাসেল ভাই আপনার পোস্টটি পরে আমার খুব ভাল লেগেছে,তবে ফেসবুকে টিউটেরিয়াল দেখার পদ্দতি কি বুল্লে ভাল হত।
    Total Reply(0) Reply
  • muhammadullah ২৪ নভেম্বর, ২০১৬, ১১:৪৩ পিএম says : 0
    Rasel vay apnake Thanks.
    Total Reply(0) Reply
  • দুখু মিয়া ২৪ নভেম্বর, ২০১৬, ৫:১৩ পিএম says : 0
    ভাই আমি আপনার পোষ্ট পড়েছি ভাল লাগলো আপনি যদি এই কাজ করার জন্য আমার কিছু ঠিকানা দিতেন আমি খুশি হতাম
    Total Reply(0) Reply
  • মো; আমিনুল ইসলাম ২৪ নভেম্বর, ২০১৬, ১:৪৯ পিএম says : 0
    অনেক ভালো লাগলো কথা গুলো শুনে । একজন নবীন ওয়েব ডেভেলপার হয়ে আরো শেখার আগ্রহ পেলাম ।।এগিয়ে যান ভাইয়া ।আপনাকে যেন অনুসরন করতে পারি সবসময়
    Total Reply(0) Reply
  • Hafijur Rahman ২৪ নভেম্বর, ২০১৬, ১২:৩৬ পিএম says : 0
    ধন্যবাদ ভাইয়া। সামনের দিকে অগ্রসর হওয়ার রাস্তা গুলো আজ আরো অনেক বেশী প্রশস্ত হল। আপনার সম্পর্কে অনেক অনেক শুনেছি।আপনার প্রচেষ্টা এবং সাফল্য অনেক বেশী ভাবায় এবং উৎসাহ দেয়। আমার ফ্রিলান্সিং যাত্রায় আপনাকে আদর্শ হিসাবে নিয়েছি। ছোট বেলা থেকে সৃষ্টিশীল কিছু করার ইচ্ছ।পারিবারিক সমেস্যার কারনে বেশী দূর যেতে পারি নি তবে হাল ছাড়িনি চেষ্টা করছি নতুন কিছু করতে। আমি অনার্স তৃতিয় বর্ষের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের ছাত্র। এবং নিজের খরচ মিটাই রাজমিস্ত্রী এর যোগাল হিসাবে কাজ করে। আমি সবেমাত্র ওয়েব ডেভলপমেন্ট কোর্স শেষ করেছি।ব্যাচ এর মধ্যে আমার স্কোর সবার উপরে। আপানার সাথে একই টেবিলে বসে চা খাওয়ার খুব ইচ্ছা(দেখার ইচ্ছা আপনাকে)।আপনার সাথে কথা বলার ইচ্ছা অনক দিনের।কোন উপায় পাইনি।আজ পেয়েছি তাই মন খুলেই সব বললাম। ভুল হলে ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখবেন।আমি আপনার ছোট, ভুল তো ছোটরাই করে। ফেসবুকে চেষ্টা করেছি কন্টাক্ট করতে সম্ভব হয়নি।.
    Total Reply(0) Reply
  • মো. মেহেদী হাসান অপু ২৪ নভেম্বর, ২০১৬, ১১:০৮ এএম says : 1
    রাসেল ভাইয়া, হঠাৎই আমার ওয়েব ডিজাইন ও ডেভেলপিং শেখার আগ্রহ প্রবলভাবে বেড়ে গিয়েছে। আমার আত্মবিশ্বাস যে আমাকে পারতে হবেই। আমি কোনভাবেই ব্যর্থ হতে চাইনা, আমার জন্য দোয়া করবেন ভাইয়া। সব ধরণের প্রস্তুতি নিচ্ছি ওয়েব ডিজাইন ও ডেভেলপিং শেখার জন্য। শুধু এখন অনার্স ২য় বর্ষের ফাইনাল শেষ হওয়ার পালা।  ধন্যবাদ ভাইয়া... 
    Total Reply(0) Reply
  • Nazmul Hasan ২৭ নভেম্বর, ২০১৬, ৯:৪৫ পিএম says : 0
    দক্ষতা থাকলে যে কোন সেক্টরেই ভালো করা সম্ভব। সেটা হোক ফ্রিল্যান্সিংয়ে বা মাটি কাটায়। -
    Total Reply(0) Reply
  • হাবিবুর রহমান ২৭ নভেম্বর, ২০১৬, ১০:১১ পিএম says : 0
    রাসেল ভাই, আমিও শুধু মাত্র অনলাইন থেকে বিভিন্ন টিউটোরিয়াল দেখে অনেক কিছু শিখেছি, এবং একটা ওয়েবসাইট তৈরী করেছি। কিন্তু কিভাবে এইটা কাজে লাগিয়ে আয় করা যায় এই ব্যাপারে পরামর্শ দিলে উপকৃত হতাম এবং এই কাজে আরো বেশি পারদর্শী হওয়ার সুযোগ পেতাম।
    Total Reply(0) Reply
  • MD. BADIUZZAMAN ২৮ নভেম্বর, ২০১৬, ১১:৪৩ এএম says : 0
    আমি এক্সেলে অভিজ্ঞ কোন সাইট এ কাজ করতে পারি জানালে উপকৃত হবো
    Total Reply(0) Reply
  • মো: রেজাউল করিম ২৮ নভেম্বর, ২০১৬, ১২:০৯ পিএম says : 0
    রাসেল ভাই, আমি চার মাস ধরে ওয়েব ডিজাইন শিখেছি । আর আমার কাছে ওয়েব ডিজাইন খুবই ভাল লাগে কিন্তু উৎসাহ দেওয়ার মত কোন লোক নাই । আমিও শুধু মাত্র অনলাইন থেকে বিভিন্ন টিউটোরিয়াল দেখে কিছু শিখেছি, এবং একটা ওয়েবসাইট তৈরী করেছি। কিন্তু কিভাবে এইটা কাজে লাগিয়ে আয় করা যায় এই ব্যাপারে পরামর্শ দিলে ভাল হত এবং এই কাজে আরো বেশি পারদর্শী হওয়ার সুযোগ পেতাম।
    Total Reply(0) Reply
  • Badhon ২৮ নভেম্বর, ২০১৬, ৬:৪৫ পিএম says : 0
    vai apnar shathee contact korbo kivabe??
    Total Reply(0) Reply
  • Abu Shehab ২৯ নভেম্বর, ২০১৬, ৫:৩৭ পিএম says : 0
    Thanks for such kind post. I'm Trying to build up my carrier on Web Development profession. How & where can I start? Plz send me your address and cell no. I'm waiting to hair something from you. Thanks
    Total Reply(0) Reply
  • akter ২ জানুয়ারি, ২০১৭, ১১:১২ পিএম says : 0
    ভালো লাগলো আমি শিখতে ইচ্ছুক
    Total Reply(0) Reply
  • আব্দুল ওয়াদুদ ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮, ১১:৫৪ পিএম says : 0
    রাসেল ভাইয়ের নাম্বার টা দিলে অনেক উপকার হত
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।