Inqilab Logo

বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১৫ আষাঢ় ১৪২৯, ২৮ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

শ্রীলঙ্কা সফর নিয়ে দোটানায় অস্ট্রেলিয়া

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৬ মে, ২০২২, ১২:০৮ এএম

স্বাধীনতার পর নিজেদের ইতিহাসে সবচেয়ে নাজুক অর্থনৈতিক অবস্থার মধ্য দিয়ে যাচ্ছে শ্রীলঙ্কা। এমন একটি সময়ে দেশটিতে সফর করা নৈতিকভাবে ঠিক হবে কি-না, তা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেটাররা। তবে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ) প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা টড গ্রিনবার্গ আশাবাদী, পরিকল্পনা অনুযায়ী এগিয়ে যাবে সফরটি।
আগামী জুন-জুলাইয়ে সাত সপ্তাহের জন্য শ্রীলঙ্কা সফর করার কথা অস্ট্রেলিয়ার। সফরে দুটি টেস্ট, পাঁচটি ওয়ানডেতে ও তিনটি টি-টোয়েন্টি খেলবে তারা। তিন সংস্করণের জন্য এরই মধ্যে আলাদা স্কোয়াডও ঘোষণা করেছে পাঁচবারের ওয়ানডে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা।
তবে শ্রীলঙ্কার সা¤প্রতিক পরিস্থিতি শঙ্কায় ফেলেছে সফরটিকে। ১৯৪৮ সালে স্বাধীন হওয়ার পর থেকে ২ কোটি ২০ লাখ জনসংখ্যার দ্বীপদেশটি সবচেয়ে খারাপ অর্থনৈতিক সংকটে হাবুডুবু খাচ্ছে। বিদেশি মুদ্রার ঘাটতির কারণে অতিপ্রয়োজনীয় জ্বালানি ও ওষুধসহ দেশটির আমদানি মারাত্মকভাবে হ্রাস পেয়েছে।
কোভিড-১৯ মহামারীতে দেশটির লাভজনক পর্যটন শিল্প মুখ থুবড়ে পড়ার পাশাপাশি প্রবাসীদের পাঠানো অতি গুরুত্বপ‚র্ণ রেমিটেন্সেও ভাটা পড়ে, একই সময় কর হ্রাসের সরকারি সিদ্ধান্তে রাজস্ব আদায় কমে যায় আর বিশ্ব বাজারে তেলের দাম বাড়ায় বিদেশি মুদ্রার রিজার্ভ দ্রæত ফুরিয়ে গিয়ে গভীর সংকটে পড়ে যায় দেশটি।
গতকাল অস্ট্রেলিয়ান অ্যাসোসিয়েটেড প্রেসকে (এএপি) গ্রিনবার্গ বলেন, শ্রীলঙ্কার চলমান পরিস্থিতির প্রেক্ষাপটে সবদিক বিবেচনা করে দেশটিতে সফরের চ‚ড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন ক্রিকেটাররা, ‘খেলোয়াড়রা শ্রীলঙ্কার পরিস্থিতি সম্পর্কে খুব সচেতন। ন্যায়সঙ্গতভাবে বলা যায়, শ্রীলঙ্কার মানুষ খাদ্যের দাম বৃদ্ধি, বিদ্যুতের ঘাটতি এবং জ্বালানির সঙ্কটে যে পরিস্থিতির মধ্যে রয়েছে, এমন কঠিন সময় দেশটিতে সফর করা নিয়ে খেলোয়াড়দের মধ্যে অস্বস্তি রয়েছে। তবে দিনশেষে আমাদের খেলোয়াড়রা ক্রিকেট খেলা চালিয়ে যেতে চায়। সফরের আয়োজন এবং পরিকল্পনা সম্পর্কে তারা সিএ-এর কাছ থেকে দিকনির্দেশনা ও পরামর্শ নেবে।’
তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজটি আগামী ৭ জুন শুরু হওয়ার কথা রাজধানী কলম্বোয়, কৃত্রিম আলোয়। পরের দুটি ম্যাচ ৮ ও ১১ জুন। কিন্তু যে দেশের মানুষ বর্তমানে দৈনিক ১৫ ঘণ্টা বিদ্যুৎ পাচ্ছে না, সেখানে এভাবে ম্যাচ আয়োজন কতটা যৌক্তিক বা সম্ভব, সেটা নিয়ে উঠেছে প্রশ্ন। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার খবর মতে, ম্যাচগুলো তাই দিনে আয়োজনের বিষয়টি ভেবে দেখা হচ্ছে। আগামী ১৪ ও ১৬ জুন প্রথম দুটি ওয়ানডে হবে ক্যান্ডিতে। এই সিরিজের পরের তিনটি ম্যাচ হবে ১৯, ২১ ও ২৪ জুন, কলম্বোয়। এরপর প্রথম টেস্ট শুরু হবে ২৯ জুন এবং পরেরটি ৮ জুলাই। দুই টেস্টের আগে অস্ট্রেলিয়া ‘এ’ দলও শ্রীলঙ্কা সফর করবে, তারা খেলবে কলম্বো ও হাম্বানটোটায়। ‘এ’ দল খেলবে দুটি করে চার দিনের ও ৫০ ওভারের ম্যাচ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন