Inqilab Logo

বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১৫ আষাঢ় ১৪২৯, ২৮ যিলক্বদ ১৪৪৩ হিজরী

বাংলাদেশে আসছে অস্ট্রেলিয়া-ভারত

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৬ মে, ২০২২, ১২:০৮ এএম

আইসিসি উইমেন’স চ্যাম্পিয়নশিপের পরবর্তী চক্রে ওয়ানডের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ঘরের মাঠে খেলবে বাংলাদেশ। দেশের মাটিতে তাদের বাকি তিন প্রতিপক্ষ ভারত, পাকিস্তান ও আয়ারল্যান্ড। আর দেশের বাইরে নিউজিল্যান্ড, দক্ষিণ আফ্রিকা, শ্রীলঙ্কা ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে খেলবে বাংলাদেশ। ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্তা সংস্থা আইসিসি গতকাল সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ২০২২-২৫ চক্রের ফরম্যাট ও সিরিজের বিস্তারিত প্রকাশ করেছে।
আসছে উইমেন’স চ্যাম্পিয়নশিপে বাংলাদেশের জায়গা পাওয়া নিশ্চিত হয়েছিল আগেই। তাদের সঙ্গে প্রথমবারের মতো সুযোগ পেয়েছে আয়ারল্যান্ডও। ২০২৫ ওয়ানডে বিশ্বকাপে সরাসরি জায়গা করে নেওয়ার প্রতিযোগিতাটিতে এই দুই দলের সঙ্গী অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড, ভারত, নিউজিল্যান্ড, পাকিস্তান, ওয়েস্ট ইন্ডিজ, দক্ষিণ আফ্রিকা ও শ্রীলঙ্কা।
উইমেন’স চ্যাম্পিয়নশিপের তৃতীয় আসর এটি। প্রথম দুই আসরে দল ছিল ৮টি করে। ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিংয়ে ৯ ও ১০ নম্বরে থাকায় বাংলাদেশ ও আয়ারল্যান্ড সুযোগ পাওয়ায় এবারের আসর হবে ১০ দলের। প্রতিটি দল আগামী তিন বছরে আটটি তিন ম্যাচের সিরিজ (চারটি হোম ও চারটি অ্যাওয়ে) খেলবে। চক্রের শেষে শীর্ষ পাঁচটি দল ও স্বাগতিকরা ২০২৫ বিশ্বকাপে সরাসরি জায়গা পাবে। বাকি দলগুলিকে বাছাইপর্বের মধ্য দিয়ে যেতে হবে। বিশ্বকাপের বাকি দুটি দল আসবে ছয় দলের বাছাইপর্ব থেকে। উইমেন’স চ্যাম্পিয়নশিপের বাকি চার দল ও ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিং অনুযায়ী দুটি দল মিলে হবে বাছাইপর্ব। উইমেন’স চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম দুই আসরে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল অস্ট্রেলিয়া। আগামী ১ জুন করাচিতে পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কার ম্যাচ দিয়ে শুরু হবে নতুন চক্র।
গতবার প্রথমবারের মতো ওয়ানডে বিশ্বকাপে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছিল বাংলাদেশ। নিউজিল্যান্ডে হওয়া আসরে সাত ম্যাচের একটি জিতে আট দলের মধ্যে সাতে থেকে আসর শেষ করেছিল নিগার সুলতানার দল। এবার উইমেন’স চ্যাম্পিয়নশিপে জায়গা পাওয়ায় স্বাভাবিকভাবে অনেক ম্যাচ খেলার সুযোগ পাবে বাংলাদেশ। সুযোগ থাকবে সরাসরি বিশ্বকাপে জায়গা করে নেওয়ারও।
বিশ্বকাপে দলগুলির যোগ্যতা অর্জনের নতুন নিয়মের অংশ হিসেবে পাঁচ সহযোগী দেশকে ওয়ানডে স্ট্যাটাস দেওয়ার কথাও এ দিন সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে আইসিসি। দলগুলো হলো নেদারল্যান্ডস, পাপুয়া নিউ গিনি, স্কটল্যান্ড, থাইল্যান্ড ও যুক্তরাষ্ট্র। এই দলগুলির ওয়ানডে পারফরম্যান্স তাদের এই সংস্করণের র‌্যাঙ্কিং নির্ধারণ করবে এবং ২০২৫ বিশ্বকাপে যোগ্যতা অর্জনের জন্য কাজে লাগবে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বাংলাদেশ


আরও
আরও পড়ুন