Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯, ১০ মুহাররম ১৪৪৪ হিজরী

আদালতে সরাসরি দুর্নীতি মামলা

দুদকের এই বিধান কেন বাতিল করা হবে না, জানতে চান হাইকোর্ট

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৩ জুন, ২০২২, ১২:০০ এএম

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) তফসিলভুক্ত অপরাধের বিষয়ে কোনো ব্যক্তি সরাসরি আদালতে অভিযোগ করতে পারবেন না -মর্মে সংস্থাটির যে বিধি প্রণয়ন করেছে সেটি কেন বাতিল করা হবে না -এই মর্মে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট। রিটের শুনানি শেষে গতকাল রোববার বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার এবং বিচারপতি কাজী মো. ইজারুল হক আকন্দের ডিভিশন বেঞ্চ এ রুল জারি করেন। রিটের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট সুবীর নন্দী দাস। দুদকের পক্ষে অ্যাডভোকেট খুরশীদ আলম খান শুনানিতে অংশ নেন। শুনানিকালে সরকারপক্ষে ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল একে এম আমিনউদ্দিন মানিক উপস্থিত ছিলেন।

রিটে উল্লেখ করা হয়, দুদক নিজেই মামলা করার ক্ষমতা সংক্রান্ত বিষয়ে দুর্নীতি দমন কমিশন বিধিমালা-২০০৭ সংশোধন করে ২০১৯ সালের ২০ জুন এ বিষয়ে গেজেট জারি করে। এটি চ্যালেঞ্জ করে সেবছর ১৩ নভেম্বর অ্যাডভোকেট সুবীর নন্দী দাস এবং ব্যারিস্টার নওশীন নাওয়াল রিট আবেদন করেন। ওই রিটের শুনানি গ্রহণ করে ওইবছর ১৭ ডিসেম্বর থানার পরিবর্তে দুদক কার্যালয়ে এজাহার দায়ের করা কেন অসাংবিধানিক ঘোষণা করা হবে না Ñএই মর্মে রুল জারি করেন হাইকোর্ট। ওই রিটে আবেদনকারীরা এই বিধিমালার ১৩ (৩) বিধির বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে একটি সম্পূরক আবেদন করেন।

ওই বিধিতে বলা হয়, আইনের তফসিলভুক্ত কোনো অপরাধ সংঘটনের বিষয়ে কোনো অভিযোগ কোনো ব্যক্তির মাধ্যমে সরাসরি কোনো আদালতে দায়ের করা যাবে না। তবে শর্ত থাকে যে, যদি কোনো সিনিয়র স্পেশাল জজ আদালত এই মর্মে সন্তুষ্ট হন যে, আইনের তফসিলভুক্ত কোনো অপরাধ সংঘটিত হয়েছে বলে বিশ্বাস করার মতো যথেষ্ট কারণ রয়েছে এবং ওই অপরাধ সংঘটন বিষয়ে এর আগে অভিযোগকারীর দাখিল করা অভিযোগের ভিত্তিতে কমিশন তদন্ত কার্যক্রমে অগ্রসর না হওয়ার সিদ্ধান্ত যুক্তিযুক্ত ছিল না, সেক্ষেত্রে ওই আদালত অভিযোগটি গ্রহণ করে তদন্তের জন্য কমিশনকে নির্দেশসহ অভিযোগটি এবং অভিযোগের সমর্থনে দাখিল করা কাগজপত্র যদি থাকে কমিশনে বা ক্ষেত্রমত কমিশনের সংশ্লিষ্ট জেলা কার্যালয়ে পাঠাবেন।

অ্যাডভোকেট সুবীর নন্দী দাস শুনানিতে বলেন, নাগরিকরা কোথায় মামলা করবেন সেটা আইনে উল্লেখ রয়েছে। কিন্তু বিধি করে দুদকের তফসিলভুক্ত অপরাধে আদালতে অভিযোগ করতে পারবেন না কোনো ব্যক্তি -এই বিধান দুর্নীতি দমন কমিশন করতে পারে না। আর অভিযোগ করলেও আদালত কী করবে সেটিও বিধিতে উল্লেখ রয়েছে। এটাও দুদক পারে না। কারণ আদালত আইনমত কার্যক্রম পরিচালনা করবেন। উচ্চ আদালত এ বিষয়ে শুনানি নিয়ে রুল জারি করেছেন। এখন পৃথক দুই রুলের শুনানি হবে একত্রে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: দুদক


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ