Inqilab Logo

শনিবার, ২০ আগস্ট ২০২২, ০৫ ভাদ্র ১৪২৯, ২১ মুহাররম ১৪৪৪
শিরোনাম

অধিকৃত কাশ্মীরে জি-২০ শীর্ষ সম্মেলন করার ভারতীয় পরিকল্পনার নিন্দা করেছে চীন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২ জুলাই, ২০২২, ৫:১৪ পিএম | আপডেট : ৫:২৮ পিএম, ২ জুলাই, ২০২২

ভারত কতৃক অবৈধভাবে অধিকৃত জম্মু ও কাশ্মীরে জি-২০ শীর্ষ সম্মেলন আয়োজনের ভারতীয় প্রস্তাবের সমালোচনা করেছে চীন এবং গ্রুপের অংশগ্রহণকারীদের প্রাসঙ্গিক ইস্যুতে রাজনীতি না করে অর্থনৈতিক পুনরুদ্ধারের দিকে মনোনিবেশ করার আহ্বান জানিয়েছে দেশটি। -ডেইলি টাইমস, এপিপি

চীনা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ঝাও লিজিয়ান বেইজিংয়ে তার নিয়মিত ব্রিফিংয়ের সময় বলেছেন, কাশ্মীর নিয়ে চীনের অবস্থান ধারাবাহিক এবং দ্ব্যর্থহীন। এটি ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে একটি উত্তরাধিকারী সমস্যা এবং এটি প্রাসঙ্গিক জাতিসংঘ রেজুলেশন এবং দ্বিপাক্ষিক চুক্তি অনুযায়ী সঠিকভাবে সমাধান করা উচিত। সংশ্লিষ্ট পক্ষের উচিত একতরফা পদক্ষেপ নিয়ে পরিস্থিতি জটিল না করা।

এদিকে পাকিস্তান তার অবস্থান পুনর্ব্যক্ত করে বলেছে, অঞ্চলটি নয়াদিল্লির জোরপূর্বক এবং অবৈধ দখলের অধীনে রয়েছে। ইতিমধ্যে পাকিস্তান সেখানে জি-২০ শীর্ষ সম্মেলন আয়োজনের ভারতের প্রচেষ্টা প্রত্যাখ্যান করেছে। পাকিস্তান চায় চীন, তুরস্ক ও সউদি আরব জি-২০ বৈঠক বয়কট করুক। জি-২০ শীর্ষ সম্মেলন বয়কট করার প্রয়াসে পাকিস্তান একটি কূটনৈতিক প্রচেষ্টা শুরু করেছে এবং বর্তমানে তার ঘনিষ্ঠ মিত্র চীন, তুরস্ক এবং সউদি আরবের সাথে অঅলোচনা করছে। ভারতের পদক্ষেপ প্রত্যাখ্যান করার পরে পাকিস্তান তার উদ্বেগ প্রকাশ করতে চীন, তুরস্ক এবং সউদি আরবের উপর বিশেষ জোর দিয়ে সমস্ত জি-২০ দেশগুলোর সাথে যোগাযোগ করবে। ভারতীয় পরিকল্পনার বিরোধিতা করার জন্য পাকিস্তান মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য এবং অন্যান্য জি-২০ সদস্যদের সাথেও যোগাযোগ করবে।

ভারতীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, ভারত ১ ডিসেম্বর, ২০২২-এ জি-২০-এর সভাপতিত্ব গ্রহণ করবে এবং ২০২৩ সালে জি-২০ নেতাদের উদ্বোধনী সম্মেলন আয়োজন করবে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ২০১৪ সাল থেকে জি-২০ সম্মেলনে ভারতের প্রতিনিধিত্বের দায়িত্বে রয়েছেন। আর্জেন্টিনা, অস্ট্রেলিয়া, ব্রাজিল, কানাডা, চীন, চীন, জার্মানি, ফ্রান্স, ইতালি, জাপান, মেক্সিকো, রাশিয়া, সউদি আরব, দক্ষিণ আফ্রিকা, দক্ষিণ কোরিয়া, তুরস্ক, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং যুক্তরাজ্য জি-২০ দেশগুলোর মধ্যে রয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: চীন


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ