Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯, ১০ মুহাররম ১৪৪৪ হিজরী
শিরোনাম

ভারতকে গুঁড়িয়ে ইংলিশদের ইতিহাস

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৫ জুলাই, ২০২২, ৮:২৪ পিএম

এজবাস্টন টেস্টে জিততে স্বাগতিক ইংল্যান্ডকে ৩৭৮ রানের বিশাল লক্ষ্য ছিল। সেই লক্ষ্য তাড়া করে জেতার রেকর্ড আগে ছিল না ইংলিশদের। কিন্তু ভারতের বিপক্ষে সেই অসম্ভব কাজটাই অনায়াসে করে ফেললো তারা রুট আর বেয়ারস্টোর কল্যাণে।


ভারতের ছুড়ে দেওয়া ৩৭৮ রানের বিশাল লক্ষ্য তাড়া করে জয় ইংল্যান্ডের টেস্ট ইতিহাসে নতুন রেকর্ড। ২০১৯ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৩৫৯ রান তাড়া করে জিতেছিল তারা। এতদিন এটাই ছিল রেকর্ড। আর আজ সেই রেকর্ড তো ভাঙলোই, সেই সঙ্গে টেস্ট ইতিহাসের নবম সর্বোচ্চ তাড়া করে জেতার কীর্তিও হলো তাদের।

চতুর্থ দিন শেষে ইংলিশদের সংগ্রহ ছিল ৩ উইকেটে ২৫৯ রান। পঞ্চম ও শেষ দিনে আরও ১১৯ রান দরকার ছিল তাদের। আগের দিন অবিচ্ছিন্ন থাকা রুট ও বেয়ারস্টো বাকি পথটা মসৃণ করে দিলেন স্বাগতিকদের জন্য। ফলে ৭ উইকেটের বড় জয় পেল তারা।


জয় নিশ্চিতের সময় বেয়ারস্টো ১১৪ রানে অপরাজিত থাকেন। এই টেস্টে এটা তার টানা দ্বিতীয় সেঞ্চুরি। রুট অপরাজিত থাকেন ১৪২ রান। দুজনের জুটিতে আসে ২৬৯ রান। এই জয়ে করোনার কারণে গত বছর স্থগিত হয়ে যাওয়া সিরিজ ২-২ ব্যবধানে ড্র হলো।

তবে সিরিজের ফলাফলের চেয়েও বড় হয়ে দেখা দিল ইংলিশদের রান তাড়া জয়ে পাওয়ার মানসিকতা। কিছুদিন আগেই এই দলটি নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ৩-০ ব্যবধানে সিরিজ জিতেছিল। সেবারও রান তাড়া করেই জয় পেয়েছিল তারা।

নতুন কোচ ব্র্যান্ডন ম্যাককালাম ও অধিনায়ক বেন স্টোকসের জুটিতে যে ভয়ডরহীন টেস্ট ক্রিকেট যুগের সূচনা করলো ইংল্যান্ড। অন্য দলগুলোর জন যা গুরুত্বপূর্ণ বার্তা হয়েই এলো সন্দেহ নেই।

কারণ এই টেস্টেই ভারতের প্রথম ইনিংস যেখানে ৪১৬ রানে থেমেছিল, ইংল্যান্ড সেখানে নিজেদের প্রথম ইনিংসে গুঁটিয়ে গিয়েছিল মাত্র ২৮৪ রানে। এরপর ভারতকে আবার ২৪৫ রানে থামিয়ে নিজেরা ঐতিহাসিক জয় পেল ইংলিশরা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ