Inqilab Logo

রোববার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১০ আশ্বিন ১৪২৯, ২৮ সফর ১৪৪৪

বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী মিসাইল পেল রুশ যুদ্ধবিমান

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৯ আগস্ট, ২০২২, ২:০৭ পিএম

রাশিয়ান অত্যাধুনিক যুদ্ধবিমান সু-৩৫ এ যুক্ত হয়েছে নতুন আর-৩৭এম এয়ার-টু-এয়ার মিসাইল। এ ক্ষেপণাস্ত্রগুলো ৩০০ মিটার দূরত্ব থেকে শত্রুর যুদ্ধবিমান ধ্বংস করতে সক্ষম। প্রকৃতপক্ষে, শত্রু বিমানের রাডারগুলো একে সনাক্ত করার আগেইে এটি শত্রু বিমানকে ধ্বংস করতে সক্ষম।

বার্তা সংস্থা সিনার মতে, এই ধরনের ক্ষমতা সম্পন্ন মিসাইল যুক্ত হওয়ায় সু-৩৫ যোদ্ধারা সত্যিকারের মারাত্মক অস্ত্রে পরিণত হয়। সিনার সাংবাদিকরা নোট করেছেন যে, সু-৩৫ যুদ্ধ বিমানগুলোর আবির্ভাবের সাথে, আমেরিকান প্রযুক্তি এখন পশ্চাদপদ বলে মনে হচ্ছে এবং সম্ভবত আর-৩৭এম মিসাইল যুক্ত হওয়ায় রাশিয়ান মহাকাশ বাহিনীর যুদ্ধ বিমানগুলি দীর্ঘ সময়ের জন্য আকাশের শ্রেষ্ঠত্ব দখল করবে।

‘বর্তমানে, যে ক্ষেপণাস্ত্রটি মার্কিন সেনাবাহিনীতে যুক্ত হয়েছে সেটি হচ্ছে এইম-১২০সি। এটি হচ্ছে তাদের সবচেয়ে শক্তিশালী এয়ার-টু-এয়ার মিসাইল যার পাল্লা হচ্ছে মাত্র একশ কিলোমিটার, তাই এই ক্ষেত্রে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র রাশিয়ার চেয়ে পিছিয়ে রয়েছে।

রাশিয়ার আর-৩৭এম ক্ষেপণাস্ত্রগুলোর প্রতি মিশর থেকে বেশ আগ্রহ দেখিয়েছে। বিশেষত, ডিফেন্স আরাবিয়া প্রকাশনা অনুসারে, মিশর এর জন্য অনেক অনুশোচনা করবে কারণ তারা কখনো রাশিয়ার কাছ থেকে যুদ্ধবিমান কেনেনি, যা কিনা তাদেরকে ইসরাইলি বিমান বাহিনীর উপরেও ওই অঞ্চলে শ্রেষ্ঠত্ব অর্জনের সুযোগ দিত।

ইউক্রেনের সামরিক অভিযানে কমিশন করা সু-৩৫ ফাইটার জেটগুলো এখন নতুন এ ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে সংস্কার করা হয়েছে। অত্যাধুনিক এ ক্ষেপণাস্ত্রের সাহায্যে, সু-৩৫ ফাইটার জেট শত্রুর যুদ্ধবিমানকে রাডারে ধরা পড়ার আগেই ধ্বংস করতে সক্ষম। রাশিয়ান সাংবাদিকরা বলেছেন যে, সু-৩৫ যুদ্ধবিমানের উপস্থিতি সহ, মার্কিন প্রযুক্তি এখন পিছনে রয়েছে এবং এটি সু-৩৫ যুদ্ধবিমানগুলিকে সহজেই মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের যুদ্ধবিমান ধ্বংস করতে দেয়। ফলে আর-৩৭এম মিসাইল সজ্জিত রাশিয়ান সু-৫৭ বা সু-৩৫ ফাইটার জেটের সাথে ন্যাটো এবং পশ্চিমা ফাইটার জেটরা সরাসরি যুদ্ধ করার আগে হাজার বার চিন্তা করবে। সূত্র: ডিফেন্সভিউ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: রাশিয়া


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ