Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ১৯ আশ্বিন ১৪২৯, ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী

৪০ সেকেন্ডেই মোটরসাইকেল চুরি করতো তারা

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশের সময় : ১০ আগস্ট, ২০২২, ৩:৪৭ পিএম

যেসব মোটরসাইকেলে অতিরিক্ত লক দেয়া থাকে না এবং দুর্বল লক সেসব মোটরসাইকেলকে টার্গেট করে চুরি করতো একটি চক্র। চক্রটি তাদের কাছে থাকা মাস্টার চাবি দিয়ে ৪০ থেকে ৫০ সেকেন্ডেই মুহূর্তের মধ্যে মোটরসাইকেল চুরি করে পালিয়ে যেত। পরবর্তীতে ৩০ থেকে ৫০ হাজার টাকায় চোরাই এসব মোটরসাইকেল বিক্রি করত তারা।

রাজধানীর লালবাগ কেল্লার সামনে থেকে জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থার (এনএসআই) এক কর্মকর্তার ব্যক্তিগত মোটরসাইকেল চুরি হয়। এই ঘটনায় ওই কর্মকর্তার দায়ের করা মামলার তদন্ত শেষে মোটরসাইকেল চুরি চক্রের ৭ সদস্যকে গ্রেপ্তার করে লালবাগ থানা।


গ্রেপ্তারদের জিজ্ঞাসাবাদে বুধবার সংবাদ সম্মেলন করে এসব তথ্য জানান লালবাগ বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিসি) মো. জাফর হোসেন।

তিনি বলেন,

গ্রেপ্তাররা হলেন- চক্রের মূলহোতা সোহেল ও তার সহযোগীরা- সুনিল, হুমায়ুন, হৃদয়, আওয়াল ও স্বাধীন। এ সময় তাদের কাছ থেকে বিভিন্ন এলাকা থেকে চুরি করা ১০টি মোটরসাইকেল ও মোটরসাইকেল চুরিতে ব্যবহৃত বিপুল পরিমাণ নকল চাবি উদ্ধার করা হয়।


সংবাদ সম্মেলনে ডিসি জাফর জানান, যেসব মোটরসাইকেলে অতিরিক্ত লক দেয়া থাকে না এবং দুর্বল লক সেসব মোটরসাইকেলকে টার্গেট করত চক্রটি। এরপর চক্রটি তাদের কাছে থাকা মাস্টার চাবি দিয়ে ৪০ থেকে ৫০ সেকেন্ডেই মুহূর্তের মধ্যে মোটরসাইকেল চুরি করে পালিয়ে যেত তারা। পরবর্তীতে ৩০ থেকে ৫০ হাজার টাকায় চোরাই এসব মোটরসাইকেল বিক্রি করত তারা।


পুলিশের এই কর্মকর্তা বলেন, গত মাসের ২৪ তারিখে লালবাগ কেল্লার সামন থেকে এক এনএসআই কর্মকর্তার মোটরসসাইকেল চুরি হয়। লালবাগ থানায় চুরির অভিযোগ দায়ের করলে শুরু তদন্ত কার্যক্রম। প্রথমে মুন্সিগঞ্জের লৌহজং এলাকা থেকে চোর চক্রের দুইজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এরপর তাদের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে শরীয়তপুর ও মুন্সিগঞ্জ থেকে চক্রের বাকিদের গ্রেপ্তার হয়।

উপ-পুলিশ কমিশনার জাফর হোসেন বলেন, লালবাগ জোনের সহকারী পুলিশ কমিশনার (এসি) কে এন রায় নিয়তির নেতৃত্বে মোটরসাইকেল চুরির ঘটনায় ৭ জন চোর চক্রের অন্যতম হোতা সোহেল গত ৫ থেকে ৬ বছর ধরে মোটরসাইকেল চুরি করে আসছিলো। চোর চক্রের সদস্যরা নকল চাবি ব্যবহার করে মুহূর্তেই মোটরসাইকেল চুরি করে পালিয়ে যেত।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গ্রেফতার


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ