Inqilab Logo

মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ১৯ আশ্বিন ১৪২৯, ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী

সিকান্দার রাজার স্টাম্প উড়িয়ে দিলেন এবাদত

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১০ আগস্ট, ২০২২, ৬:০৩ পিএম | আপডেট : ৬:০৬ পিএম, ১০ আগস্ট, ২০২২

বোলিং ব্যর্থতায় প্রথম দুই ম্যাচে হারলেও সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ ম্যাচে জ্বলে উঠেছে বাংলাদেশের বোলাররা। হাসান-মিরাজের পর জিম্বাবুয়ে শিবিরে জোড়া আঘাত হেনেছে এবাদত হোসেন।

এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ৬ ওভারে ৪ উইকেটে জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ১৯ রান।

জিম্বাবুয়েকে ২৫৭ রানের লক্ষ্যে দিয়ে বোলিংয়ে দারুণ শুরু বাংলাদেশের। লজ্জার হার এড়াতে ইনিংসের প্রথম দুই ওভারে জিম্বাবুয়ের দুই ব্যাটারকে ফিরিয়ে দেন হাসান মাহমুদ ও মেহেদী হাসান মিরাজ। এরপর নিজের দ্বিতীয় ও ইনিংসের ষষ্ঠ ওভারের তৃতীয় ওয়েসলি মাধেভেরকে (১) ও চতুর্থ বলে টানা দুই ম্যাচে সেঞ্চুরি করা সিকান্দার রাজাকে শুন্য রানে বোল্ডে করেন এবাদত।

বুধবার জিম্বাবুয়ের হারারে স্পোর্টস ক্লাব মাঠে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ২৫৬ রান তোলে তামিমরা। দলের পক্ষে আফিফ হোসেন সর্বচ্চ ৮৫ রান করে অপরাজিত থাকেন। তার ৮১ বলের ইনিংসে ৬টি বাউন্ডারি দুটি ছক্কা রয়েছে।

ওপেনার এনামুল হক বিজয় ৭৬ করে বিদায় নেন। তার ৭১ বলের ইনিংসে ৬টি বাউন্ডারি ও ৪টি ছক্কা রয়েছে। ৬৯ বলে ৩৯ রান করেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। বাকিদের মধ্যে তামিম ১৯,শান্ত ০,মুশফিক ০,মিরাজ ১৪ ও তাইজুল ৫ রান করেন।


সফরের আগে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টানা ১৯ ম্যাচেই হেরেছে জিম্বাবুয়ে। টানা দুই ম্যাচ জিতে ৯ বছর পর জিম্বাবুয়ের সাথে সিরিজ হারে তামিমরা। অন্যদিকে শেষ ম্যাচে হারলে ২১ বছর পর জিম্বাবুয়ের সাথে হোয়াইটওয়াশ হবে বাংলাদেশ। সর্বশেষ ২০০১ সালের পর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে এমন লজ্জা ছিল।

জিম্বাবুয়ে একাদশ: সিকান্দার রাজা (অধিনায়ক), ইনোসেন্ট কাইয়া, ওয়েসলি মাধেভেরে, লুক জঙ্গুয়ে, ভিক্টর নিয়াউচি, টাডিওনাশে মারুমানি, টাকুডজোয়ানাশে কাইটানো, টনি মুনিয়োঙ্গা, ব্র‍্যাড ইভান্স, ক্লাইভ মাডান্ডে, রিচার্ড এনগারাভা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন