Inqilab Logo

বুধবার ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০৫ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী
শিরোনাম

জেলা পরিষদ নির্বাচনের প্রচারে গিয়ে গণধর্ষণের শিকার

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১:৪২ পিএম

রাজশাহী জেলা পরিষদ নির্বাচনের এক প্রার্থী প্রচারণায় গিয়ে গণধর্ষণের শিকার হয়েছেন। গত বুধবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ওই প্রার্থী বাদী হয়ে মামলা করলে পুলিশ অভিযান চালিয়ে শুক্রবার রাতে পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করে।

জানা যায়, গত ১৪ সেপ্টেম্বর রাতে জেলার বাগমারা উপজেলার মাহমিনগ্রাম এলাকায় অস্ত্রের মুখে তুলে নিয়ে গিয়ে পাঁচজন পালাক্রমে ওই প্রার্থীকে ধর্ষণ করে। পরের দিন রাতে ৫ জনের নামে থানায় মামলা করেন তিনি। শুক্রবার (১৬ সেপ্টেম্বর) রাতে আলাদা অভিযানে তাদের গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

গ্রেপ্তাররা হলেন- মাহাবুর রহমান (২৮), আকবর হোসেন (৩৫), সোহেল রানা (২৪), দুলাল হোসেন (২৫) ও ফজলুর রহমান (৪৮)। শনিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) বিকেলে তাদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়।

ভুক্তভোগী ওই নারী প্রার্থী বলেন, এ ঘটনায় আমি চরমভাবে ভেঙে পড়েছি। কিন্তু দমে যাইনি। হাসপাতাল থেকে ফিরে ফের ভোটের প্রচারণায় নেমেছি।

মামলার এজাহারে তিনি উল্লেখ করেন, ওই দিন প্রচারণা শেষ হতে রাত হয়ে যায়। বাড়ি ফেরার পথে পাঁচ ব্যক্তি আমার গতিরোধ করেন। তারা আমাকে তুলে নিয়ে অস্ত্রের মুখে দলবদ্ধ ধর্ষণ করেন। এতে আমি অসুস্থ হয়ে পড়ি। চিকিৎসা নিয়ে ফের ভোটের প্রচারণায় নামি।

বাগমারার হাটগাঙ্গোপাড়া পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা পরিদর্শক আফজাল হোসেন বলেন, গ্রেপ্তাররা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ঘটনার সঙ্গে নিজেদের সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করেন। পরে তাদের বিরুদ্ধে আইনত ব্যবস্থা নেওয়া হয়।

নির্বাচনের সহকারী রিটানিং কর্মকর্তা শহীদুল ইসলাম বলেন, একজন নারী প্রার্থী প্রচারে গিয়ে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে শুনিছি। ঘটনার সঙ্গে জড়িত পাঁচজন গ্রেপ্তারও হয়েছে। তিনি আইনি সহযোগিতা পাচ্ছেন কি না সে বিষয়ে খোঁজ খবর নেওয়া হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ