Inqilab Logo

সোমবার ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ১০ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী
শিরোনাম

অবসর গুঞ্জনের মাঝেই রোনালদো জানালেন খেলে যেতে চান আরো কিছু সময়

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ৫:৫১ পিএম

বর্তমান প্রজন্মের অন্যতম শীর্ষ ফুটবল তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো।বড় বড় সব ফুটবল লীগে এক সময় ছিলেন টপ পারফর্মারদের একজন।প্রায় এক যুগ ধরে এসব লিগে গোলের পর গোল করেছেন নিজের খেয়াল খুশিমতো।একাধিকবার জিতেছেন বর্ষসেরা ফুটবলারের তকমা।তবে সাম্প্রতিক সময়ে এই পর্তুগিজ সেনসেশন অনেকটা নিজের ছায়া হয়ে আছেন।

মূলত গত গ্রীষ্মে অনেক আড়ম্বরতায় ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যোগ দেওয়ার পর থেকেই ভাগ্য বিপর্যয় ঘটতে থাকে রোনালদোর।মাঠে এই পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড মোটামুটি উজ্জল থাকলেও ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের তার দলের পারফর্ম্যান্স ছিল একেবারে সাদামাঠা।ম্যাচের পর ম্যাচ গড়পড়তা ফুটবল খেলে ইউনাইটেড প্রিমিয়ার লিগ শেষ করেছিল শীর্ষ চারের বাইরে থেকে। ফলে বহুদিন পরে ইংলিশ জায়ান্ট ক্লাবটি এবারের চ্যাম্পিয়নস লিগ আসরের টিকেট পায়নি।

ক্লাব কর্তৃপক্ষের সাথে ঠিকটাক বনিবনা না হওয়া এবং ইউরোপ শ্রেষ্ঠত্বের আসর হিসেবে পরিচিত চ্যাম্পিয়নস লিগ খেলার জন্য এবছর দল পাল্টে ফেলতে চেয়েছিলেন রোনালদো।বেতন কমিয়ে ইউরোপের বড়দল গুলোকে প্রস্তাব দিয়েছিলেন বারবার, প্রত্যাখ্যাত হয়েছেন প্রতিবারই।ক্যারিয়ারের শেষদিকে চলে আসা ৩৭ বছর পেরোনো এই ফরোয়ার্ডকে কেনার ঝুঁকি নিতে চায়নি কোন দলই।

এ বছর প্রিমিয়ার লিগে সময়টা রোনালদোর কাটছে আরো বাজেভাবে।মুখে স্বীকার না করলেও ইউনাইটেডর নতুন কোচ এরিক টেন হেগ তার ভবিষ্যৎ পরিকল্পনায় রোনালদোকে সেভাবে রাখেননি।মাত্র হাতেগোনা দুই একটি ম্যাচে শুরু থেকে মাঠে নেমেছেন সিআর সেভেন,আর বাকিগুলোতে তাকে নামানো হয়েছে ম্যাচের শেষ দিকে বদলি খেলোয়াড় হিসেবে।যা একটু সুযোগপেয়েছেন,তাতেও নেই তার উল্লেখযোগ্য কোন পারফর্ম্যান্স।ইউনাইটেডের হয়ে এই মৌসুমে তার করা একমাত্র গোলটি এসেছে পেনাল্টি থেকে। হতাশা লুকাতে না পেরে মাঠ ও মাঠের বাইরে নানা কর্মকাণ্ডে এসেছেন আলোচনায়।

তাই সবার মাঝেই গুঞ্জন ছিল ফুটবলে সিআর সেভেন যুগের সমাপ্তি ঘটতে চলছে শীঘ্রই।হয়ত আগামী নভেম্বরে বিশ্বকাপ ফুটবলের পরেই বিদায় বলে দেবেন রোনালদো।তবে আজ নিজের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা নিয়ে এই পর্তুগিজ তারকা যে ভাবনার কথা জানালেন তাতে তার সমর্থকদের খুশি হওয়ার কথা।পর্তুগালের হয়ে সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরষ্কার জেতার পর এক পর্তুগিজ গণমাধ্যমকে রোনালদো জানান,আমি এখনো ফুরিয়ে যায়নি। অসাধারণ কিছু অর্জন করার সামর্থ্য এখনো আমার মধ্যে কিছুটা অবশিষ্ট রয়েছে।এ সময় ২০২৪ সাল পর্যন্ত সব ধরনের ফুটবল খেলা চালিয়ে যাওয়ার প্রতিজ্ঞা ব্যক্ত করেন এই তারকা।

অভিষেকের পর থেকে পর্তুগালের হয়ে ১৮৯ ম্যাচে করেছেন ১১৭ গোল।যেটি পর্তুগালের হয়ে সর্বোচ্চ গোল দেওয়ার রেকর্ড। ইতিমধ্যে দলের জার্সি গায়ে ১০ টি বৈশ্বিক টুর্নামেন্ট খেলা রোনালদো দিতেছেন ইউরো ও নেশনস লীগ। ক্লাবে ব্রাত্য হয়ে পড়লেও জাতীয় দলের গুরুত্বপূর্ণ অংশ হয়ে থাকা রোনালদোর সপ্ন দেখছেন দলের হয়ে একটি বিশ্বকাপ জেতার।

তিনি বলেন,আমি পর্তুগিজ দলে কিছু তরুণ খেলোয়াড়দের সাথে সামনের দিনগুলোতে খেলব। আমার স্বপ্ন অনেক বড় কিছু অর্জনের। আশা করি এই বিশ্বকাপ এবং আগামী ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপে আমি দলের জন্য ভালো কিছু বয়ে আনতে পারব।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফুটবল


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ