Inqilab Logo

মঙ্গলবার ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০৪ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী

মির্জাপুরে নারীকে শ্বাসরোধে হত্যা, সাবেক স্বামীসহ আটক ২

মির্জাপুর (টাঙ্গাইল) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ৭:১৯ পিএম

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে সখিনা আক্তার (৪২) নামের এক নারীকে রাতের আধারে বসতঘরে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় পুলিশ ওই নারীর সাবেক স্বামীসহ দুইজনকে আটক করেছে।
সোমবার দুপুর ১২টার দিকে উপজেলার বাশতৈল ইউনিয়নের বাশতৈল পশ্চিমপাড়ার বসতঘর থেকে ওই নারীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।
আটককৃতরা হলেন সখিনার সাবেক স্বামী বাশতৈল গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে মফিজুর রহমান (৪৭) এবং একই গ্রামের বাহার উদ্দিনের ছেলে লেবু মিয়া (৫০)
জানা যায়, পাঁচ বছর আগে ওই নারী তালাকপ্রাপ্ত হয়ে দুই মেয়ে ও এক ছেলে নিয়ে ওই বাড়িতে বসবাস করতেন। মেয়ে দু'জনের বিয়ে হওয়াতে প্রবাসী ছেলের বউ নিয়েই ওই বড়িতে থাকতেন তিনি। ছেলের বউ বাড়িতে না থাকায় রবিবার রাতে সখিনা আক্তার বাড়িতে একা ছিলেন। সোমবার অনেক বেলা হলেও সখিনাকে না দেখে পার্শ্ববর্তী বাড়ির লোকজন খোজ করতে আসে। পরে ঘরের ভেতরে তার মরদহে দেখতে পায়। খবর পেয়ে বাশতৈল ফাঁড়ী পুলিশ তার মরদেহ উদ্ধার করে। সুরতহাল শেষে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। সখিনার গলায় রশির দাগ এবং গলার ডান পাশে কালো দাগ আছে বলে পুলিশ জানায়।
সখিনার মা আকিরন বেগম অভিযোগ করে বলেন, আমার মেয়ে আত্মহত্যা করে নাই। ওরে হত্যা করা হইছে। আমি এর সুষ্ঠু বিচার চাই।
স্থানীরা জানায়, ছেলের বউ বাবার বাড়িতে বেড়াতে যাওয়ায় রবিবার রাতে সখিনা বাড়িতে একা ছিলেন। এই সুযোগে হয়তো কেউ তাকে হত্যা করতে পারে।
বাঁশতৈল পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ পরিদর্শক সাখাওয়াত হোসেন বলেন, নারীর মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নিহতের গলায় রশির দাগ ও গলার ডান পাশে কালো দাগ রয়েছে। তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়ে থাকতে পারে তিনি জানান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আটক


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ