Inqilab Logo

মঙ্গলবার ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ১১ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী

শ্রীলঙ্কার যুবক এবার প্রেমের টানে জয়পুরহাটে এসে বিয়ে করলেন রেহেনাকে

জয়পুরহাট সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ৭:৪৫ পিএম

বিভিন্ন উপন্যাস ও নাটকে দেখতে পাই প্রেম মানে না কোন দূরত্ব , কোন সময় এমন কি কোন দেশের ভেদাভেদ তাইতো এবার প্রেমের আবেগে শ্রীলঙ্কা থেকে জয়পুরহাটে এসে বিয়ে করেছেন শ্রীলংকান নাগরিক রওশন মিঠুন (৩৩) নামে এক যুবক। বৃহস্পতিবার (২৯ সেপ্টেম্বর) জেলা জয়পুরহাট নোটারি পাবলিকের কার্যালয়ে এফিডেফিটের মাধ্যমে এ বিয়ের ঘোষণা দিলে গত বৃহস্পতিবার ২২ সেপ্টেম্বর ইসলাম ধর্মানুসারে এ বিয়ে হয়।

কনে জয়পুরহাটের সদর উপজেলার দোগাছী ইউনিয়নের উত্তর পাথুরিয়া গ্রামের শাহাদুল ইসলামের মেয়ে রাহেনা বেগম (৩৫)।
জানা গেছে, ২০১৪ সালে জর্ডানে গিয়ে একটি গার্মেন্টসে কোয়ালিটি কন্ট্রোলার পদে চাকরি করতেন রাহেনা বেগম। একই কোম্পানির সুপাইভাইজার পদে ছিলেন শ্রীলংকার মাকারার গেলীর এলাকার সিয়ানার ছেলে রওশন মিঠুন।
সেখানেই তাদের পরিচয়, আর পরিচয়ের সূত্রে ধরেই প্রেম। গত দেড় বছর আগে ওই যুবক তার নিজ দেশে ফিরলেও জয়পুরহাটের রাহেনা দেশে ফিরেন এ বছরেই।

আর সম্প্রতি শ্রীলংকা থেকে জয়পুরহাটে এসে রাতে রহেনা বেগমকে বিয়ে করেছেন রওশন মিঠুন। কোনে রেহেনা বেগম বলেন, আমার পিতা এলাকার মৌলভী দিয়ে এক লাখ টাকা মোহর ধার্য করে আমাদের বিবাহ সম্পূর্ণ করিয়ে দেন।
যার মাধ্যমে আমাদের প্রেম সফল এবং আমরা দুজন দুজনকে বিয়ে করতে পেরেছি ।
আমাদের জন্য সবাই আশীর্বাদ করবেন।
আমরা যেন সারাজীবন একসঙ্গে থাকতে পারি।'

বর রওশন মিঠুন বলেন, ‘কর্মরত অবস্থায় রাহেনা বেগমকে খুব পছন্দ করতাম। নিজে বাংলাদেশে (জয়পুরহাট) এসে পরিবারের সম্মতিতে তাকে (রেহেনা বেগম) বিয়ে করেছি। এ দেশে (বাংলাদেশ) নাগরিক হয়ে থাকতে চাই। আমি বাংলাদেশকে ভালোবাসি। বিষয়টি নিশ্চিত করে জয়পুরহাট জজ কোর্টের আইনজীবী মোহাম্মদ ফরিদুজ্জামান বলেন, 'এ ব্যাপারে গতকাল বৃহস্পতিবার একটি এফিডেভিট (বিবাহ ঘোষণা) করা হয়েছে। তবে একই ধর্মের হওয়ায় তেমন কোনো আইনি বাধা নেই।

জয়পুরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সিরাজুল ইসলাম বলেন, ‘শ্রীলংকান নাগরিক জয়পুরহাটে এসে এক মেয়েকে বিয়ে করছেন এ তথ্যটি আমি বিশেষ শাখা থেকে অবগত হয়েছি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ