Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, ০২ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী

মুসলিম দুনিয়া শক্তিশালী থাকলে আমরাও শক্তিশালী থাকব -এ এম এম বাহাউদ্দীন

| প্রকাশের সময় : ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

এম এ মতিন, শ্রীপুর (গাজীপুর) থেকে : ইনকিলাব সম্পাদক ও বাংলাদেশ জমিয়াতুল মোদার্রেছীনের সভাপতি এ এম এম বাহাউদ্দীন বলেছেন, মাদরাসার শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা অনেক প্রসার লাভ করেছে। এত প্রতিকূলতার মাঝেও আলিয়া মাদরাসার ছাত্র-ছাত্রীর সংখ্যা প্রায় ৮০ লক্ষাধিক। শিক্ষক আছে প্রায় ৩ লক্ষাধিক এবং ৮০ লক্ষাধিক ছাত্র ছাত্রীর মধ্যে ভবিষ্যত মাওলানা প্রায় ৩৫ লক্ষ ছাত্র-ছাত্রী। ইসলামী শিক্ষা ও মাদরাসা শিক্ষার ওপর অনেক দিক দিয়ে ষড়যন্ত্র চলছে, মিথ্যাচার চলছে। আলহাজ্ব জালাল উদ্দিন আকন্দের সভাপতিত্বে গতকাল সোমবার সকাল ১০টায় শ্রীপুর ভাংনাহাটি কামিল মাদরাসায় ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি আরও বলেন, মনে করা হচ্ছে সারা মুসলিম দুনিয়া একটা অধঃপতনের দিকে চলছে। কিন্তু মুসলিমদের শক্তি সর্বত্রই অনেক বেড়ে যাচ্ছে। আজকে যদি তুরস্কের প্রতি দেখেন তুরস্ক এবং রাশিয়া মিলে নব্য অটোমান সাম্রাজ্য গড়ার চিন্তা করছে। তারা এটা প্রতিষ্ঠার জন্য প্র্যাক্টিক্যাল ওয়ার্ক শুরু করেছে। সিরিয়ার বিদ্রোহ হচ্ছে সেখানে তুরস্ক জমি ভাগাভাগি করে নিচ্ছে। ইউরোপের যা জমি আছে তার চেয়ে রাশিয়ার জমি অনেক বেশি আছে। তারা এই জমিগুলো দখল করে নিয়েছে। রাশিয়াতে ১৩টি রাষ্ট্র উজবেকিস্তান, কাজাখস্তানসহ সবগুলো মিলে আজারবাইজান সবই অটোমানের অধীনে ছিল। আগামী দিনে মুসলমান সা¤্রাজ্য বেড়েই যাবে। যারা মনে করছেন মধ্যপ্রাচ্য ভেঙ্গে খানখান হয়ে গেছে তা আসলে সত্য নয় বরং মুসলমানদের শক্তি দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে এবং আরও এদিক সেদিক হয়ে আরও সীমানা বাড়তেছে। মুসলিম দুনিয়া শক্তিশালী থাকলে আমরাও শক্তিশালী থাকব। কারও দাদাগিরি এখানে কাজ হবে না। দাদাদের চিন্তা চেতনা এখানে কোন কাজে আসবে না।
ড. মুহাম্মদ আহসান উল্লাহ, ভিসি, ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয় তিনি ঈদে মিলাদুন্নবী উদযাপন উপলক্ষে উক্ত অনুষ্ঠানে বলেন, ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয় ১০০ বছরের আন্দোলনের ফসল। ইসলামী মনা শিক্ষকরা একটি ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য যুগ যুগ ধরে আন্দোলন করেছিলেন। মাননীয় প্রধান মন্ত্রীর সদিচ্ছায় ও মাননীয় শিক্ষামন্ত্রীর সহায়তায় ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা লাভ করেছে। হযরত মুহাম্মদ সা. এর নবুওয়ত লাভের আগের সময়কে আইয়ামে জাহিলিয়্যাতের যুগ বলা হত। যারা লেখাপড়া জানে না তাদেরকেই জাহেল বলা হত। এটা ৫০০ বছর বা ৫৪০ বছর আগের কথা। আমরা গবেষণা করে দেখেছি, তারা কি কারণে এত অজ্ঞ ও অন্ধকার যুগের সৃষ্টি করেছে। তাদের স্বাভাবিক জীবন যাপন করার জন্য সব কিছুই ছিল। শুধুমাত্র কোরআনের জ্ঞান না থাকায় তারা এ অজ্ঞ যুগে ছিল। সেই সময়ের লেখকের লেখা এত ভাল ছিল, যা আধুনিক যুগের লেখকও তা লেখতে পারেনি। আরব দেশের দেশীয় সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য বুঝার জন্য আইয়ামে জাহিলিয়াতের যুগের কবিতা উপলব্ধি করতে হবে।
মাওলানা শাব্বির আহম্মেদ মমতাজী, মহাসচিব, জমিয়াতুল মোদার্রেছীন তার নিজ প্রতিষ্ঠানে ঈদে মিলাদুন্নবী মাহফিলে তিনি বলেন, আমাদের নবী মুহাম্মদ (সা.) জন্মগ্রহণ না করিলে এই পৃথিবী এখনও অন্ধকারাচ্ছন্ন হয়ে থাকত। এমনকি কোন মানুষ বা প্রাণীই জন্ম নিত না। ১০০ বছর আন্দোলনের ফসল আজকের ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয় যা জমিয়াতুল মোদার্রেছীনের প্রতিষ্ঠাতা হযরত মাওলানা মরহুম এম এ মান্নান (রহ.) এর ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় যেমন ভাবে জমিয়াত গঠন হয়েছে তেমনি ভাবে  ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয়েরও  আন্দোলনের রূপরেখা তিনিই তৈয়ার করে দিয়েছিলেন। তিনি বর্তমান প্রধানমন্ত্রী মাননীয় শেখ হাসিনা ও শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদের প্রতি কৃতজ্ঞতা স্বীকার করেন। তিনি আরও বলেন, ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয় হলেই এ দেশে ইসলামী শিক্ষার বিস্তার ঘটবে না, এ দেশের প্রত্যেকটি এবতেদায়ী মাদরাসাকে প্রাথমিক স্কুলের মত সরকারী করণ ও প্রত্যেক ছাত্র-ছাত্রীকে শতভাগ উপবৃত্তি প্রদানের জন্য প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রীর নিকট আহ্বান জানান। তা না হলে মাদরাসা শিক্ষাকে সামনের দিকে এগিয়ে নেয়া সম্ভব হবে না। তাছাড়া সকল শিক্ষককে জাতীয় করণ করার জন্যও তিনি দাবী জানান। অনুষ্ঠানে ওয়াজ ফরমাইছেন মাওলানা তোফাজ্জল হোসেন ভৈরবী।
দোয়া পরিচালনা করেন মমতাজীয়া দরবার শরীফের পীরজাদা আলহাজ্ব এস এম রুহুল আমীন, অতিথি হিসেবে আরও উপস্থিত ছিলেন, মাদরাসা বিভাগের ডিজি মো: বিল্লাল হোসেন, ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিদর্শক অধ্যাপক ড. মো: ইলিয়াছ সিদ্দিকী, রেজিষ্ট্রার মো: ফাহাদ আহমেদ মোমতাজীসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ, সুপার ও সাধারণ শিক্ষকগণ।



 

Show all comments
  • মোমিনুল হক ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:৩২ এএম says : 1
    ইসলাম ও মাদ্রাসা শিক্ষার ঝান্ডা নিয়ে আপনারা এগিয়ে চলুন। এদের ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা ইসলাম ও মাদ্রাসা শিক্ষার সাথে সব সময়ই থাকবে।
    Total Reply(0) Reply
  • ইমরান হোসাইন ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:১৮ এএম says : 0
    জ্বি জনাব, একদম ঠিক কথা বলেছেন।
    Total Reply(0) Reply
  • Zahirul Islam ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:২২ এএম says : 0
    But problem is that, we can't do any thing for us, because we are not united. If we are united, we will the ruler of the world.
    Total Reply(0) Reply
  • ওবায়েদুল্লাহ ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:২৪ এএম says : 0
    ইসলামী শিক্ষা ও মাদরাসা শিক্ষার ওপর অনেক দিক দিয়ে ষড়যন্ত্র চলছে, মিথ্যাচার চলছে। তাই আমাদের সকলকে সতর্ক থাকতে হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • মাওলানা আব্দুল মাওলা ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:৩২ এএম says : 0
    সকল ঈমানদারদের ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের বিকল্প নেই।
    Total Reply(0) Reply
  • আবদুল হান্নান ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:৩৯ এএম says : 0
    দেশের প্রত্যেকটি এবতেদায়ী মাদরাসাকে প্রাথমিক স্কুলের মত সরকারী করণ ও প্রত্যেক ছাত্র-ছাত্রীকে শতভাগ উপবৃত্তি প্রদান করতে হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • Javed Ahmad ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:৫০ এএম says : 0
    He describes many things by short speech.
    Total Reply(0) Reply
  • হোসাইন আহমদ ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:৫৯ এএম says : 0
    সরকারের কাছে সকল বেসরকারি শিক্ষকদের চাকরি জাতীয়করণের জোরালো দাবি জানাচ্ছি।
    Total Reply(0) Reply
  • Nadim Rashel ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ২:০১ এএম says : 0
    আল্লাহ আপনাকে দীর্ঘ নেক হায়াত দান করুক এবং দেশ ও ইসলামের জন্য কাজ করা তৌফিক দান করুক।
    Total Reply(0) Reply
  • মুসা ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ২:০৩ এএম says : 0
    আগামীর বাংলাদেশ আধুনিক ও ইসলামী শিক্ষায় শিক্ষিত ও যোগ্যরাই নেতৃত্ব দিবে।
    Total Reply(0) Reply
  • ইয়াসমিন ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ২:১৫ এএম says : 0
    মহানবী (সা.)-এর রেখে যাওয়া মুসলিম ভ্রাতৃত্ববোধের আদর্শে উজ্জীবিত হয়ে মজলুম মুসলমানদের অস্তিত্ব ও অধিকার রক্ষায় সোচ্চার হতে হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • সোহরাব হোসেন ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:৪২ এএম says : 0
    জমিয়াতুল মোদার্রেছীনের প্রতিষ্ঠাতা হযরত মাওলানা মরহুম এম এ মান্নান (রহ.) এবং তার সুযোগ্য সন্তান ইনকিলাব সম্পাদক ও বাংলাদেশ জমিয়াতুল মোদার্রেছীনের বর্তমান সভাপতি এ এম এম বাহাউদ্দীন সাহেবের অবদানের কথা এ দেশের মানুষ কখনও ভুলবে না।
    Total Reply(0) Reply
  • আসলাম ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১০:০৮ এএম says : 0
    ইসলামী শিক্ষা ও মাদরাসা শিক্ষার বিরুদ্ধে কোন ষড়যন্ত্রই বাংলার মাটিতে সফল হবে না।
    Total Reply(0) Reply
  • সেলিম উদ্দিন ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১০:০৪ এএম says : 0
    মুসলমান সাম্রাজ্য বাড়ছে, কিন্তু মুসলমানদের শক্তি বা প্রভাব বাড়ছে কি ?
    Total Reply(0) Reply
  • সুলতান আহমেদ ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১২:৫৩ পিএম says : 0
    আল্লাহর কাছে এই প্রার্থনা করছি যে, তিনি যেন আপনাদের এই সকল প্রচেষ্টা কবুল করেন। আমিন
    Total Reply(0) Reply
  • Ajmol Hossain ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১২:৫৪ পিএম says : 0
    আমাদের ইমানকে আরো মজবুত করতে হবে এবং নিজেদেরকে ইসলামের খেদমতে নিয়োজিত করতে হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • শামছুদ্দিন ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১২:৫৫ পিএম says : 0
    বাংলাদেশ জমিয়াতুল মোদার্রেছীনের প্রতিষ্ঠাতা মরহুম মাওলানা এম এ মান্নান (রহ.) সাহেবের রুহের মাগফিরাত কামনা করছি
    Total Reply(0) Reply
  • Hasan Maruf ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১২:৫৭ পিএম says : 0
    সকল মতপাথর্ক্য ভুলে আলেম-ওলামাদের ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • বাদল ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১২:৫৮ পিএম says : 0
    মাদ্রাসাসহ বেসরকারি শিক্ষকদের জন্য কাজ করা একমাত্র সংগঠন হচ্ছে বাংলাদেশ জমিয়াতুল মোদার্রেছীন।তাই এর সার্বিক সাফল্য কামনা করছি।
    Total Reply(0) Reply
  • আনিসুর রহমান ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:০১ পিএম says : 0
    ইহকালীন শান্তি ও পরকালীন মুক্তির জন্য শ্রেষ্ঠ শিক্ষা ব্যবস্থা হচ্ছে মাদ্রাসা শিক্ষা।
    Total Reply(0) Reply
  • ফাতেমাতুজ্জহুরা ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:০৪ পিএম says : 0
    হে আল্লাহ বাংলাদেশ, মায়ানমারসহ সারা বিশ্বের মুসলমানদেরকে তুমি হেফাযত করো।
    Total Reply(0) Reply
  • Tuhin ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:০৫ পিএম says : 0
    apner kotha gulo sune mone kisuta asar sonchoy holo.
    Total Reply(0) Reply
  • Nazim uddin ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:০৮ পিএম says : 0
    We hope that all Muslim of Bangladesh will realize this matter properly and everybody do their duty.
    Total Reply(0) Reply
  • রুহুল আমীন ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:০৯ পিএম says : 0
    যতই ষড়যন্ত্র করুক না কেন মাদ্রাসা শিক্ষার অগ্রযাত্রাকে কেউ থামাতে পারবে না। ইনশা আল্লাহ
    Total Reply(0) Reply
  • Farjana ১৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১:৫৯ পিএম says : 0
    মাদরাসা নিয়ে যে ষড়যন্ত্র হবে এবং বিপদ আসবে তার ব্যাপারে সকলকেই সজাগ থাকতে হবে।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর