Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৫ আশ্বিন ১৪২৭, ১২ সফর ১৪৪২ হিজরী

মার্কিন নির্বাচনে হ্যাকিংয়ে পুতিন নিজেই জড়িত

হিলারির প্রতি ক্ষোভের কারণে পুতিন এ-কাজ করেছেন : গোয়েন্দাদের অভিমত

| প্রকাশের সময় : ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা বিশ্বাস করেন, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচার চলার সময়ে যে হ্যাকিং হয়েছে তাতে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিন নিজেই জড়িত ছিলেন। কী পরিমাণ তথ্য-উপাত্ত হ্যাক করতে হবে এবং কতটুকু ফাঁস করতে হবে তার নিদের্শনা দিয়েছেন তিনি। হিলারি ক্লিনটনের প্রতি ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশ হিসেবে পুতিন এ কাজ করেছেন বলে মনে করেন মার্কিন গোয়েন্দারা। তবে এর পক্ষে সুনির্দিষ্ট কোনো প্রমাণ দেখাতে পারেননি তারা। এনবিসি নিউজের খবরের বরাত দিয়ে বৃহস্পতিবার এ তথ্য জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম। নির্বাচনী প্রচারের সময় ডেমোক্রেটিক পার্টির জাতীয় কমিটির ওয়েবসাইট ও নেতাদের ই-মেইল হ্যাক করা হয়। পরে যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দারা দাবি করেন, রাশিয়া থেকে হ্যাক করা হয়েছে। এ নিয়ে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের হাওয়া গরম হয়ে ওঠে। রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প রাশিয়ার প্রতি হিলারি সম্পর্কে আরো বেশি তথ্য হ্যাক করার আহ্বান জানান।
নির্বাচনী প্রচারের তথ্য চুরি নিয়ে কাজ করছেন এমন দুজন বিশেষজ্ঞ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, তারা খুবই আত্মবিশ্বাসী যে, পুতিন নিজে হ্যাকিংয়ের সঙ্গে জড়িত ছিলেন। গত সপ্তাহে ওয়াশিংটন পোস্টের এক খবরে বলা হয়, তদন্তের পর সিআইএ যে মূল্যায়ন করেছে, তাতে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের তথ্য রাশিয়া হ্যাক করেছে। তাদের উদ্দেশ্য ছিল, এসবের মাধ্যমে হিলারির জনপ্রিয়তা নষ্ট করে ট্রাম্পকে এগিয়ে দেয়া। শেষ পর্যন্ত ট্রাম্পই ৮ নভেম্বরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয়ী হয়েছেন। ২০১১ সাল থেকে হিলারিকে খোলামেলা আক্রমণ করে আসছেন পুতিন। ওই সালে রাশিয়ার পার্লামেন্ট নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন হিলারি এবং পুতিনের অভিযোগ, তার বিরুদ্ধে বিক্ষোভ উসকে দিয়েছিলেন তিনি। তখন পুতিন বলেছিলেন, হিলারিকে কখনো ক্ষমা করব না। এদিকে, ডেমোক্রেটিক ন্যাশনাল কমিটি ও হিলারি ঘনিষ্ঠজনদের তথ্য হ্যাক করার জন্য রাশিয়াকে দায়ী করার ঘটনাকে ‘হাস্যকর’ বলে উল্লেখ করেছেন ট্রাম্প। অন্যদিকে, এই হ্যাকিংয়ের বিষয়ে কংগ্রেস থেকে নতুন তদন্ত করার আহ্বান জানিয়েছেন মার্কিন আইনপ্রণেতারা। রয়টার্স, ওয়াশিংটন পোস্ট, টাইমস অব ইন্ডিয়া।   



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ