Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৭ আশ্বিন ১৪২৫, ১১ মুহাররাম ১৪৪০ হিজরী‌

কামরাঙার ঔষধি গুণ

প্রকাশের সময় : ২০ জানুয়ারি, ২০১৬, ১২:০০ এএম

বাংলাদেশে বিভিন্ন মৌসুমে হরেক রকম ফলের সমাহার দেখা যায়। যে জন্য বা হয় বাংলাদেশে বারো মাসে তেরো ফল হয়। তোরো ফল বলতে হরেক রকমের ফল বোঝানো হয়েছে। এমনি একটি ফল কামরাঙা। কামরাঙা একটি চিরসবুজ মাঝারি ধরনের গাছ। ফল ৮-১০ মিটার লম্বা হয়। পাতা যৌগিক লম্বায় ২-৫ সে.মি. হয়। কাÐ মসৃণ ও কালো বর্ণের হয়। ৮-৬ ভাঁজ যুক্ত এবং পাকলে হলুদ হয়। কামরাঙা দুই প্রকার হয়- টক ও মিষ্টি স্বাদযুক্ত। কামরাঙা আমরা সবাই চিনি। আসুন, কামরাঙার কিছু বিস্ময়কর স্বাস্থ্য উপকারিতা সম্পর্কে জানি।
বিভিন্ন রোগে কামরাঙার ঔষধি ব্যবহার :
* এটি শীতবীর্য, মল সংগ্রাহক, অমøরস। এটি কফবিকার ও বায়ুবিকার দূর করে। * অমøরস পাচনক্রিয়ার সাহায্য করে, কারণ অমøরস লালাস্রাব ঘটায়, রুচি আনে, অগ্নিবল বাড়ায় এবং বায়ুর অনলোমণ করে। প্রমিত মাত্রায় রক্তবহ সংস্থানে এটি হৃদ্য, অধিক সেবনে রক্তপিত্ত রোগের সৃষ্টি হয়। এর আর একটি দোষ শুক্রের বল হ্রাস করে এমনকি শুক্রাণু ধ্বংসও করে। তবে মূত্রবহ স্রোত পরিস্কার রাখে এজন্য রসবহ স্রোতের বল বাড়ায়। তবে মধুরামø কামরাঙাই উৎকৃষ্ট। * যে সময় আমাশয়ে, মূত্রাশয়ে বায়ুবিকার হয়ে মূত্রামøতা হবে, পেট ফাঁপাবে, মলে তরলতা দেখা দেবে সে সময় মিষ্টি পাকা কামরাঙার রস এবং দ্বিগুণ পরিমাণ ঠাÐা পানি মিশিয়ে একটু চিনি দিয়ে ২-৩ চা- চামচ করে খাওয়ালে বায়ু বিকারজনিত ঐ অসুবিধাগুলো দূর হয়ে যাবে। * কোন অতিসারে রোগী অত্যধিক পাতলা পায়খানা করতে করতে যখন দুর্বল হয়ে যায় তখন কালবিলম্ব না করে বারেবারে মিষ্টি পাকা কামরাঙার রস ১ চা-চামচ করে কয়েকবার খাওয়ালে পায়খানা বন্ধ হবে, প্রস্রাব পরিস্কার হবে। * অর্শ রোগে রৌদ্রে শুকানো কামরাঙার কচি পানির সঙ্গে বেটে দেড় গ্রাম মতো একবার খেতে হয়। কামরাঙার রসটা যাতে না পড়ে এ অবস্থায় শুকিয়ে গুঁড়ো করে বড়ি করে রাখতে পারলে সেই বড়ি পানি দিয়ে খাওয়ানো যায়। বেশ কিছুদিন খাওয়ালে ঐ অর্শটা থাকবে না। * পুরনো জ্বরে কামরাঙার পাতা মিহিচূর্ণ ২ গ্রাম মাত্রায় ৩-৪ দিন সকালে-বিকালে পানিসহ খেলে পুরনো জ্বরটা সেরে যাবে, অগ্নিবলও বৃদ্ধি পাবে। * যকৃৎ শুলে পাকা কামরাঙার বীজ স্তনদুগ্ধ বৃদ্ধি সহায়ক, কিন্তু অধিকমাত্রায় তা আবার ঋতু সংশোধক এবং গর্ভপাতকারক। * পাতার ক্বাথ মুখের সাদা ক্ষত, এঞ্জাইনা এবং বমন বন্ধে উপকারী। ফুল কৃমিনাশক। কামরাঙা মহান আল্লাহ তায়ালার এক অপূর্ব দান। এর উপকারিতার শেষ নেই। তাই, সুস্থ, নীরোগ থাকতে যদি চান, সারা বছর কাঁচা-পাকা কামরাঙা খান।
ষ ডা. মাও. লোকমান হেকিম
চিকিৎসক-কলামিস্ট,
মোবাঃ ০১৭১৬২৭০১২০।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।