Inqilab Logo

রোববার, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১৫ মাঘ ১৪২৯, ০৬ রজব ১৪৪৪ হিজিরী
শিরোনাম

ডিপজলের নতুন নায়িকা কাজল

বিনোদন রিপোর্ট: | প্রকাশের সময় : ৮ ডিসেম্বর, ২০২২, ১২:০০ এএম

মুভিলর্ড খ্যাত মনোয়ার হোসেন ডিপজলের সিনেমার মাধ্যমেই শাকিব খান, অপু বিশ্বাস, রেসি, নিপুণের মতো শিল্পীরা চলচ্চিত্রে অসামান্য দর্শকপ্রিয়তা পেয়েছেন। বলা যায়, তাদের চলচ্চিত্রে প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে ডিপজলের ভূমিকা অপরিসীম। তিনিই চলচ্চিত্রে তাদের যাত্রার পথটি প্রশস্ত করে দিয়েছেন। তাদের মতো এমন আরও অনেক নায়ক-নায়িকা আছেন যাদের যাত্রা শুরু হয়েছে ডিপজলের হাত ধরে। চলচ্চিত্রে নতুন শিল্পী উপহার দেয়া ডিপজলের জন্য নতুন কিছু নয়। তিনি তার সিনেমায় নিজে যেমন অভিনয় করেন, তেমনি তার বিপরীতে নতুন নায়িকাদের সুযোগ দিয়ে প্রতিষ্ঠিত করেন। তার সিনেমায় নতুনদের প্রাধান্য থাকে অনেক বেশি। এ হিসেবে ডিপজলকে চলচ্চিত্রে নতুন শিল্পী উপহার দেয়ার কারিগর বলা হয়ে থাকে। ইতোমধ্যে তার নির্মিত ও মুক্তির অপেক্ষায় থাকা অমানুষ হলো মানুষ, যেমন জামাই তেমন বউ, বাংলার হারকিউলিস, ঘর ভাঙা সংসার এবং জিম্মি সিনেমাগুলোয় নতুন শিল্পীদের প্রাধান্য দিয়েছেন। সবগুলো সিনেমার পরিচালক পপি, কেয়াসহ আরও অনেক দর্শকপ্রিয় নায়িকা উপহার দেয়া গুণী নির্মাতা মনতাজুর রহমান আকবর। ডিপজল ও আকবরÑএই দুইজনের সমন্বয়ের কারণে চলচ্চিত্রে ইতোমধ্যে অনেক নায়ক-নায়িকার আগমন ঘটেছে। সর্বশেষ সংযোজন হচ্ছে, কাজল নামে একেবারে নতুন এক নায়িকা। কাজল এখনো নায়িকা হয়নি। তবে নায়িকা হতে যাচ্ছেন। মিডিয়ার সাথে তার কোনো যোগাযোগও নেই এবং এ সম্পর্কে তার ধারণাও নেই। একেবারেই মিডিয়ার বাইরের। নায়িকা হতে যাওয়া কাজলকে আবিষ্কার করেছেন ডিপজল। নায়িকা হিসেবে তাকে তিনি উপহার দিতে যাচ্ছেন। তার পরবর্তী সিনেমা ‘আলী ভাই’-এ কাজলকে নায়িকা হিসেবে দেখা যাবে। তবে তার নায়ক হবে জয় চৌধুরী। সিনেমাটির শুটিং শুরু হবে আগামী জানুয়ারিতে। পরিচালনা করবেন মনতাজুর রহমান আকবর। তার আগে কাজলকে পরিপূর্ণ নায়িকা হিসেবে গড়ে তুলতে দীর্ঘ সময় ধরে গ্রুমিংয়ের ব্যবস্থা করেন ডিপজল। মনতাজুর রহমান আকবরের তত্ত্বাবধানে কাজলকে অভিনয়ের পাশাপাশি চলচ্চিত্রের বিশাল ক্যানভাসের খুটিনাটি সবকিছু হাতেকলমে শেখানো হয়েছে। নাচ ও ফাইটও শেখানো হয়েছে। বলা হয়ে থাকে ডিপজলের ফিল্মিক দৃষ্টি অত্যন্ত প্রখর। একদৃষ্টিতে যাকে দেখেন, তাকে দিয়ে ফিল্ম হবে কি হবে না, বুঝে ফেলেন। মনতাজুর রহমান আকবরের দৃষ্টিও তাই। ফলে এই দুইজনের সমন্বিত দৃষ্টিতে কাজল যেহেতু দৃষ্টি আকর্ষণ করতে পেরেছেন, নিশ্চিতভাবেই বলা যায় চলচ্চিত্র আরেকজন গ্ল্যামারাস ও নজরকাড়া নায়িকা নায়িকা পেতে যাচ্ছে। ডিপজলের নেয়া একের পর এক প্রজেক্টে কাজলকে সুযোগ দেয়া হবে। ‘আলী ভাই’সহ তার পরবর্তী আরও ৬টি সিনেমায় কাজলকে নায়িকা করা হবে। এগুলোর মধ্যে রয়েছে ‘সরকার’, ‘বাবুর্চি’, ‘আক্রোশ’, ‘মানিক রতন’ ইত্যাদি। কাজলকে নিয়ে ডিপজল বলেন, মেয়েটি একেবারে নতুন। ওর মধ্যে সম্ভাবনা দেখেছি। নায়িকা হওয়ার সব গুণ ওর মধ্যে রয়েছে। এজন্য পরিপূর্ণ নায়িকা হিসেবে গড়ে তুলতে ওর জন্য যা করা দরকার তাই করা হয়েছে। আশা করছি, চলচ্চিত্রের শিল্পী সংকটের সময় একজন প্রতিভাময়ী নতুন নায়িকা পাওয়া যাবে। মনতাজুর রহমান আকবর বলেন, কাজলকে ইতোমধ্যে নায়িকা হওয়ার উপযুক্ত করে গড়ে তোল হয়েছে। ওর মধ্যে সম্ভাবনা রয়েছে। এ কারণেই ওকে নিয়ে কাজ করছি। আশা করি, কাজল তার প্রতিভাকে কাজে লাগিয়ে এগিয়ে যেতে পারবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ