Inqilab Logo

সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ২০ আষাঢ় ১৪২৯, ০৪ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

ব্যাংক ডাকাতিকালে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত নিহত আটক ৫

নৈশপ্রহরীকে বেঁধে মালামাল লুট

প্রকাশের সময় : ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ধামরাই (ঢাকা) উপজেলা সংবাদদাতা : ঢাকার ধামরাই পৌর শহরের গোপনগরে হাজী রিয়াজ প্লাজায় তৃতীয় তলার ফ্লোর কেটে গতকাল শুক্রবার ভোররাতে সোনালী ব্যাংকে ডাকাতির চেষ্টাকালে র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুক যুদ্ধে মাসুদ নামের এক ডাকাত নিহত হয়েছে। এ সময় আহত হয়েছে অন্তত ৫ জন। এ ঘটনায় একটি বিদেশী পিস্তল, ৪ রাউন্ড গুলি, ৩৫ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট ও ডাকাতি কাজে ব্যবহৃত বিপুল পরিমাণ যন্ত্রপাতি উদ্ধার করেছে র‌্যাব। আটক ডাকাত দলের সদস্যরা হলো সবুজ, রিয়াজুল, বাদশা মিয়া, শিলা ও রুমানা। এদের সাথে ৭/৮ বছরের একটি শিশু রয়েছে। জানা গেছে, ধামরাই পৌর শহরের গোপনগর এলাকায় হাজী রিয়াজ প্লাজায় চতুর্থ তলা ভবনের ২য় তলায় বাংলাদেশ সোনালী ব্যাংকের একটি শাখায় ভল্ট স্ট্রং লকারের ঠিক উপরে তৃতীয় তলায় তিন কক্ষবিশিষ্ট একটি ফ্ল্যাট গত তিন মাস পূর্বে নিহত ডাকাত মাসুদ নিজেকে ব্যবসায়ী পরিচয় দিয়ে ভাড়া নেয়। ভাড়া নেয়ার প্রায় একমাস পর স্বামী, স্ত্রী, বাবা, ভাই ও নিজের সন্তান পরিচয় দিয়ে ওই কক্ষে নিয়মিত বসবাস শুরু করে। তিনদিনের সরকারি ছুটি থাকায় পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী ডাকাত চক্রটি ব্যাংকের ভল্ট স্ট্র্রং রুমে ঢুকার জন্য ডাকাত দল তাদের রুমের ফ্লোরের মাঝখানে কিছু জায়গার ৩ভাগের একভাগ কেটে ফেলে। কেরানীগঞ্জের একটি ডাকাতি ঘটনার সূত্র ধরে র‌্যাবের একটি বিশেষ দল দীর্ঘদিন ধরে অনুসন্ধান করতে থাকে ডাকাত দলটি ধামরাই এলাকায় অবস্থান করছে। এর সূত্র ধরে র‌্যাবের একটি দল গত বৃহস্পতিবার রাত ২ টার থেকে গতকাল শুক্রবার ভোর ৪টা পর্যন্ত ধামরাই পৌর শহরে অভিযান চালায়। পরে বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে র‌্যাব সদস্যরা কৌশলে ডাকাতদের কক্ষে প্রবেশ করতে চাইলেই তাদের উপর গুলি চালায় ডাকাত দলের সদস্যরা। পরে র‌্যাব সদস্যরা পাল্টা গুলি চালালে ডাকাত দলের সর্দার মাসুদের মাথায় গুলি লাগলে সে গুরুতর আহত হয়। এ সময় অন্যান্য ডাকাত  সদস্যদের  আটক করতে সক্ষম হয় র‌্যাব সদস্যরা। পরে  আহত ডাকাত সর্দার মাসুদকে স্থানীয় সরকারি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাবার পথে তার মৃত্যু হয়। অপরদিকে গতকাল শুক্রবার রাতে একই উপজেলার জয়পুরা বাজারের নৈশ প্রহরীদের হাত-পা বেঁধে স্বর্ণের জুয়েলারী দোকানসহ ৪টি দোকান ঘর ও ইসলামপুর এলাকায় ২টি কাপড়ের দোকানে গভীর রাতে চোরেরা দোকান ঘরের সাঁটারের তালা ভেঙে ২২ ভরি স্বণালংকার, ২ কেজি রুপা, থানকাপড় ও মোবাইল সেট ও নগদ টাকাসহ প্রায় ৩০ লাখ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ব্যাংক ডাকাতিকালে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত নিহত আটক ৫
আরও পড়ুন