Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮, ০৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
শিরোনাম

গল্প : মনি আজ ভীষণ খুশি

| প্রকাশের সময় : ৯ জানুয়ারি, ২০১৭, ১২:০০ এএম

সা ব রি ন   আ ক্তা র   ম নি : মনি সারাক্ষণ খুব খুশি ভাব নিয়ে চলাফেরা করছে। গতকাল তার স্কুলের ফলাফল দিয়েছে। সে এবারও জিপিএ-৫ পেয়েছে। আজ মনির বাবা এবং মনি তার স্কুলে গিয়ে মিষ্টি দিয়ে আসবে তাই সে খুব খুশি। স্যার ম্যাডাম তাকে খুব ভালবাসে কারণ সে বরাবর ১ রোল করে এসেছে। সকালের নাস্তা শেষ করে সে মায়ের কাছে বসে বসে গল্পে মেতে উঠেছে। তার বাবা বাজারে গিয়েছে মিষ্টি কিনতে, বাসায় ফিরলেই তারা স্কুলের উদ্দেশ্যে রওনা দেবে। মনির মা আজ খুব খুশি তাই মনিকে সুন্দর করে সাজিয়ে দিয়েছে। মেয়েকে দেখে যেন সবাই বলে যে বাহ! সাজ টা তো বেশ দারুণ। চুলে তেল দিয়ে সুন্দর করে বেণি গেঁথে দিয়েছে। হালকা মেকাপ করে দিয়েছে। সেই সাথে ঠোঁটে হালকা লিপস্টিক, সব মিলিয়ে মনি কে আজ খুব সুন্দর দেখাচ্ছে।
বাসার গেটে শব্দ হলো নিশ্চই বাবা এসেছে তাই মনি দৌড়ে এসে গেট খুলে দিল। যেমন ভেবেছিল ঠিক তেমনি তার বাবা মিষ্টির প্যাকেট হাতে বাসায় প্রবেশ করলো। অনেকগুলো প্যাকেট দেখে মনি জিজ্ঞেস করলো এত মিষ্টি কেন? তার বাবা বললো, বাসার আশপাশের মানুষের জন্য এক প্যাকেট, স্কুলের জন্য এক প্যাকেট, বাসার জন্য এক প্যাকেট, তোমার বন্ধুদের জন্য এক প্যাকেট। মনি জিজ্ঞেস করলো বাবা অনেক দেরি হয় গেল এখন চলো তো তাড়াতাড়ি। মেয়ের তাড়াতাড়ির জন্য বাবা মেয়েকে নিয়ে স্কুলের উদ্দেশ্যে রওনা হলো। স্কুলের গেটে গিয়ে গাড়ি থামলো। স্কুলের ভেতরে গিয়ে শিক্ষকদের কক্ষে গিয়ে মনি তার মিষ্টির প্যাকেট দিয়ে এলো। স্কুলে অনেক বন্ধু বান্ধব পেয়ে মনি অনেক খুশি। তাই তার বাবা মনিকে রেখে তার অফিসে চলে গেল। স্কুলে আজ বই দিবে তাই সবাই আরো বেশি খুশি হলো। নতুন ক্লাসের বই পাওয়া যে কি মজার সেটা তো সবাই বুঝবে না। সবাই একে একে লাইনে দাঁড়িয়ে বইয়ের জন্য অপেক্ষা করতেছিল। মনিও লাইনে দাঁড়িয়ে রইলো নতুন বইয়ের জন্য। নতুন বইয়ের জন্য মনটা বেশ ছটফট করেছে সবার, সেটা স্যাররা বুঝতে পারলো তাই তাড়াতাড়ি বই দেওয়া শুরু করলো। একে একে সবাইকে নতুন ক্লাসের নতুন বই দেয়া হলো। বই দিতে দিতে মনির কাছে এসে এক স্যার বললো মনি তোমাকে এই ক্লাসের নতুন বইগুলোর সাথে আমাদের পক্ষ থেকে আরো বেশ কিছু ভালো লেখকের বই দেয়া হলো ভাল ফলাফলের জন্য। মনি এবার আনন্দে লাফিয়ে উঠলো। বই পড়ার নেশা তার আছে। নতুন বই পেয়েছে এতে অনেক খুশি হলো। সে মনে মনে ভাবলো যে বাসায় গিয়েই পড়া শুরু করে দেবে। মনি নতুন বই পেয়ে  নতুন বইয়ের ঘ্রাণ নিতে লাগলো। নতুন বইয়ের ঘ্রাণ নাকি বেশ মজার তাই সেও ঘ্রাণ নিতে ভুল করলো না। মনি তার বইয়ের বোঝা নিতেই পারছিল না এমন সময় পেছন থেকে বললো, কি মা বই নিতে কষ্ট হচ্ছে তোমার? মনি পেছনে তাকাতেই চমকে উঠলো বাবা তুমি! হ্যাঁ রে মা তোকে নিতে এলাম। এবার মনি আরো বেশি খুশি হলো। মনি নতুন বইয়ের ঘ্রাণ শুকতে শুকতে বাবার সাথে বাসায় চলে এলো। সেদিন থেকে আবার শুরু হলো তার নতুন ক্লাসের নতুন বই পড়া। 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।