Inqilab Logo

রোববার, ০৩ জুলাই ২০২২, ১৯ আষাঢ় ১৪২৯, ০৩ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

অল্পের জন্য প্রাণে বাঁচল ইজিবাইক চালক খুলনায় অস্ত্রসহ আটক তিন ছিনতাইকারীর বিরুদ্ধে মামলা

| প্রকাশের সময় : ২৮ জানুয়ারি, ২০১৭, ১২:০০ এএম

খুলনা ব্যুরো : খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের সামনে নার্সিং ইনস্টিটিউট সংলগ্ন গলি রাস্তায় ইজিবাইক ছিনতাই চেষ্টার ঘটনায় দু’টি ছোরাসহ আটক তিনজনের বিরুদ্ধে দ্রæত বিচার আইনে মামলা হয়েছে। ইজিবাইক ভাড়া করে নিয়ে চালকের গলায় ছোরা ঠেকিয়ে ছিনতাইকালে স্থানীয়দের সহায়তায় এ তিন ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করে সোনাডাঙ্গা মডেল থানা পুলিশ। ছিনতাইকারীদের ছোরার আঘাতে অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে যায় ইজিবাইক চালক শুভ।
গ্রেফতারকৃতরা হলোÑ সোনাডাঙ্গা থানাধীন সোনারবাংলা গলির বাসিন্দা আনোয়ার হোসেনের ছেলে টিপু সুলতার ওরফে হৃদয় (২০), ইউসেপ স্কুল সংলগ্ন রাঙ্গা মিয়ার বাড়ির ভাড়াটিয়া আজিবারের ছেলে দেলোয়ার (২০) ও নবীনগর মোড়স্থ রিকশা গ্যারেজের পাশের গলির বাসিন্দা সিরাজের ছেলে মো. আলী (১৭)। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই রহিত কুমার বিশ্বাস জানান, তাদের গতকাল (শুক্রবার) আদালতে সোপর্দ করা হয়।
মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণী থেকে জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে নগরীর ময়লাপোতা মোড়ে সোনাডাঙ্গা বৌবাজার এলাকার বাসিন্দা জাহাঙ্গীর হাওলাদারের ছেলে ইজিবাইক চালক মো. শুভ হালাদারকে ওই তিন যুবক খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে যাবে বলে রিজার্ভ ভাড়া ঠিক করে। সে মোতাবেক তাদের নিয়ে শুভ হাসপাতালের সামনে যায়। সেখানে গিয়ে হাসপাতালের সামনে নার্সিং ইনস্টিটিউট সংলগ্ন গলি রাস্তায় নেয়া হয় তাকে। এরপর ভাড়া দেয়ার নাম করে সামনে এসে একজন কথা বলতে থাকে ও পেছন থেকে একজন ইজিবাইক চালকের মুখের মধ্যে রুমাল গুঁজে দেয়। এরপর তার দু’হাত বেঁধে তার গলায় ছোড়া ঠেকিয়ে ইজিবাইকের চাবি ও মোবাইল ফোন নিয়ে নেয়। ইজিবাইক চালক শুভ’র মুখে গোঁজা রুমাল পড়ে গেলে সে চিৎকার দেয়। এ সময় আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে ছুটে এলে ওই তিন ছিনতাইকারী পালানোর চেষ্টা করে। এলাকাবাসী তাদের ধরে গণধোলাই দিয়ে সোনাডাঙ্গা মডেল থানা পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে দু’টি ছোরাসহ তাদের গ্রেফতার করে খুলনা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য ভর্তি করে।
সোনাডাঙ্গা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ সুকুমার বিশ্বাস জানান, এ ঘটনায় ইজিবাইক চালক বাদী হয়ে দ্রæত বিচার আইনে মামলা করেছে (যার নম্বর ২৫)। তাদের সাথে আরও কেউ জড়িত রয়েছে কি না সে বিষয়ে খোঁজখবর নেয়া হচ্ছে। গ্রেফতার তিন ছিনতাইকারীর মধ্যে একজন কিশোর হওয়ায় তাকে কিশোর আইনে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মামলা


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ