Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৭ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

দুই মহিলাকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা

| প্রকাশের সময় : ২৯ জানুয়ারি, ২০১৭, ১২:০০ এএম

শ্রীপুর (গাজীপুর) উপজেলা সংবাদদাতা : শ্রীপুরে জমির সীমানা বিরোধের জেরকে কেন্দ্র করে প্রভাবশালী প্রতিপক্ষরা ৩ নারীসহ ৪ জনকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা করেছে। শুক্রবার রাতে শ্রীপুর পৌর এলাকার বৈরাগীরচালা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। জানা গেছে, বৈরাগীরচালা গ্রামের আইনুদ্দিন ও মাইনুদ্দিনদের মধ্যে দীর্ঘদিন যাবত জমির সীমানা নিয়ে বিরোধ চলছিল। শুক্রবার রাতে দু’পক্ষের মধ্যে কথাকাটাকাটি এক পর্যায়ে আইনুদ্দিন, তার পুত্র ফিরোজ, নুরুল আমিন, হাবিব সাবল ও রাম দা দিয়ে মাইন উদ্দিনের স্ত্রী জরিনা খাতুন (৫৫) ও মেয়ে ফজিলা খাতুন (৩৫), জেসমিন আক্তার (৩৪), আমির উদ্দিন (৪৫) কে মাথায় ও চোখে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে। স্থানীয় লোকজন আহতদেরকে উদ্ধার করে শ্রীপুর উপজেলা ও ময়মনসিংহ সদর হাসপাতালে ভর্তি করেছে। এ ব্যাপারে শ্রীপুর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। আহত জরিনা খাতুন জানান, আমার স্বামী দীর্ঘদিন যাবত অবস (প্যারালাইজড) রোগে অসুস্থ্য হওয়ার সুযোগে আমার ভাসুর আইন উদ্দিন ও তার ছেলেরা জোরপূর্বক আমাদের জায়গা দখল করে ঘরবাড়ি তৈরি করছেন। এতে আমরা বাঁধা দিলে আমাদেরকে নির্মমভাবে কুপিয়েছে। অভিযুক্তরা ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছে।
বিষপানে গৃহবধূর আত্মহত্যা
গাজীপুরের শ্রীপুরে বিষপানে পাপিয়া আক্তার (২০) নামে এক গৃহবধূ আত্মহত্যা করেছে। শুক্রবার রাতে উপজেলার বরমী ইউনিয়নের পেলাইদ গ্রামে তার পিত্রালয়ে এ ঘটনা ঘটে। নিহত গৃহবধূ কাপাসিয়া উপজেলার দোয়াইনগর গ্রামের আ: রহিমের পুত্র প্রবাসী সুমন মিয়ার স্ত্রী ও শ্রীপুর উপজেলার পেলাইদ গ্রামের শফিক মিয়ার কন্যা। জানা যায়, গত এক বছর আগে প্রবাসী সুমন মিয়ার সাথে পাপিয়া আক্তারের বিয়ে হয়। বিয়ের পর তার স্বামী পুনরায় বিদেশে চলে গেলে পাপিয়া তার স্বামীর বাড়ীতেই বসবাস করতে থাকে। গত দু’মাস আগে পাপিয়া তার পিত্রালয়ে আসে এবং শুক্রবার রাতে তার বসতকক্ষে বিষপান করে ছটফট করতে থাকে। এসময় তার আত্মীয় স্বজন তাকে দ্রুত শ্রীপুর উপজেলা হাসপাতালে আনলে তার অবস্থার অবনতি হলে ময়মনসিংহ সদর হাসপাতালে নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ