Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২৩ মে ২০১৯, ০৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৭ রমজান ১৪৪০ হিজরী।
শিরোনাম

আফগানিস্তানের সঙ্গে আরেকটি সীমান্ত বন্ধ করল পাকিস্তান

| প্রকাশের সময় : ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : আফগানিস্তানের সঙ্গে নিজের দ্বিতীয় বৃহত্তম সীমান্ত ক্রসিং বন্ধ করে দিয়েছে পাকিস্তান। দেশটির দক্ষিণাঞ্চলীয় সিন্ধু প্রদেশে এক ভয়াবহ বিস্ফোরণে শত শত মানুষ হতাহত হওয়ার পর এ ব্যবস্থা নিল ইসলামাবাদ। পাকিস্তান ওই হামলার জন্য আফগানিস্তান থেকে আসা সন্ত্রাসীদের দায়ী করেছে। পাকিস্তানের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক সেনা কর্মকর্তা গত শনিবার জানিয়েছেন, দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় বেলুচিস্তান প্রদেশের চামান শহরের কাছে অবস্থিত সীমান্ত ক্রসিংটি বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এর ফলে ভূমিবেষ্টিত আফগানিস্তানে পাকিস্তান থেকে পণ্য সরবরাহ বন্ধ হয়ে গেল। পাকিস্তান ও আফগানিস্তানের যে দুটি সীমান্ত ক্রসিং দিয়ে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ নিজেদের আত্মীয়-স্বজনের সঙ্গে সাক্ষতের উদ্দেশ্যে পরস্পরের দেশ ভ্রমণ করে চামান সেগুলোর একটি। এছাড়া, এই ক্রসিং বন্ধ করে দেয়ার ফলে দুদেশের মধ্যকার বাণিজ্য মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে। গত বৃহস্পতিবার রাতে সিন্ধু প্রদেশের সেহওয়ান শহরের একটি মাজারে ভয়াবহ বোমা হামলায় ২০ শিশুসহ অন্তত ৮০ ব্যক্তি নিহত হয়। বিশেষ সুফি জলসায় আগত হাজার হাজার মানুষের ভিড়ের মধ্যে ঢুকে এক আত্মঘাতী ব্যক্তির চালানো হামলায় আহত হয় আরো আড়াইশরও বেশি মানুষ। উগ্র জেহাদি গোষ্ঠী আইএসআইএল এ হামলার দায়িত্ব স্বীকার করে বিবৃতি দিয়েছে। পাকিস্তানি কর্তৃপক্ষ বলছে, উগ্র সন্ত্রাসীরা সীমান্ত ক্রসিংগুলো ব্যবহার করে আফগানিস্তান থেকে পাকিস্তানে অনুপ্রবেশ করে এধরনের হামলা চালায়। ওই হামলার কয়েক ঘণ্টার মধ্যে আফগানিস্তানের সঙ্গে তুরখাম সীমান্ত ক্রসিং বন্ধ করে দেয় ইসলামাবাদ। সেহওয়ানের সন্ত্রাসী হামলার পর পাকিস্তান সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে দেশব্যাপী অভিযান চালিয়ে অন্তত ১০০ জঙ্গিকে হত্যার দাবি করে। এছাড়া, গত শুক্রবার পাকিস্তানের সেনাবাহিনী দেশটিতে নিযুক্ত আফগান ক‚টনীতিকদের তলব করে সন্দেহভাজন ৭৬ জেহাদির একটি তালিকা হস্তান্তর করে দাবি করে, এসব সন্ত্রাসী আফগানিস্তানে লুকিয়ে আছে এবং তাদেরকে অবিলম্বে ইসলামাবাদের কাছে হস্তান্তর করতে হবে। এর প্রতিক্রিয়ায় আফগান সরকার শনিবার কাবুলে নিযুক্ত পাক রাষ্ট্রদূত আবরার হুসাইনকে তলব করে আফগানিস্তানের পূর্বাঞ্চলীয় কয়েকটি প্রদেশে সা¤প্রতিক পাক গোলাবর্ষণের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানায়। পার্সটুডে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন