Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২০ জানুয়ারি ২০২১, ০৬ মাঘ ১৪২৭, ০৬ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

ফুলবাড়িয়ায় বইমেলা ও পিঠা উৎসব

| প্রকাশের সময় : ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭, ১২:০০ এএম

ফুলবাড়িয়া (ময়মনসিংহ) উপজেলা সংবাদদাতা : গত রোববার ফুলবাড়িয়া উপজেলা শিল্পকলা একাডেমির আয়োজনে অমর একুশে স্মরণে ৩ দিনব্যাপী বই মেলা ও পিঠা উৎসবের আয়োজন করা হয়েছে। উপজেলা নিবার্হী অফিসার লীরা তরফদারের সভাপতিত্বে শিল্পকলা প্রাঙ্গণে চলা উৎসবের উদ্বোধন ও আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি থেকে দুপুরে অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন স্থানীয় সাংসদ আলহাজ মো: মোসলেম উদ্দিন অ্যাডভোকেট। আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট মো: আজিজুর রহমান, জেলা পরিষদ সচিব বনানী বিশ্বাস, পৌর মেয়র গোলাম কিবরিয়া, উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি ফৌজিয়া সিদ্দিকা, উপজেলা শিক্ষা অফিসার জীবন আরা বেগম, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার নাসরিন আক্তার প্রমুখ । মেলায় বই এবং পিঠার ও স্টল মিলে ১৪টি স্টল অংশগ্রহণ করে। অনুষ্ঠান শুরুর পর শিশু থেকে শুরু করে সব বয়সের মানুষের বইয়ের দোকান এবং পিঠার স্টলে স্টলে ভিড় লক্ষ্য করা যায় । বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত জীবনীসহ বিভিন্ন মনীষীদের বইয়ের পাশাপাশি সব বয়সের শ্রেণির পাঠকদের জন্য গল্প, কবিতা, উপন্যাস, ভ্রমণ কাহিনীর বই লক্ষ করা যায় বইয়ের স্টলগুলোতে। এদিকে পিঠার স্টলগুলোতে দেশীয় পাকন পিঠা, পাটি সাপটা, নারিকেল পুলি, সেমাই পিঠা, সমাচা, মুঘ পাকন, এলোকেশি, ঝিনুক, তালের পিঠা, মরিচ এবং ভাপা পিঠাসহ হারিয়ে যাওয়া অনেক দুর্লভ পিঠার সমাহার নিয়ে পিঠার স্টল সাজানো হেেয়ছে । এ সময় উপজেলা শিক্ষা অফিসের আয়োজনে পিঠা উৎসব স্টলের দায়িত্বে থাকা দেওখলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা সেমিনা ইয়াসমিন বলেন, সকাল থেকে আমাদের বেশিরভাগ পিঠাই বিক্রি হয়ে গেছে, উপজেলা শিল্পকলার একাডেমির এই আয়োজনটি এক কথায় অসাধারণ ,নতুন প্রজন্ম ফেসবুক-টুইটারের যুগে আদতে আমাদের গ্রামীণ পিঠাগুলোর স্বাদ এবং এই সব পিঠার বিচিত্র নাম আজকাল ভুলেই গেছে। তাই আমাদের স্টলে প্রায় ৫০ প্রকারের পিঠার সমাহার সাজিয়ে এর স্বাদ এবং পরিচয় ঘটানোটাও অনেক বড় ভ‚মিকা রাখবে বলে আমি মনে করি । উদ্বোধন ও আলোচনা অনুষ্ঠান শেষে সন্ধ্যায় অতিথিরা জেলা পরিষদ সচিব বনানী বিশ্বাসের এবারের বই মেলায় প্রকাশিত প্রিয়তম বলছি তোমায় নামের কবিতার বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন এবং তার কন্ঠে কবিতা আবৃতি ও রবীন্দ্র সঙ্গীত শোনেন উৎসবে আগত দর্শকরা ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ