Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২০ জানুয়ারি ২০২১, ০৬ মাঘ ১৪২৭, ০৬ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

‘এফ’ ইউনিটের পুনঃভর্তি পরীক্ষা ১৬ মার্চ ইবিতে ভর্তি বাতিল হওয়া শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

| প্রকাশের সময় : ৮ মার্চ, ২০১৭, ১২:০০ এএম

ইবি সংবাদদাতা : ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষায় প্রশ্ন ফাঁসের ঘটনায় ‘এফ’ ইউনিটের পুনঃভর্তি পরীক্ষা আগামী ১৬ মার্চ সকাল ১০টায় অনুষ্ঠিত হবে। মঙ্গলবার সকাল ১০ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় ভর্তি পরীক্ষা কমিটির বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। এদিকে ভর্তি বাতিলের প্রতিবাদে মানববন্ধন করে অবস্থান কর্মসূচী পালন করেছে ওই ইউনিটের শিক্ষার্থীরা। ভর্তি পরীক্ষা কমিটি ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় চলতি বছরের ‘এফ’ ইউনিটের প্রশ্ন ফাঁস প্রমাণিত হওয়ায় ওই ইউনিটে ভর্তি হওয়া সকল শিক্ষার্থীর ভর্তি বাতিল করে কর্তৃপক্ষ। সোমবার বিশ্ববিদ্যালয়ের ২৩৩ তম সিন্ডিকেট সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। ‘এফ’ ইউনিটে আবারো ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণের জন্য মঙ্গলবার সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় ভর্তি পরীক্ষা কমিটি এক জরুরী সভা করে। সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আগামী ১৬ মার্চ সকাল ১০ টায় এক শিফটে পুনরায় এ ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষে ফলিত বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি অনুষদভুক্ত ‘এফ’ ইউনিটে আবেদনকারী ২৯৪৪ জন ভর্তিচ্ছু পরীক্ষার্থী পুনরায় ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে। ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত বিস্তারিত সকল তথ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট www.iu.ac.bd এ পাওয়া যাবে।
এদিকে ভর্তি পরীক্ষা বাতিলের প্রতিবাদে প্রশাসন ভবনের সামনে মানববন্ধন করে অবস্থান কর্মসূচী পালন করে ‘এফ’ ইউনিটের (গণিত ও পরিসংখ্যান বিভাগের) শিক্ষার্থীরা। মঙ্গলবার সকাল ৯ টার দিকে তারা এ মানববন্ধন শুরু করে। পরে সকাল ১০ টার দিকে শিক্ষার্থীদের প্রতিনিধি দল ছাত্র উপদেষ্টা প্রফেসর ড. আনোয়ারুল হক ও প্রক্টর প্রফেসর ড. মাহবুবর রহমানের সাথে দেখা করে। নাম প্রকাশ না করার শর্তে বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকজন শিক্ষক ও কর্মকর্তা বলেন, প্রশাসনের এই সিদ্ধান্তে নির্দোষ শিক্ষার্থীরাও সাজা ভোগ করছে। তারা কেন আবার পরীক্ষা দিবে। তাদের প্রতি প্রশাসন অবিচার করছে। শিক্ষার্থীদের ৮০ শতাংশ দ্বিতীয়বার পরীক্ষা দিয়ে চান্স পেয়েছে। এই পরীক্ষায় সুযোগ না পেলে তাদের জীবন শেষ হয়ে যাবে। সকলে সমান সাজা পেলে তদন্ত কমিটি করার কি প্রয়োজন ছিল। তারা প্রশাসনের কাছে ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত রেখে দোষীদের বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তি গ্রহণের জন্য অনুরোধ জানায়। উল্লেখ্য, ‘এফ’ ইউনিটভুক্ত গণিত বিভাগ ও পরিসংখ্যান বিভাগে এবছর ১০০ জন শিক্ষার্থী ভর্তি হয়। প্রশ্ন ফাঁসের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সিন্ডিকেট সভায় তাদের সকলের ভর্তি বাতিল করে পুনরায় ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মানববন্ধন

১১ জানুয়ারি, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ