Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৪ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

খান চানাচুরের মালিককে ৬ লাখ টাকা জরিমানা

| প্রকাশের সময় : ১৪ মার্চ, ২০১৭, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : ভেজাল ও নিম্নমানের সয়াবিন তেলে চানাচুর উৎপাদন এবং বাজারজাতের অপরাধে নিরাপদ খাদ্য আইনে খান চানাচুরের মালিক আবদুর রব খানকে ছয় লাখ টাকা জরিমানা করেছেন নিরাপদ খাদ্য আদালত। নিরাপদ খাদ্য আইনে কোনো আসামির বিরুদ্ধে এটাই সর্বোচ্চ জরিমানার রায়। গতকাল সোমবার বিশুদ্ধ খাদ্য আদালত-৩ এর বিচারিক মাহবুব সোবহানীর আদালতে খান চানাচুরের মালিক আবদুর রব খান ভেজাল ও নিম্নমানের সয়াবিন তেল ব্যবহার করে চানাচুর উৎপাদন ও বাজারে বিক্রির অপরাধ স্বীকার করেন।
বিচারিক আদালত স্বেচ্ছায় অপরাধ স্বীকার করায় নিরাপদ খাদ্য আইন ২০১৩ এর ২৫ ধারায় সামারি ট্রায়ালের মাধ্যমে আসামিকে দোষী স্বাব্যস্ত করে সর্বোচ্চ ছয় লাখ টাকা জরিমানার রায় দেন। রায় ঘোষণার পর আসামি তাৎক্ষণিকভাবে জরিমানার ছয় লাখ টাকা পরিশোধ করেন।
এই মামলার বাদী ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) নিরাপদ খাদ্য পরিদর্শক আবদুল খালেক মজুমদার এই বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, গত বছর ৩১ আগস্ট রাজধানীর ১০৪ রায়ের বাজারের খান চানাচুর উৎপাদকারী মালিক আবদুর রব খানের উপস্থিতিতে তার কারখানায় রক্ষিত সয়াবিন তেলের নমুনা সংগ্রহ করেন। পরে সংগ্রহীত ওই সয়াবিন তেল পরীক্ষা ও বিশ্লেষণের জন্য পাবলিক এনালিস্ট, জনস্বাস্থ্য পরীক্ষাগারে পাঠানো হয়। রাসায়নিক পরীক্ষায় ওই সয়াবিন তেল ভেজাল এবং জনস্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকারক বলে রিপোর্টে ধরা পড়ে।
ডিএনসিসিরি নিরাপদ খাদ্য পরিদর্শক বলেন, গত বছর ২৫ সেপ্টেম্বর এবং ৩ অক্টোবর খান চানাচুর উৎপাদনকারীকে পর পর দুইটি নোটিশ পাঠানো হয়। ওই প্রতিষ্ঠানের মালিক নিজে নোটিশ গ্রহণ করলেও নোটিশের সঠিক কোনো জবাব প্রদান করা হয়নি। ফলে তার বিরুদ্ধে ভেজাল সয়াবিন তেল চানাচুরসহ বিভিন্ন আইটেমের খাবার তৈরিতে ব্যবহার করায় নিরাপদ খাদ্য আইন ২০১৩ এর ২৫ ধারায় প্রথমে স্পেশাল মেট্রো পলিটন ম্যাজিস্ট্রেটের বিশুদ্ধ খাদ্য আদালত-১৯ এ মামলা দায়ের করা হয়।
পরবর্তীতে মামলাটি বিশুদ্ধ খাদ্য আদালত থেকে নিরাপদ খাদ্য আদালত-৩ এ স্থানান্তরিত হয়। কিন্তু আদালত আসামির জামিন আবেদন আমলে না নিয়ে তাকে কারাগারে প্রেরণ করেন। এ মামলায় আসামি টানা ২২দিন কারাগারে থাকেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: খান


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ