Inqilab Logo

শনিবার ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০৮ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী
শিরোনাম

কালভার্ট আছে সড়ক নেই

| প্রকাশের সময় : ২৫ মার্চ, ২০১৭, ১২:০০ এএম

রাণীশংকৈল (ঠাকুরগাঁও) উপজেলা সংবাদদাতা : ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে ১৫/১৬-১৬/১৭ অর্থবছরে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তরের আওয়াতায় উপজেলায় গ্রামীণ অবকাঠামোর উন্নয়নে ২ কোটি ৩৩ লাখ ৩১ হাজার ১৮১ টাকায় ১৪টি সেতু/কালভার্ট বরাদ্দ হয়। উপজেলার ৮ ইউনিয়নের বিভিন্ন রাস্তায় সেতু/কালভার্ট নির্মাণ প্রকল্পে বরাদ্দের টাকা যথাযথভাবে খরচ না করার অভিযোগ ওঠেছে। গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়নের নামে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ণ কর্মকর্তা জিয়াউর রহমান তার নিজের উন্নয়ন করেই চলছে। তিনি দুই-দুইবার একই স্টেশনে থেকে টিয়ার, কাবিখা, কাবিটা, সোলার ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তরের সেতু/কালভার্ট নির্মাণ প্রকল্পে ব্যাপক অনিয়ম দুর্নীতি করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, উপজেলার হোসেনগাঁও ইউনিয়নের কলিগাঁও নামক স্থানে ২৯ লাখ ৩৮ হাজার ৪৪০ টাকা ৭২ পয়সা ব্যয়ে বিলের মধ্যে রাস্তাবিহীন কালভার্ট নির্মাণে যৌক্তিকতার প্রশ্ন দেখা দিয়েছে? এছাড়াও বিভিন্ন স্থানে কালভার্ট নির্মাণে ব্যাপক অনিয়ম দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে। এ ব্যাপারে কলিগাঁও গ্রামের আলমগীর, রব্বানী, জিয়াউর রহমান, সারওয়ালসহ আরো অনেকে জানান, রাস্তাবিহীন বিলের মধ্যে কালভার্ট নির্মাণ করেছে। অভিযোগকারীরা বলেন, কালভার্টের পূর্বদিকে প্রায় ৫শ’ গজ পর আর রাস্তা নেই। বিলের মধ্যখানে থমকে গেছে রাস্তাটি। রাস্তাবিহীন বিলের মাঝখানে সেতুটি অবস্থান করছে। এ প্রসঙ্গে জেলা ত্রাণ কর্মকর্তা বলেন, পুরো বিষয়টি সংশ্লিষ্ট পিআইও এবং ইউএনও স্যার বলতে পারবেন। এবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা খন্দকার মোহাঃ নাহিদ হাসানের সঙ্গে মুঠোফোনে গত শনিবার যোগাযোগ করে তাকে পাওয়া যায়নি। সংশ্লিষ্ট চেয়ারম্যান মাহাবুব আলম বলেন, বাকি সড়কটুকু ধান কাটার পর হয়ে যাবে। উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তাকে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করে পাওয়া যায়নি। ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে গ্রামীণ অবকাঠামো (টি, আর) কর্মসূচি ২য় পর্যায়ের প্রকল্প বাস্তবায়নে চেয়ারম্যান/মেম্বারদের জিম্মি করা হয়েছে। রাণীশংকৈল প্রকল্প অফিসার তার মনগড়া আইন চালু করে। সোলার প্রকল্পে ২৯ হাজার ২শ’ টাকা দেখানো হয়। অথচ বাজারে ওই সোলারের মূল্য ১৪ হাজার ২শ’ টাকা মাত্র, বললেন ইউপি চেয়ারম্যান আবু সুলতান। তিনি আরো বলেন, প্রজেক্ট আমার, কমিটি আমার, অথচ প্রকল্প অফিসার ইচ্ছে মত চেয়ারম্যান মেম্বারদের কুলূরবলদ বানিয়ে প্রকল্পগুলো বাস্তবায়ন করছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কালভার্ট

৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২২
৫ জানুয়ারি, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন