Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৯, ০২ কার্তিক ১৪২৬, ১৮ সফর ১৪৪১ হিজরী

রুয়েটের চিকিৎসা সেবা ৩ ডাক্তারেই!

| প্রকাশের সময় : ২৮ মার্চ, ২০১৭, ১২:০০ এএম

নাছরুল ইসলাম নাবিল, রাবি থেকে : শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ প্রায় সাড়ে চার হাজার লোকের চিকিৎসা সেবা প্রদানের জন্য রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রুয়েট) নিযুক্ত রয়েছে মাত্র তিনজন ডাক্তার ও দুইজন নার্স। ফলে জ্বর-সর্দির বাইরে চিকিৎসা নিতে গেলেই পাঠানো হয় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। নাপা, প্যারাসিটামলের মতো নিম্নমানের ওষুধ ছাড়া মানসম্মত কোন ওষুধও নেই সেখানে। এ রকম নামমাত্র চিকিৎসা সেবায় প্রতিনিয়তই ভোগান্তিতে পড়েন রোগীরা। উন্নত যন্ত্রপাতি, অ্যাম্বুলেন্স ও জনবল সংকটও চরমে। এ নিয়ে বার বার অভিযোগ দিয়েও কোন সুফল পায়নি শিক্ষার্থীরা। তবে চিকিৎসা সেবার ব্যর্থতার কথা স্বীকার করে অতিদ্রæত ডাক্তারসহ অন্য জনবল নিয়োগের মাধ্যমে এই সমস্যার সমাধানের আশ্বাস দিয়ে যাচ্ছেন প্রশাসন।
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, রুয়েটের চিকিৎসা কেন্দ্র খোলা থাকে শনি থেকে বৃহঃ সকাল সাড়ে সাতটা থেকে রাত দশটা পর্যন্ত। এছাড়া ছুটির দিনেও বন্ধ থাকে চিকিৎসা কেন্দ্র। এতে করে শিক্ষার্থীদের সেবা নিতে গেলে সময়-তারিখ দেখেই যেতে হয়, বন্ধের দিনে বা রাতের বেলায় সেবা পাওয়া যায় না। অন্যদিকে নির্ধারিত সময়ে গেলেও জ্বর-সর্দি, মাথা ব্যথা ও শারীরিক দুর্বলতার প্রথমিক সেবার বাইরে কোন চিকিৎসা দেয়া হয় না। নেই কোন কোন আধুনিক যন্ত্রপতি।
এছাড়া প্রায় সাড়ে চারহাজার মানুষের চিকিৎসার জন্য মাত্র রয়েছে একটি অ্যাম্বুলেন্স। অ্যাম্বুলেন্স একটি থাকায় নষ্ট হলে বিশ্ববিদ্যালয়ের ‘মাইক্রোবাস’কে অ্যাম্বুলেন্স হিসেবে ব্যবহার করা হয়।
ইলেকট্রিককাল এন্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৬ষ্ঠ সেমিস্টারের শিক্ষার্থী লাফিসা তাসনিম ও হাসিন রেহেনা বলেন, আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ের শুধুমাত্র প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদান করা হয়। ফলে কোন টেস্ট বা বড় কোন ধরনের চিকিৎসা সেবা পেতে আমাদের বাইরে যেতে হয়।’
সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৭ম সেমিস্টারের শিক্ষার্থী মেহেদী হাসান বলেন, ‘আমরা প্রত্যাশা অনুযায়ী চিকিৎসা পাচ্ছি না। তাই চাইবো প্রশাসন আধুনিক চিকিৎসার মান নিশ্চিত করতে যে পদক্ষেপগুলো নেয়্ াদরকার তা যেন গ্রহণ করে।’ জনবল কম থাকায় চিকিৎসা সেবায় অসুবিধা হচ্ছে স্বীকার করে রুয়েট চিকিৎসা কেন্দ্রর প্রধান মেডিকেল অফিসার ড. মোকসেদ আলী বলেন, কম জনবল আর আধুনিক পরীক্ষা যন্ত্রপতি না থাকার কারণে চাইলেও চিকিৎসার মান বৃদ্ধি করা সম্ভব হচ্ছে না। তবে আমরা চিকিৎসা কেন্দ্র আধুনিকায়নের প্রক্রিয়ার হাতে নেয়া হয়েছে। অতি দ্রুত রুয়েট চিকিৎসা কেন্দ্র তিন তলা বিশিষ্ট নতুন ভবন তৈরি করা হবে। যেখানে আধুনিক সেবা নিশ্চয়তার পাশাপাশি সব ধরনের পরীক্ষা করা হবে।
রুয়েট ভিসি প্রফেসর ড. মোহা: রফিকুল আলম বেগ বলেন, ‘রুয়েট চিকিৎসা সেবা উন্নয়নে ‘একনেকে’ একটি বাজেট পাস হয়েছে। নতুন বিশ্ববিদ্যালয় ইউজিসির অনুমোদনেরও ব্যাপার আছে, তাদের অনুমোদন পেলেই ডাক্তার নিয়োগ দেয়া সম্ভব হবে বলে জানান তিনি।’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: রুয়েট

১৮ আগস্ট, ২০১৯
১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৮

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ