Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৮, ০৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী

আইসিসি স্বীকৃতির অপেক্ষায় লাহোর ল্যাব

| প্রকাশের সময় : ১৪ এপ্রিল, ২০১৭, ১২:০০ এএম

স্পোর্টস ডেস্ক : বোলিং অ্যাকশন নিয়ে সবচেয়ে বেশি বুঝি ভুগতে হয়েছে পাকিস্তানকেই। ১৯৬০-৬১ মওশুমে সর্বপ্রথম দেশটির হয়ে অবৈধ বোলিং অ্যাকশনের ফাঁদে পড়েন হাসিব আহসান। তখন নিষিদ্ধের ঘটনা না ঘটলেও এই অপরাধে আজ আর পার পাচ্ছেন না ক্রিকেটাররা। পাকিস্তানের হয়ে অবৈধ বোলিং অ্যাকশনের দায়ে নিষিদ্ধ হতে হয়েছে শোয়েব আকতার, সাব্বির আহমেদ, মোহাম্মদ হাফিজ, সাঈদ আজমলদের। বিভিন্ন মেয়াদের সাজা খেটে অ্যাকশন শুধরে নিয়ে ফিরেছেন ক্রিকেটে। তবে তার জন্য অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড কিংবা ভারতের দ্বারস্তও কম হতে হয়নি তাদের। অবশেষে নিজেদের দেশের মাটিতেই অ্যাকশন শুধনে নেবার সুযোগ পাচ্ছে পাকিস্তানের ক্রিকেটারতো বটেই, বিশ্বের অন্য কোন ক্রিকেটারও যদি চান এখান থেকে পরীক্ষা দিতে পারবেন। ক্রিকেটার ভারতের মতো অনেক আগেই পাকিস্তানে বসেছিল ত্রুটিপূর্ণ বোলিং অ্যাকশন নির্ধারণের আধুনিক ল্যাব। বাকি শুধু ছিল অনুমোদন। লাহোরের ইউনিভার্সিটি অব ম্যানেজমেন্ট সায়েন্সে (এলইউএমএস) স্থাপন করা এই বায়োমেকানিক প্রযুক্তিকে ইতোমধ্যেই সবুজ সঙ্কেত দেয়ার ব্যাপারে ইঙ্গিত দিয়েছে বিশ্ব ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিসি। অনুমোদন পেতে প্রযুক্তিগত ও দক্ষতাগত সব কিছুই পূরণ করেছে ওই বিশ্ববিদ্যালয়ে স্থাপিত এই সুবিধাটি। যাতে রয়েছে গতি রেকর্ড করার জন্য অত্যাধুনিক ১৬টি ইনফ্রারেড ক্যামেরা ও দুটি হাই স্পিড ভিডিও ক্যামেরা। যা আইসিসির সুপারিশ মেনেই করা হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ