Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২৬ জুন ২০১৭, ১২ আষাঢ়, ১৪২৪, ০১ শাওয়াল ১৪৩৮ হিজরী

সাক্কুর গ্রেফতারি পরোয়ানায় সরকারের হস্তক্ষেপ নেই -ওবায়দুল কাদের

| প্রকাশের সময় : ২১ এপ্রিল, ২০১৭, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার, কুমিল্লা থেকে : কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের (কুসিক) মেয়র মনিরুল হক সাক্কুর বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশনের করা মামলায় গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির বিষয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, এটা আদালত ও দুদকের বিষয়। আওয়ামী লীগের কয়েকজন এমপি-মন্ত্রীর বিরুদ্ধেও দুদকের মামলা রয়েছে। কক্সবাজারের এমপি আবদুর রহমান বদির বিরুদ্ধেও দুদকের মামলা রয়েছে। সাক্কুর বিষয়টিও পুরোপুরি দুদক ও আদালতের বিষয়। সাক্কুর বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানায় সরকারের কোনো হস্তক্ষেপ নেই।
গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লার পদুয়ারবাজার ফুটওভার ব্রিজ উদ্বোধনকালে তিনি সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন। কুমিল্লা সিটি নির্বাচন প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের আরো বলেন, নারায়ণগঞ্জের ধারাবাহিকতায় কুমিল্লায়ও সুষ্ঠু নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। আমাদের লক্ষ্য ছিল নির্বাচন অবাধ এবং নিরপেক্ষ করা। এখন এখানে যিনি মেয়র হয়েছেন তার বিরুদ্ধে যদি মামলা থাকে এবং ওই মামলায় আদালত গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন তাহলে আমাদের কিছুই করার নেই। বিষয়টি সম্পূর্ণ আদালতের এখতিয়ার ভুক্ত।
ওবায়দুল কাদের বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশে এখন পূর্ণ গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। কিছুদিন আগে এই দেশেই আইপিও সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। দেশে যদি গণতন্ত্র না থাকত তাহলে আইপিও সম্মেলনের জন্য তারা বাংলাদেশকে বেছে নিতেন না। ওবায়দুল কাদের বিএনপির প্রসঙ্গে বলেন, কারফিউ গণতন্ত্রের মাধ্যমে বিএনপি তাদের রাজনীতি শুরু করেছে। এখন দলটি গণতন্ত্র উদ্ধার করতে চাইছে। মানুষ পুড়িয়ে তো গণতন্ত্র উদ্ধার করা যায় না। গণতান্ত্রিক দেশে বিএনপি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবে এটা তাদের সাংবিধানিক অধিকার। গত সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করে বিএনপি যে ভুল করেছিল এবার তারা সেই ভুলের পুনরাবৃত্তি করবে না বলে আমার বিশ^াস।
ফুট ওভারব্রিজ উদ্বোধনের সময় ঢাকা-চট্টগ্রাম চারলেন প্রকল্প পরিচালক আফতাব হোসেন খান, প্রকল্প ব্যবস্থাপক মাসুম সারওয়ার, সওজ-কুমিল্লার তত্ত¡াবধায়ক প্রকৌশলী কে এম আতিকুল হক, নির্বাহী প্রকৌশলী মো. সাইফ উদ্দিনসহ সওজ ও চারলেন প্রকল্পের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

 


Show all comments
  • ২১ এপ্রিল, ২০১৭, ১:২৩ এএম says : 1
    আওয়ামীলীগের .............
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammed Shah Alam Khan ২১ এপ্রিল, ২০১৭, ৭:২৬ এএম says : 0
    সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এএল এর সাধারন সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন সরকারি দলের মন্ত্রী ও সাংসদদের বিরুদ্ধেও দুদকের মামলা রয়েছে। কক্সবাজারের এমপি আবদুর রহমান বদির বিরুদ্ধেও দুদকের মামলা রয়েছে। সাক্কুর বিষয়টিও পুরোপুরি দুদক ও আদালতের বিষয়। সাক্কুর বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানায় সরকারের কোনো হস্তক্ষেপ নেই। আমি মনে করি এটাই হওয়া উচিৎ। তবে প্রশ্ন আসবেই কারন এতবছর মামলা চলছে কোন গ্রেফতারী পরওয়ানা ছাড়া। এখন হঠাত করে গ্রফতারি পরোয়ানা জারি সন্দেহের সৃষ্টি করে। আমি আশাকরি দুদুকের এই মামলার উছিলা ধরে তাকে যেন আবার মন্ত্রনালয় থেকে বরখাস্ত করা না হয়। মামলা আছে এটা সত্য এবং মামলা চলবে এটাই সত্য; যতক্ষন না মামলায় প্রমানিত হচ্ছে যে, তিনি দোষী ততক্ষণ তাকে বরখাস্ত করা যাবে না। এএল এর জিএস আরো বলেছেন বিএনপি গত নির্বাচনে না গিয়ে মস্ত বড় ভুল করেছিল। এবারও যদি তারা গণতন্ত্রের শর্ত নির্বাচন করা; এটা না মেনে নির্বাচন বয়কট করে তাহলে সেটা বিএনপির জন্য মহা দূর্যোগ বয়ে আনবে এটাই সত্য। আমি অবশ্যই কাদের সাহেবের এই কথাগুলো বিশ্বাস করি। আল্লাহ্‌ আমাদের দেশের রাজনীতিবিদদেরকে সঠিক পথে থেকে সুস্থ রাজনীতি করার তৌফিক দান করুন। আমীন
    Total Reply(0) Reply
  • S. Anwar ২১ এপ্রিল, ২০১৭, ৯:০৩ এএম says : 0
    সরকারের হস্তক্ষেপের কি দরকার? একটা হুকুম নিক্ষেপ করে দিলেইতো কাজ হয়ে যায়।
    Total Reply(0) Reply
  • Md Monir ২১ এপ্রিল, ২০১৭, ২:২০ পিএম says : 0
    ঠাকুর ঘরে কে,,আমি কলা খাই না।
    Total Reply(0) Reply
  • -কামাল উদ্দিন ২১ এপ্রিল, ২০১৭, ১১:৫১ পিএম says : 0
    -সমস্যার গোড়ায় কেউ হাত দিচ্ছে না। সমস্যার মূলে হলো ৫ই জানুয়ারীর বিতর্কিত নির্বাচন । একটি মিমাংসিত বিষয় 'নির্বাচনকালীন তত্বাবধায়ক সরকার' পদ্ধতি কেন বাদ দেয়া হলো ? অধিকাংশ রাজনৈতিক দলকে কেন নির্বাচন কমিশন নির্বাচনে অানতে পারলো না? জনগন কেন সঠিকভাবে ভোটাদিকার প্রয়োগ করতে পারলো না ? সুতরাং, সমস্যার গোড়ায় হাত না দিয়ে সমাধানের চেষ্টা করলে মনে হয় সফলকাম হবে না। এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট সকলকে অান্তরিক হয়ে অাগাতে হবে। মনে রাখতে হবে সুষ্ঠ, অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের দাবী করা কোন অপরাধ না।
    Total Reply(0) Reply
  • -কামাল উদ্দিন ২১ এপ্রিল, ২০১৭, ৯:১৯ পিএম says : 0
    মন্ত্রী,এমপিরা ও ব্যাংকের শীর্ষ কর্মকর্তাদের দুর্নীতিতেই ব্যাংকিং খাত শেষ হচ্ছে।ব্যাংকিং খাতে কেলেঙ্কারির ঘটনায় জড়িত কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হয়নি। দুর্নীতি মামলা থেকে খালাস পেলেন এরশাদসহ সব আসামি। আর দুদক বিএনপির নির্বাচিত জনপ্রতির্নীধিদের বিরুদ্ধে দুর্নীতির দায় চাপাইয়া হাজার হাজার মামলা করে অবৈধ ও অনির্বাচিত জনবিচ্ছিন্ন সরকারের দুর্নীতি চাপা দেওয়ার চেষ্টা চলছে l দুদকের মামলায় দোষী প্রমানিত হবার আগে মামলার উছিলায় তাদেরকে মন্ত্রনালয় থেকে বরখাস্ত করা হচ্ছে। নির্বাচন নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নিজেই বলেছেন, তিনি আর প্রশ্নবিদ্ধ নির্বাচন চান না। অতিমাত্রায় পাপ করলে পাপ লুকানো যায় না।‘২০১৪ সালের নির্বাচনের পর শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ভালো নির্বাচন হবে—উন্মাদও এটা বিশ্বাস করে না।’ ওবায়দুল কাদের বিশ্বাস করতে পারেন, কিন্তু জনগণ করবে না।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর