Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১০ এপ্রিল ২০২০, ২৭ চৈত্র ১৪২৬, ১৫ শাবান ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

ঐশীকে মৃত্যুদণ্ডের পরিবর্তে যাবজ্জীবন

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৫ জুন, ২০১৭, ১২:২৫ পিএম

স্টাফ রিপোর্টার : রাজধানীর চামেলীবাগে স্ত্রীসহ পুলিশের পরিদর্শক মাহফুজুর রহমান হত্যা মামলায় তাঁদের মেয়ে ঐশী রহমানকে মৃত্যুদণ্ড পরিবর্তন করে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডাদেশ দিয়েছেন উচ্চ আদালত।

আজ সোমবার বিচারপতি জাহাঙ্গীর হোসেন সেলিম ও বিচারপতি মো. জাহাঙ্গীর হোসেনের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ রায়ে এই আদেশ দেন।

আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে শুনানিতে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল জহিরুল হক জহির ও সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল আতিকুল হক সেলিম। ঐশীর পক্ষে শুনানিতে অংশ নেন আইনজীবী সুজিত চ্যাটার্জি বাপ্পী।

২০১৩ সালের ১৬ আগস্ট চামেলীবাগের বাসা থেকে পুলিশ কর্মকর্তা মাহফুজুর রহমান ও তাঁর স্ত্রীর ক্ষতবিক্ষত লাশ উদ্ধার করা হয়। পরদিন মাহফুজের ভাই মশিউর রহমান ওই ঘটনায় পল্টন থানায় হত্যা মামলা করেন। ওই দিনই ঐশী পল্টন থানায় আত্মসমর্পণ করেন।

এই মামলায় ২০১৫ সালের ১২ নভেম্বর ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল রায় দেন। রায়ে ঐশীকে মৃত্যুদণ্ড ও তাঁর বন্ধু মিজানুর রহমানকে দুই বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়।

একই বছরের ১৯ নভেম্বর নিম্ন আদালতের রায়সহ নথিপত্র হাইকোর্টে আসে। পরে তা ডেথ রেফারেন্স হিসেবে নথিভুক্ত হয়। ওই বছরের ৬ ডিসেম্বর খালাস চেয়ে হাইকোর্টে আপিল করেন ঐশী। অগ্রাধিকার ভিত্তিতে এ মামলার পেপারবুক (মামলাবৃত্তান্ত) প্রস্তুতের পর ওই বেঞ্চে মামলাটি শুনানির জন্য আসে। গত ১২ মার্চ এসবের ওপর শুনানি শুরু হয়, ৭ মে শুনানি শেষ হয়।



 

Show all comments
  • palash ৫ জুন, ২০১৭, ২:০১ পিএম says : 0
    rai k somton korlam
    Total Reply(0) Reply
  • ৫ জুন, ২০১৭, ৩:০০ পিএম says : 0
    সাজাটা মোটামুটি ভাল হয়েছে।
    Total Reply(0) Reply
  • Nur- Muhammad ৫ জুন, ২০১৭, ৪:১৯ পিএম says : 0
    আমাদের আদালত ন্যায়ের প্রতীক। তাই ঐশি প্রানে বেঁচে গেলো। ঐশিকে যারা ঐশি বানালো, মাদকাসক্ত করলো, তাদের কি বিচার হবে না। ঐশি প্রতি মাসে ২ লক্ষ টাকা খরচ করছে। এত গুলি টাকা ঐশির বাবা মা ই তাকে দিয়েছে। খরচের জন্য এতগুলি টাকা দেওয়া মা বাবা র কি নৈতিকতার মধ্যে পড়ে। শুধু মেয়ের খরচের জন্য এত টাকা ব্যায় করলে, এই দন্পতির আয় কত ছিল। আবশ্য ই তাদের বৈধ আয় এত ছিল না। তাই যারা ঐশি তৈরী করে, তাদের ব্যাপারে মহামান্য আদালতকে স্বপ্রনোদিত হয়ে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য অনুরোধ করছি। আদালতের প্রতি রইল শ্রদ্ধা ও বিশ্বাস। পৃথিবীতে ঐশি নয়, বাইজিদ বোস্তামির মত সন্তান আসুক, এই কামনা করছি। মহামান্য আদালতকে ধন্যবাদ। সবায়কে ধন্যবাদ।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ