Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২১, ০৪ মাঘ ১৪২৭, ০৪ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

সর্বোচ্চ অবস্থানে ডিএসইর প্রধান সূচক

| প্রকাশের সময় : ৬ জুলাই, ২০১৭, ১২:০০ এএম

অর্থনৈতিক রিপোর্টার: দেশের শেয়ারবাজারে টানা ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতা অব্যাহত থাকায় রেকর্ড অবস্থানে চলে এসেছে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স। অতীতের সব রেকর্ড ভেঙে বুধবার সর্বোচ্চ অবস্থানে পৌঁছেছে সূচকটি।
সপ্তাহের চতুর্থ কার্যদিবস বুধবার ডিএসই এবং অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) টানা তিন কার্যদিবস মূল্যসূচক বেড়েছে। আর শেষ ১০ কার্যদিবসের মধ্যে ৯ দিনই বেড়েছে সূচক। এই ৯ দিনে ডিএসইর প্রধান সূচক বেড়েছে ৩২২ পয়েন্ট। এমন টানা ঊর্ধ্বমুখীতার প্রভাবে ডিএসইএক্স সূচক প্রায় ৫ হাজার ৮শ’ পয়েন্টে পৌঁছেছে।
বুধবার ডিএসইর প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স ২২ পয়েন্ট বেড়ে ৫ হাজার ৭৮২ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। এর আগে চলতি বছরের ৪ এপ্রিল ডিএসইএক্স সর্বোচ্চ অবস্থানে ছিল। ওই দিনের লেনদেন শেষে ডিএসএক্স ৫ হাজার ৭৭৭ পয়েন্টে দাঁড়ায়। প্রধান মূল্যসূচকের সঙ্গে ডিএসইতে বেড়েছে অপর দুটি সূচকও। ডিএসই-৩০ সূচক ৬ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ১২০ পয়েন্টে। আর ডিএসই শরিয়াহ্ সূচক ৩ পয়েন্ট বেড়ে ১ হাজার ৩১৭ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।
মূল্যসূচক বাড়ার পাশাপাশি দাম বেড়েছে ডিএসইতে লেনদেন হওয়া বেশির ভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের। লেনদেন হওয়া ১৪৮টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম আগের দিনের তুলনায় বেড়েছে। অপরদিকে কমেছে ১৩৬টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৫টির দাম।
বুধবার ডিএসইতে মূল্যসূচক ও লেনদেন হওয়া বেশির ভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম বাড়লেও কিছুটা কমেছে লেনদেনের পরিমাণ। ডিএসইতে মোট ১ হাজার ১৬৪ কোটি ৯২ লাখ টাকার শেয়ার হাতবদল হয়েছে। আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয় ১ হাজার ২২৩ কোটি ৭৪ লাখ টাকার শেয়ার। সে হিসাবে লেনদেন কমেছে ৫৮ কোটি ৮২ লাখ টাকা।
টাকার অঙ্কে ডিএসইতে সর্বাধিক লেনদেন হয়েছে বারাকা পাওয়ারের শেয়ার। কোম্পানিটির ৪৪ কোটি ৪৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। দ্বিতীয় স্থানে থাকা কেয়া কসমেটিকের শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৩৩ কোটি ১৫ লাখ টাকার। ৩১ কোটি ৩৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনে তৃতীয় স্থানে রয়েছে লংকাবাংলা ফাইন্যান্স। লেনদেনে এরপর রয়েছে- প্যারামাউন্ট টেক্সটাইল, রিজেন্ট টেক্সটাইল, ব্র্যাক ব্যাংক, ফুয়াং ফুড, সাইফ পাওয়ার, মার্কেন্টাইল ব্যাংক এবং প্রাইম ব্যাংক।
দর বৃদ্ধির শীর্ষে প্রধান ১০টি কো¤পানি হলো: ন্যাশনাল হাউজিং, ইন্টারন্যাশনাল লিজিং, স্ট্যান্ডার্ড সিরামিকস, কেয়া কসমেটিকস্, ইসলামি ইন্সুরেন্স, রিলায়েন্স ইন্সুরেন্স, সায়হাম কটন, ফু-ওয়াং ফুড, সিএপিএম বিডিবিএল মি. ফা. ও বারাকা পাওয়ার। দাম কমার শীর্ষে প্রধান ১০টি কো¤পানি হলো: বীচ্ হ্যাচারী, বিডি ওয়েল্ডিং, লিগেসী ফুটওয়্যার, বিডি অটোকারস, রিপাবলিক ইন্সুরেন্স, আইএসএন লিঃ, মেঘনা কনডেন্সড মিল্ক, এমারেল্ড অয়েল, জেমীনি সী ফুড ও মেঘনা পেট।
এদিকে দেশের অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) এদিন সিএসসিএক্স সূচক ২৯ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১০ হাজার ৮২৪ পয়েন্টে। বাজারটিতে ২৫৬টি প্রতিষ্ঠানের মোট ৬৯ কোটি ৩৯ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড লেনদেন হয়েছে। এরমধ্যে ১২৬টির প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের দাম বেড়েছে। অপরদিকে কমেছে ১০১টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২৯টির দাম।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ