Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৭ জুলাই ২০১৭, ১২ শ্রাবণ, ১৪২৪, ০২ যিলকদ ১৪৩৮ হিজরী

ইইউ ছাড়াই তুরস্ক নিজের পায়ে দাঁড়াতে সক্ষম

| প্রকাশের সময় : ১৩ জুলাই, ২০১৭, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) তুরস্ককে সদস্য হিসেবে গ্রহণ না করার ঘোষণা দিলে সেটা হবে আঙ্কারার জন্য স্বস্তিদায়ক। ইইউ তুরস্কের সময় নষ্ট করছে। তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এ কথা বলেছেন। তিনি বলেছেন, ইউরোপীয় ইউনিয়নের সাহায্য ছাড়াই তুরস্ক নিজের দুই পায়ে দাঁড়াতে সক্ষম। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোগান বলছেন, মুসলিমরা মুসলিমদের হত্যা করুক এটা তার দেশ কখনোই চাই না। কাতার সংকট প্রসঙ্গে বিবিসির হার্ডটক অনুষ্ঠানে এক প্রশ্নের উত্তরে এরদোগান বলেন, মুসলমানদের মধ্যে পারস্পরিক সংঘাত দেখতে দেখতে তারা ক্লান্ত-বিরক্ত হয়ে পড়েছেন। এরদোগান বলেন, ইয়েমেনে যা হচ্ছে সেটা আমরা দেখতে চাই না... ফিলিস্তিন এবং লিবিয়াতে যা ঘটছে সেটা আমরা দেখতে চাই না। সিরিয়াতে কী ঘটছে সেটা সবাই জানে। ইরাকে কী হচ্ছে সেটা সবার কাছে পরিস্কার। এসব ঘটনার মূল্য দিতে হচ্ছে তুরস্ককে। আমরা এসব চাই না। সে জন্যই তুরস্ক কাতারের পাশে দাঁড়িয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করেন। কাতারের উপর অবরোধ প্রত্যাহারের জন্য সউদী আরবের নেতৃত্বে দেশগুলো যেসব শর্ত দিয়েছে তার মধ্যে অন্যতম হচ্ছে কাতার থেকে তুরস্কের সেনা ঘাঁটি প্রত্যাহার করা। কিন্তু সেটি না করে তুরস্ক কাতারে আরো সৈন্য পাঠিয়েছে। কাতারকে কেন্দ্র করে যে অস্থিরতা চলছে সেটি আরো দ্ব›েদ্ব রূপ নিতে পারে কী-না? এমন প্রশ্নে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট পশ্চিমা দেশগুলোর ভূমিকাকে দায়ী করে এরদোগান বলেন, দেখুন, আপনি আমাকে এ প্রশ্ন করছেন। আপনি এ প্রশ্ন আমেরিকাকে কেন করছেন না? আপনি এ প্রশ্ন ফ্রান্সকে কেন করছেন না? আপনি এ প্রশ্ন ইংল্যান্ডকে কেন করছেন না? তুরস্কের প্রেসিডেন্ট বলেন, তার দেশ কোন দ্ব›েদ্বর অংশ হতে চায় না। তারা উপসাগরীয় অঞ্চলে শান্তি ও স্থিতিশীলতা রক্ষার জন্য আলোচনার উপর গুরুত্ব দিতে চায়। সে জন্য একটি সমাধানে পৌঁছতে তুরস্ক দ্রæত একটি সমাধানে পৌঁছতে চায়। আরেক প্রশ্নের জবাবে এরদোগান বলেন, ইউরোপীয় ইউনিয়ন যদি তুরস্ককে অন্তর্ভুক্ত নাও করে তাহলে তাদের কোন সমস্যা নেই। কারণ দেশ হিসেবে তুরস্ক নিজের পায়ে দাঁড়াতে সক্ষম। এরদোগান অভিযোগ করেন, ইউরোপীয় ইউনিয়নে অন্তর্ভুক্তির জন্য আলোচনার নামে সময় নষ্ট হয়েছে। এরদোগান বলেন, আমরা আমাদের বিশ্বের প্রতি অনুগত। ইউরোপীয় ইউনিয়ন যদি আমাদের পরিষ্কারভাবে জানিয়ে দেয় যে তারা তুরস্ককে সেখানে অন্তর্ভুক্ত করবে না, তাহলে আমরা ভিন্ন পরিকল্পনাগুলো বাস্তবায়ন করবো। ইউরোপীয় ইউনিয়ন তুরস্কের জন্য অপরিহার্য নয় বলে মন্তব্য করেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট। তুরস্কের অধিকাংশ মানুষ এখন ইউরোপীয় ইউনিয়নে অন্তর্ভুক্ত হতে চায় না বলে তিনি মনে করেন। কারণ তুরস্কের প্রতি ইউরোপীয় ইউনিয়নের দৃষ্টিভঙ্গি আন্তরিক নয় বলেও এরদোগান উল্লেখ করেন। বিবিসি।

 


Show all comments
  • palas ১৩ জুলাই, ২০১৭, ৪:২৯ এএম says : 1
    In Sha Allah, they can do it
    Total Reply(0) Reply
  • রকিব ১৩ জুলাই, ২০১৭, ৫:১৬ এএম says : 1
    এরদোগানের মত নেতা থাকলে যেকোন দেশই অনেক কিছু করতে পারবে।
    Total Reply(1) Reply
    • Habib ১৩ জুলাই, ২০১৭, ৫:১৬ এএম says : 0
      i agree with you
  • Mohammod Rahman ১৩ জুলাই, ২০১৭, ৫:২২ এএম says : 0
    It is true
    Total Reply(0) Reply
  • Yeashin Samad ১৩ জুলাই, ২০১৭, ৫:২২ এএম says : 0
    ইনশাআল্লাহ পারবে
    Total Reply(0) Reply
  • Zakir Hossen ১৩ জুলাই, ২০১৭, ৫:২৩ এএম says : 0
    May Allah bles u...
    Total Reply(0) Reply
  • Saiful khan ১৩ জুলাই, ২০১৭, ৮:৫৩ পিএম says : 0
    এরদোগান এর মতন নেতা কি বাংলাদেশে আছে?
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর