Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ২১ অক্টোবর ২০১৭, ০৬ কার্তিক ১৪২৪, ৩০ মুহাররম ১৪৩৯ হিজরী

নিজের কাজটা করে যেতে চান রুবেল

| প্রকাশের সময় : ১৩ আগস্ট, ২০১৭, ১২:০০ এএম

স্পোর্টস রিপোর্টার : নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ক্রাইস্টচার্চের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টে খেলেছিলেন রুবেল হোসেন। এরপর ভারত ও শ্রীলঙ্কা মিলিয়ে বাংলাদেশ আরও তিন টেস্ট খেললেও কোনটিতেই ছিলেন না এই পেসার। যদিও সীমিত ওভারের ক্রিকেটে নিয়মিতই পারফরম করেছেন তিনি। শ্রীলঙ্কা সিরিজে সব ম্যাচ খেলা না হলেও আয়ারল্যান্ডের ত্রিদেশীয় সিরিজ ও চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে নিয়মিত ছিলেন একাদশে। সীমিত ওভারের মতো টেস্টেও নিয়মিত হতে চান রুবেল। আর এ জন্য কঠোর পরিশ্রম করে যাওয়ার এই পেসারের বিশ্বাস সুযোগ আসবেই।
এই মুহূর্তে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে দুই টেস্টের সিরিজ খেলতে নিজেকে প্রস্তুত করছেন অভিজ্ঞ এই পেসার। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সুযোগ না পেলেও লড়াই চালিয়ে যাবেন বলে জানিয়েছেন কিউইদের বিপক্ষে শেষ টেস্ট খেলে বাদ পড়া রুবেল। ২৪ টেস্ট খেলা রুবেল আপাতত নিজের কাজেই বেশি মনোযোগী। তিনি চেষ্টা করে চলছেন সাদা পোশাকেও নিয়মিত হওয়ার। তার বিশ্বাস পরিশ্রম করলে সাফল্য আসবেই, ‘দলে প্রতিযোগিতা আছে এবং থাকবে, এখানে আমিও একজন প্রতিযোগী। চেষ্টা থাকে সবসময়ই ভালো কিছু করার। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টেস্ট সুযোগ পেলে সেখানেও চেষ্টা করব নিজের সামর্থ্যরে পুরোটা দিতে। আমি জানি পরিশ্রমই আমাকে সাফল্য এনে দেবে।’
ইংল্যান্ড থেকে ফেরার আগের দিন দুর্ঘটনার শিকার হন রুবেল। আইসিসি চ্যাম্পিয়নস ট্রফির সেমিফাইনালে ভারতের বিপক্ষে ম্যাচ শেষে টিম মিটিং করে হোটেলে ফেরার পর রুমের দরজায় ধাক্কা খান তিনি। যার কারণে বাঁ চোখ আর কানের মাঝখানের হাড়ই সরে যায় ডানহাতি এই পেসারের। আর সে কারণেই কন্ডিশন ক্যাম্পের শুরুর দিকে থাকতে পারেননি তিনি। রুবেল অবশ্য ওই মিস করা সময়টা পূরণকরতে পেরে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলছেন, ‘শুরু থেকে ক্যাম্পে ছিলাম না। এ জন্য আমাকে অন্যদের চেয়ে খানিকটা বেশি পরিশ্রম করতে হয়েছে। আমিও পরিশ্রম করেছি। চেষ্টা করেছি ভালো কিছু করার।’
চট্টগ্রামে অনুষ্ঠিত তিনদিনের প্রস্তুতি ম্যাচে সবচেয়ে সফল বোলার শফিউল ইসলাম। তারপরই রুবেল নিজেকে রাঙিয়ে নিয়েছে বল হাতে। এক ইনিংসে ১৭ ওভার বোলিং করে ৫৪ রান খরচায় তিনি নিয়েছেন ৩ উইকেট। গত শুক্রবার শেষ হওয়া তিন দিনের প্রস্তুতি ম্যাচে নিজের বোলিং নিয়ে রুবেলের বিশ্লেষণ, ‘বোলিংটা তো শতভাগ দিয়েই করছি। সামর্থ্যরে পুরোটা দেওয়ার চেষ্টা করেছি। অনেকদিন পর ম্যাচ খেলার কারণে বোলিং করতে কিছুটা কষ্ট হয়েছে। তারপরও বোলিংয়ে কোনও ঘাটতি রাখিনি।’
টেস্টে জায়গা নিশ্চিতের জন্য পরিশ্রম করে যাবেন রুবেলগত কয়েক সিরিজ ধরই পেসাররা সেরা ফর্মে নেই। পেসারদের খারাপ পারফরম্যান্স দুশ্চিন্তায় ফেলে দেয় টিম ম্যানেজমেন্টকে। তাই প্রাথমিক স্কোয়াডে থাকা পেসারদের নিয়ে বোলিং কোচ কোর্টনি ওয়ালশ গত কিছুদিন ধরে আলাদা করে ক্লাস নিচ্ছেন। সব মিলিয়ে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সেরা প্রস্তুতি নেওয়ার সুযোগ পাচ্ছেন বোলাররা। রুবেলের মতে, ‘আগামী বুধবার আমাদের আরও একটা প্রস্তুতি ম্যাচ রয়েছে। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে আমাদের প্রস্তুতিটা খুব ভালোভাবে হচ্ছে। পেসারদের নিয়ে আলাদা কাজ করছেন বোলিং কোচ। কালও (রবিবার) আমাদের নিয়ে সকালে কাজ করবেন তিনি (ওয়ালশ)। সবকিছু মিলিয়ে অস্ট্রেলিয়া সিরিজের আগে, বিশেষ করে আমাদের পেসারদের প্রস্তুতিটা ভালোই হচ্ছে।’
ওয়ালশের অনুশীলন শুধু অস্ট্রেলিয়া সিরিজে নয়, যে কোনও টুর্নামেন্টেই পেসারদের নতুন কিছু করতে সাহায্য করবে বলে বিশ্বাস রুবেলের, ‘অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে আমি কিংবা অন্য যে কেউই যদি দলে না থাকে, তারপরও আমরা যে প্রস্তুতিটা নিলাম, সেটা সামনের যে কোনও টুর্নামেন্টে কাজে দেবে।’

 


দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর