Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার ১৬ জুন ২০১৯, ২ আষাঢ় ১৪২৬, ১২ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

লালবাগে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে স্কুলছাত্র নিহত ইঁদুরের ওষুধে যুবকের মৃত্যু

প্রকাশের সময় : ১৩ মার্চ, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : রাজধানীর লালবাগে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে বায়েজিদ (১৩) নামের এক স্কুলছাত্র নিহত হয়েছে। এছাড়া গুলিস্তানে ঘরে দেয়া ইঁদুরের ওষুধের বিষক্রিয়ায় জিহাদ (২০) নামে এক যুবক মারা গেছে বলে অভিযোগ রয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ দু’টি ঢাকা মেডিকেল মর্গে পাঠানো হয়েছে। পুলিশ ও মেডিকেল সূত্র জানায়, লালবাগে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে নিহত বায়েজিদ আজিমপুর মৌচাক কলোনির মীর আবদুর রাশেদের পুত্র। সে স্থানীয় একটি স্কুলের ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র ছিল। নিহতের প্রতিবেশি ফয়সাল জানান, গতকাল বেলা পৌনে একটার দিকে বায়েজিদ তেঁতুল পাড়ার জন্য কলোনির একটি গাছে ওঠে। এ সময় তেঁতুল গাছের ডালের পাশে থাকা বিদ্যুতের তারে সে জড়িয়ে পড়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। বেলা সোয়া দুইটার দিকে কর্তব্যরত চিকিৎসক বায়েজিদকে মৃত ঘোষণা করেন।
এদিকে রাজধানীর গুলিস্তানের পাতাল মার্কেটের একটি টেইলার্সের দোকানে ঘুমাচ্ছিলেন জিহাদ (২০) নামের এক যুবক। নয়ন ও শাওন নামের আরো দুজন সঙ্গে ঘুমাচ্ছিলেন। ইঁদুরের অত্যাচার থেকে বাঁচতে তারা রাতে রুমে গ্যাস ট্যাবলেট (ইঁদুর মারা ওষুধ) দিয়েছিলেন। গতকাল (শুক্রবার) সকালের দিকে নয়ন ও শাওন বিছানা ছেড়ে উঠলেও জিহাদ উঠেনি। সন্ধ্যার দিকে নয়ন ও শাওন রুমে ফিরে দেখেন জিহাদ তখনো শুয়ে আছে। সন্ধ্যার দিকে তাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। শাওন জানান, ইঁদুরের ওষুধ দিয়ে ঘুমানোর পর শুক্রবার সকালের দিকে জিহাদ বাদে দুজনের বমি হয়েছে। মাথাও ঘুরেছে অনেকবার। জিহাদের এ কারণে মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে। চিকিৎসকরা প্রাথমিকভাবে ধারণা করছেন, বিষক্রিয়ায় জিহাদের মৃত্যু হতে পারে। তবে লাশের ময়না তদন্তে বিষয়টি পরিষ্কার হবে। প্রাথমিকভাবে তার বিস্তারিত পরিচয় জানা যায়নি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন