Inqilab Logo

ঢাকা শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৮ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

নজর নাদাল ফেদেরার শারাপোভায়

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৯ আগস্ট, ২০১৭, ১২:০০ এএম

কিছুদিন আগেই পার করেছেন ৩৬। এই বয়সে এসেও কোন আসরে ফেভারিট তকমা গায়ে মাখার সৌভাগ্য ক’জনার ভাগ্যেই বা জোটে। এক্ষেত্রে অবশ্য বলতে পারেনÑ সবাই তো আর রজার ফেদেরার নন।
গতকাল থেকে যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে শুরু হয়েছে বছরের শেষ গ্র্যান্ড ¯ø্যাম ইউএস ওপেন। সেটা অবশ্য আক্ষরিক অর্থে; ফেদেরার, নাদালরা যে এখনো কোর্টে নামেননি। ফেদেরারকে কোর্টে দেখা যাবে কাল, যুক্তরাষ্ট্রের ভাবী তারকা ২০ বছর বয়সী ফ্রান্সিস তাইফোর বিপক্ষে। আজ মাঠে নামছেন র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ তারকা রাফায়েল নাদাল। স্প্যানিশ তারকার প্রতিপক্ষ সার্বিয়ার দুসান লাজোভিচ। চোটের কারণে আসরের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন স্তান ভাভরিঙ্কা এবং সময়ের আরো দুই তারকা অ্যান্ডি মারে ও নোভাক জোকোভিচ।
সবচেয়ে বড় নজর থাকবে সুইস মাস্টার হেডস রজার ফেদেরারের উপরই। বছরের তিন গ্র্যান্ড ¯øামের দুটিতে অঙ্ক নিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন দুটিতেই। নিজের গ্র্যান্ড ¯øাম শিরোপার রেকর্ডটাও নিয়ে গেছেন ঊনিশে। এবার জিতে বিশ পূর্ণ করতে চান ফেদেরার। রোলা গ্যাঁরোর বছরের বাকি গ্র্যান্ড ¯øামটি দখলে নেন নাদাল। মৌসুমের শেষ গ্র্যান্ড ¯ø্যাম জিতে ক্যারিয়ারে আরেকটি সাফল্য যোগ করতে চান নাম্বার ওয়ান তারকাও।
ক্যারিয়ারে ১০ম ফ্রেঞ্চ ওপেন ও ১৫তম গ্র্যান্ড ¯ø্যামের শিরোপা জয় করে তিন বছরেরও বেশী সময় পরে র‌্যাঙ্কিংয়ের এক নম্বরে ফেরা নাদাল বলেন, ‘এটা এমন এক ধরনের গ্র্যান্ড ¯ø্যাম যেখানে কেউই খুব বেশী সাফল্যের প্রত্যাশা করতে পারেনা। কিন্তু তারপরেও এখন আমরা সবাই এখানে। সবাই পরিশ্রম করেই এখানে ভাল খেলতে এসেছে। সে কারণেই দেখা যাক শেষ পর্যন্ত মৌসুমের শেষটা কেমন হয়।’
নাদাল-ফেদেরার এর আগে কখনই হার্ড কোর্টের এই টুর্নামেন্টে একে অপরের মুখোমুখি হননি। সবকিছু ঠিক থাকলে এবার তারা মুখোমুখি হবেন সেমিফাইনালে। র‌্যাঙ্কিংয়ের তিন নম্বর ও সাবেক এক নম্বর তারকা ফেদেরার অবশ্য আপাতত অতদুর ভাবছেন না, ‘ম্যাচটা (সেমিফাইনাল) দারুণ উপভোগ্য হবে। প্রায় ৬০ শতাঙ্ক খেলোয়াড় রয়েছেন আমাদের মধ্যে যারা কখনই চাইবে না আমরা সেমিফাইনাল খেলি। তবে যাই হোক আমার মনে হয়না এখনই আমাদের মধ্যে কেউ অতদূর চিন্তা করছি। এই মুহূর্তের ম্যাচগুলোতেই আমরা মনোযোগী হতে চাই।’ একই রকম ভাবনা নাদারেরও, ‘দশটি জয়ের পরে সেই ম্যাচ আসবে। সেমিফাইনালে আগে অনেক পয়েন্ট, অনেক ম্যাচ অপেক্ষা করছে। এখন সেগুলো নিয়ে ভাবার কিছু আসেনি। আমার কাছে এখন মূল প্রতিপক্ষ লাজোভিচ।’
২০১২ সালের উইম্বলডনের পরে চলতি বছরের সাফল্য ছাড়া আর কোন গ্র্যান্ড ¯ø্যাম জিতেননি ফেদেরার। আসরের ৫ গ্রান্ড ¯øামের শেষটিও জিতেছিলেন ৯ বছর আগে, সেই ২০০৮ সালে। আসরের রেকর্ড ৭ বারের চ্যাম্পিয়ন রিচার্ড স্টিয়ারকে ছুঁতে আরো দুবার জিততে হবে ফেদেরারকে।
এই দুজনের বাইরে আলো থাকবে আরো আরো একজনের উপরÑ মারিয়া শারাপোভা। ডোপ কেলেঙ্কারি ও পরবর্তিতে ইনজুরির কারণে দীর্ঘদিন কোর্টের বাইরে কাটানোর পর এই প্রথম কোন গ্র্যান্ড¯ø্যাম আসরে খেলার সুযোগ পাচ্ছেন রাশিয়ান সুন্দরী। এর আগে ফ্রেঞ্চ ওপেনে তাকে ওয়াইল্ড কার্ড দেয়া হয়নি, থাইয়ের ইনজুরির কারনে খেলতে পারেননি উইম্বলডন। হাতের ইনজুরির কারনে বিশ্রামে থাকার পরে ইউএস ওপেনের প্রস্তুতি হিসেবে মাত্র একটি ম্যাচ খেলেছেন। সে কারণেই দীর্ঘদিন পরে হার্ডকোর্টে ফিরে এসে ৫ গ্রান্ড ¯ø্যামের মালিক ও আসরের ২০০৬ এর চ্যাম্পিয়ন হিসেবে নিজেকে কতটা মানিয়ে নিতে পারবেন সেটাই এখন দেখার।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: শারাপোভায়
আরও পড়ুন