Inqilab Logo

বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৪ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী
শিরোনাম

বিশ্বনাথের মিয়ার বাজারে দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষে অর্ধশত আহত দোকান ভাঙচুর

প্রকাশের সময় : ১৪ মার্চ, ২০১৬, ১২:০০ এএম

বিশ্বনাথ (সিলেট) উপজেলা সংবাদদাতা

সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার দশঘর ইউনিয়নের মিয়ার বাজারে দুই গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। দুই ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষে উভয় পক্ষের প্রায় অর্ধশত লোক আহত হয়েছেন। গুরুতর আহতদের সিলেট ওসমানী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ সময় বাজারের অর্ধশত দোকান ভাঙচুর ও প্রায় ৫০ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। সংঘর্ষ চলাকালে সিলেট-জগন্নাথপুর সড়কে যানচলাচল বন্ধ ছিল। শনিবার রাত ১০টায় চান্দভরাং ও রায়কেলী গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষের এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিত নিয়ন্ত্রণে আনে। বর্তমানে মিয়ার বাজার এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। তবে এ ঘটনায় থানায় কোন অভিযোগ দায়েরের খবর পাওয়া যায়নি। বিষয়টি স্থানীয়ভাবে আপোষে নিষ্পত্তি করার চেষ্টা চলছে। জানা গেছে, জগন্নাথপুরগামী মালবাহী একটি পিকআপ কালীগঞ্জ বাজারে একটি সিএনজি চালিত অটোরিকশার সাথে ধাক্কা লাগে। পরে পিকআপটি মিয়ার বাজার এলাকায় যাওয়ার পর স্থানীয় ব্যবসায়ী রায়কেলী গ্রামের সাজু মিয়া গাড়িটি আটক করেন। এ সময় চান্দভরাং গ্রামের কামরুজ্জামান সেবুলসহ স্থানীয় কয়েকজন বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য এগিয়ে যান। এ নিয়ে সেবুল ও সাজু মিয়ার মধ্যে বাকবিত-া শুরু হলে হাতাহাতিতে রূপ নেয়। এক পর্যায়ে রায়কেলী ও চান্দভরাং গ্রামের লোকজন দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। দেশীয় অস্ত্র এবং ইট পার্টকেলের আঘাতে উভয় পক্ষের প্রায় অর্ধশতাধিক লোক আহত হয়। বর্তমানে এলাকার পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে জানিয়ে বিশ্বনাথ থানার ওসি আবদুল হাই বলেন, এ ঘটনায় এখনও কোন লিখিত অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বিশ্বনাথের মিয়ার বাজারে দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষে অর্ধশত আহত দোকান ভাঙচুর
আরও পড়ুন