Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ০৫ আশ্বিন ১৪২৪, ২৮ যিলহজ ১৪৩৮ হিজরী
শিরোনাম

‘অনুশীলনই’ কাল হলো কৃষ্ণাদের!

মেয়েদের শোচনীয় হারে পলের ব্যাখ্যা

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭, ১২:০০ এএম

পল স্মলি। বৃটেনে জন্মগ্রহণকারী অস্ট্রেলিয়ান নাগরিক। যিনি বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) ট্যাকনিক্যাল ডাইরেক্টর। প্রায় একবছর হতে চললো বাফুফে তাকে নিয়োগ দানের পর লাল-সবুজ ফুটবলের কোনই উন্নতি ঘটে নাই। সেটা হোক পুরুষ কিংবা নারী দলের। অথচ এই মানুষটিই বিদেশ সফরের সময় বাংলাদেশ জাতীয় বা বয়সভিত্তিক দলের সঙ্গে ঘুরে বেড়াচ্ছেন একের পর এক দেশ। বর্তমানে থাইল্যান্ডের চনবুড়িতে রয়েছে বাংলাদেশ অনুর্ধ্ব-১৬ নারী ফুটবল দল। সেখানে তারা এএফসি অনুর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের চুড়ান্ত পর্বে লড়াই করছে। যে আসরের ‘বি’ গ্রæপে লাল-সবুজ মেয়েদের প্রতিপক্ষ অনুর্ধ্ব-১৭ বিশ্বকাপের দুইবারের চ্যাম্পিয়ন উত্তর কোরিয়া, স্বীকৃত ফুটবল শক্তি জাপান ও শক্তিশালী অস্ট্রেলিয়া। ইতোমধ্যে বাংলাদেশ তাদের প্রথম ম্যাচ খেলেছে উত্তর কোরিয়ার বিপক্ষে। সোমবার চুনবুড়িতে অনুষ্ঠিত এ ম্যাচে উত্তর কোরিয়া ৯-০ গোলে বিধ্বস্ত করে লাল-সবুজদের।
জানা গেছে, এ ম্যাচ খেলার আগে বাংলাদেশের কিশোরীদের দীর্ঘ অনুশীলনে বাধ্য করেন পল স্মলি। বিকালে ম্যাচ খেলার আগে ওই দিন সকালে দু’ঘন্টা ঘাম ঝরানো অনুশীলন করে কৃষ্ণা রাণী বাহিনী। যার প্রভাব পড়ে ম্যাচে। উত্তর কোরিয়ান মেয়েদের সামনে দাঁড়াতেই পারেননি কৃষ্ণা-তহুরা-মার্জিয়ারা। ফলে গোলের পর গোল হজম করতে হয় তাদের। একদিন পর হলেও অবশ্য এমন হারের ব্যাখা দিয়েছেন পল স্মলি। যিনি চলতি বছরের শুরু থেকে বাংলাদেশ মহিলা ফুটবলের উপদেষ্টা হিসেবে কাজ করছেন। গতকাল নিজের ম্যাচ বিশ্লেষণে পল বলেন, ‘আমরা অনেক সাধারণ বিষয় ভুল করেছি। যার শাস্তি পেয়েছি। আট মিনিটের মধ্যে গোলরক্ষকের ভুলে দু’গোলে পিছিয়ে পড়ি। যার ফলে শুরুতেই ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ শেষ হয়।’ তবে এমন শোচনীয় হারের পেছনে সবচেয়ে আলোচিত বিষয় হলো ম্যাচের দিন সকালে অনুশীলন করানো। বিভিন্ন সূত্রে জানায়, বাংলাদেশ দলের প্রধান কোচ গোলাম রাব্বানী ছোটন অনুশীলন করাতে চাননি। কিন্তু পল স্মলির নির্দেশনাতেই অনুশীলন হয়েছে। এই অনুশীলন নিয়ে পলের ব্যাখ্যা, ‘মাত্র কয়েক মিনিটের ট্যাকটিক্যাল সেশন হয়েছিল। কঠিন ট্রেনিং হয়নি। ম্যাচের দিন এ রকম ট্যাকটিক্যাল সেশন বিশ্বের অনেক দলই করে থাকে।’
বিকালে ম্যাচ অথচ সকালে ৩৫ ডিগ্রি তাপমাত্রায় অনুশীলন। আর অনুশীলন ভেন্যু টিম হোটেল থেকে বিশ কিলোমিটার দূরে। ফুটবলারদের মাঝে ক্লান্তির ছাপ স্পষ্ট ছিলো। কিন্তু এটা মানতে নারাজ পল। তার কথা, ‘শারীরিকভাবে তারা মোটেও ক্লান্ত ছিল না। আবেগ কাজ করছিল ফুটবলারদের অনেকের মাঝে। মানসিকভাবে ভেঙে পড়ছিল তারা। মৌসুমি, নার্গিসরা কঠিন প্রতিপক্ষ পেয়ে এবং নতুন পরিবেশে এসে কিছুটা ভেঙে পড়েছিল। তবে সেটা মোটেও সকালের অনুশীলনের জন্য নয়। শারীরিকভাবে ক্লান্ত বা আনফিট হলে সেটা তৃতীয় ম্যাচে হলে হতে পারে। প্রথম ম্যাচে মোটেও এ রকম ছিল না।’ ডাগ আউট থেকে দ্বৈত নির্দেশনা সম্পর্কে পল বলেন, ‘ডাগ আউট থেকে কোচ ও আমার নির্দেশনা একই থাকে। গত এক বছর ধরে এভাবেই হয়ে আসছে। পার্থক্য শুধু ছোটন বাংলায় বলে আর আমি ইংরেজিতে। এটা বিশ্বে অনেক দেশেই হয়। আমাদের নির্দেশনা মোটেও সাংঘর্ষিক ছিলো না।’ বড় ব্যবধানে হারের পর দলের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে এই ট্যাকনিক্যাল ডাইরেক্টরের কথা, ‘মেয়েদের বলার সুযোগ দিয়েছি। তাদের অভিজ্ঞতা শুনেছি। আজ (গতকাল) রিকভারি ট্রেনিং হয়েছে। কাল (আজ) জাপান ম্যাচ নিয়ে কাজ শুরু হবে। ম্যাচের দিন ট্যাকটিক্যাল সেশন হতেও পারে নাও পারে।’
গতকাল চনবুড়ির ফিজিক্যাল ইন্সটিউিট স্টেডিয়ামে পৌনে এক ঘন্টার রিকভারি ট্রেনিং করেছে বাংলাদেশ কিশোরী ফুটবল দল। যে ফুটবলাররা প্রথম ম্যাচে খেলেননি তারা হাল্কা অনুশীলন করেছেন। আগামীকাল দ্বিতীয় ম্যাচে লাল-সবুজদের প্রতিপক্ষ শক্তিশালী জাপান। এবং ১৭ সেপ্টেম্বর ‘বি’ গ্রুপের শেষ ম্যাচে আরেক শক্তিশালী অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে মাঠে নামবে বাংলাদেশ অনুর্ধ্ব-১৬ নারী দল। বাংলাদেশের গ্রুপে থাকা অন্য তিন দলের মধ্যে উত্তর কোরিয়া অনূর্ধ্ব-১৭ বিশ্বকাপের দুইবারের চ্যাম্পিয়ন। জাপান একবারের সেরা। আর অস্ট্রেলিয়া মেয়েদের ফুটবলের র‌্যাঙ্কিংয়ে এশিয়ায় শীর্ষে। আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর শেষ হবে নারী ফুটবলে এশিয়ার সেরা আট দলের লড়াই। চ্যাম্পিয়ন, রানার্সআপ ও তৃতীয়স্থান অর্জনকারী দলের ভাগ্যে জুটবে আগামী বছর অনুষ্ঠিতব্য ফিফা অনূর্ধ্ব-১৭ নারী বিশ্বকাপের টিকিট।

 


দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।