Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৭, ০৯ কার্তিক ১৪২৪, ০৩ সফর ১৪৩৯ হিজরী

দেশের ভূমি দখলের চেষ্টা হলে সামরিক ব্যবস্থা : এরদোগান

কুর্দিস্তানে গণভোটের নিন্দায় ইরান-তুরস্ক

ইনকিলাব ডেস্ক: | প্রকাশের সময় : ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৭, ১২:০০ এএম

স্বাধীনতার দাবিতে ইরাকের কুর্দিস্তানে গণভোট অনুষ্ঠানের নিন্দা জানিয়েছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েব এরদোগান। তিনি বলেছেন, কেউ যদি তার দেশের ভূমি দখলের চেষ্টা করে তা হলে সামরিক ব্যবস্থা নিতে তিনি পিছপা হবেন না। আন্তর্জাতিক বিরোধিতা ও আঞ্চলিক উত্তেজনার মধ্যেই ইরাকের স্বায়ত্তশাসিত অঞ্চলটির জনগণ স্বাধীনতার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে গত সোমবার গণভোটে অংশগ্রহণ করে। ইরাকের উত্তরাঞ্চলীয় শহর এরবিল ও রাজধানী বাগদাদের মধ্যবর্তী বিরোধপূর্ণ অঞ্চল এবং তেলসমৃদ্ধ কিরকুক এলাকাজুড়ে এ ভোট অনুষ্ঠিত হয়। এ অঞ্চলে কুর্দিরা ছাড়াও বিভিন্ন জাতিগোষ্ঠী বসবাস করে আসছে। এদিকে তুরস্ক ছাড়াও ইরাকের কেন্দ্রীয় সরকার ও ইরান গণভোটের তীব্র বিরোধিতা করেছে। এসব দেশের আশঙ্কা এই গণভোটের ফলে তাদের নিয়ন্ত্রণে থাকা কুর্দি এলাকাগুলোতেও বিচ্ছিন্নতাবাদী আন্দোলন ছড়িয়ে পড়তে পারে। গণভোটের পরিপ্রেক্ষিতে এরদোগান বলেন, যে কোনো ধরনের ব্যবস্থা নিতে ইরাকের সীমান্তে আমাদের সশস্ত্র বাহিনী তৈরি আছে। তিনি বলেন, এই গণভোটের পরিপ্রেক্ষিতে কুর্দিস্তান আঞ্চলিক সরকারের (কেআরজি) তেল রফতানি আটকে দিতে পারে তুরস্ক। তিনি আরও বলেন, আমরা তুরস্ক থেকে কাউকে বা কোনো কিছু ইরাকে প্রবেশ করতে দেব না। এ সপ্তাহে আমরা অন্যান্য পদক্ষেপ নেব। আমরা সীমান্ত বন্ধ করে দেব। সীমান্ত দিয়ে কোনো কিছুই যেতে পারবে না। সোমবার ইস্তাম্বুলে দেয়া এক বক্তব্যে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট বলেন, ইরাকের সঙ্গে তুরস্কের একমাত্র স্থলসীমান্ত হাবুরের প্রবেশ-প্রস্থান বন্ধ করে দেয়া হবে। তিনি বলেন, এর পর দেখি কোন পথ দিয়ে তারা তেল পাঠায়। তারা কাদের কাছে তেল বিক্রি করে। কপাট আমাদের হাতে। আমরা আটকানোর সঙ্গে সঙ্গে এটি (রফতানি) বন্ধ হয়ে যাবে। ইরাকের কুর্দি তেল রফতানি হয় তুরস্ক ও এর দক্ষিণাঞ্চলীয় সেইহান বন্দর দিয়ে। এ বন্দরটি এ অঞ্চলের অর্থনীতির প্রধান সরবরাহ কেন্দ্র। আনাদুলো, বিবিসি, রয়টার্স।

 


Show all comments
  • নাসির ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৭, ১২:৫০ পিএম says : 0
    আলোচনার মাধ্যমে বিষয়টির সমাধান হওয়া দরকার।
    Total Reply(0) Reply
  • Yousuf Ali ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৭, ১:৩১ পিএম says : 1
    পশ্চিমাদের চক্রান্ত হলো বড় মুসলিম দেশকে ভেংগে টুকরা টুকরা করে দাও এর পর লুটেপুটে খাও,বাধা দিলে জংগীদের ঘাটি বলে হামলা করে তাবেদার ও অনুগত লোককে প্রেসিডেন্ট বানিয়ে ইচছা মত যা খুশি তাই কর আর মসতি কর।
    Total Reply(0) Reply
  • Rakib khan ৩ অক্টোবর, ২০১৭, ১:৩৭ এএম says : 0
    Right
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।