Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৭, ০৯ কার্তিক ১৪২৪, ০৩ সফর ১৪৩৯ হিজরী

জামায়াতের হরতালে সমর্থন দিয়ে বিএনপি দেশকে আবারও অস্থিতিশীল করতে চায় -খাদ্যমন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৩ অক্টোবর, ২০১৭, ১২:০০ এএম

দলের শীর্ষ নেতাদের গ্রেপ্তারের প্রতিবাদে জামায়াতে ইসলামীর ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতালে সমর্থন জানিয়ে বিএনপি আবার দেশকে অস্থিতিশীল করতে চায় বলে মন্তব্য করেছেন খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম। মিয়ানমার সেনাবাহিনীর হামলায় জীবন নিয়ে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের সন্ত্রাাসী কর্মকান্ডের সঙ্গে জড়ানোর জন্য বিএনপি চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে বলেও দাবি করেন তিনি।
গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে জামায়াতের হরতালে বিএনপি সমর্থন দেয়ার এক ঘন্টা পর জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে হরতাল বিরোধী এক মানববন্ধনে তিনি এসব মন্তব্য করেন। জামায়াতের ডাকা হরতাল শুরুর চার ঘণ্টা পর তাদের জোট শরীক বিএনপি হরতালে সমর্থনের কথা ঘোষনা করে।
কামরুল ইসলাম বলেন, জামায়াতে ইসলামীর ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতালে সমর্থন জানিয়ে বিএনপি আবার দেশকে অস্থিতিশীল করতে চায়।
রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যখন বিশ্বব্যাপি সমাদৃত, আলোচিত ও প্রশংসা অর্জন করেছেন ঠিক তখনই জামায়াত হরতাল ডেকে দেশকে অস্থিতিশীল করতে চাচ্ছে দাবি করে কামরুল বলেন, আর বিএনপি এতে সমর্থ দিয়ে দেশের বর্তমান পরিবেশকে অস্থিতিশীল করতে চায়।
মিয়ানমার থেকে জীবন নিয়ে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের সন্ত্রাাসী কর্মকান্ডের সঙ্গে জড়ানোর জন্য বিএনপি চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে বলেও দাবি করেন তিনি বলেন, আজকে সরকার যখন রোহিঙ্গাদের সেইফ জোনে নেয়ার কথা ভাবছে ঠিক সেই মূহুর্তে বিএনপি তার বিরোধিতা করছে। এর কারণ বিএনপি এই রোহিঙ্গাদের বাংলাদেশে সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের সঙ্গে জড়াতে চায়। তাদের জঙ্গি বানাতে চায়। কিন্তু বাংলাদেশের মানুষ তাদের এ অসৎ উদ্দেশ্য বাস্তবায়ন হতে দেবে না।
মানববন্ধনে আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক হাছান মাহমুদ বলেন, জামায়াতের ডাকা আজকের এই হরতাল বাংলাদেশের মানুষ প্রত্যাখ্যান করেছে। দেশের কোথাও হরতাল পালন হচ্ছে না।
আওয়ামী লীগ আবারও একতরফা নির্বাচন করার লক্ষ্যে ‘নীলনকশা’ অনুযায়ী বিশ্বের তারকা ফুটবলার লিওনেল মেসির মত খেলছে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের এমন বক্তব্যের জন্য তাকে ধন্যবাদ জানান আওয়ামী লীগ নেতা হাছান মাহমুদ। তিনি বলেন, আমি মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাহেবকে ধন্যবাদ জানাই। তিনি সেটা অনুধাবন করেছেন যে আওয়ামী লীগ মেসির মত খেলছে। মেসি নিঃসন্দেহে ভাল খেলোয়ার। একদিন আগে মেসি টানা তিনটি গোল করে হ্যাট্টিক করেছে। আওয়ামী লীগ সরকারও টানা তিন বার ক্ষমতায় গিয়ে হ্যাট্টিক করবে। এটা যে তিনি (মির্জা ফখরুল) অনুধাবন করেছেন এজন্য মির্জা ফখরুল ইসলাম সাহেবকে আবারও ধন্যবাদ জানাই।
মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় কমিটির সভাপতি ক্যাপ্টেন (অব.) এবি তাজুল ইসলাম বলেন, স্বাধীনতা বিরোধী চক্রের ডাকা হরতালে মানুষ সাড়া দেয়নি। কখনও দেবেও না। একটি মুক্তিযোদ্ধা জীবিত থাকা অবস্থায় দেশকে নিয়ে স্বাধীনতা বিরোধীদের ষড়যন্ত্র সফল হবে না। তিনি বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনা যখন বাংলাদেশকে বিশ^ দরবারের এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন, তখন লন্ডনে বসে মা-পুতে সরকার উৎখাতে ষড়যন্ত্র করছে। তারা হুকুম দিয়ে জামায়াত-শিবিরকে মাঠে নামিয়ে অরাজক পরিস্থিত সৃষ্টি করতে চায়। কিন্তু দেশের মানুষ খালেদার ষড়যন্ত্র সফল হতে দেবে না। জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে, এগিয়ে যাবে। কেউ বাধাগ্রস্ত করতে পারবে না।
তাজুল বলেন, আগামী ২০১৯ সালে জননেত্রী শেখ হাসিনার অধীনে ভোট হবে। সেই ভোটে অংশ নিন। এবার নির্বাচনে না আসলে বিএনপি-বিলীন পার্টিতে রূপান্তরিত হবে।
জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা সমন্বয় কমিটি নামের একটি সংগঠনের এই মানববন্ধনে আরও বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগ নেতা সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শামসুল হক টুকু, আওয়ামী লীগ নেতা বলরাম পোদ্দার, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক অরুণ সরকার রানা।

 


দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ সংক্রান্ত আরও খবর